Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৭ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

সৌরভ হত্যায় দোষী সাব্যস্ত ১২, ফাঁসি চায় পরিবার

দু’বছর পর রায় ঘোষণা হল বামনগাছির সৌরভ চৌধুরী হত্যা মামলার। শুক্রবার এই মামলার ১৩ জন অভিযুক্তের মধ্যে ১২ জনকেই দোষী সাব্যস্ত করেছেন বারাসত জে

নিজস্ব সংবাদদাতা
১৫ এপ্রিল ২০১৬ ১৬:১০
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

দু’বছর পর রায় ঘোষণা হল বামনগাছির সৌরভ চৌধুরী হত্যা মামলার। শুক্রবার এই মামলার ১৩ জন অভিযুক্তের মধ্যে ১২ জনকেই দোষী সাব্যস্ত করেছেন বারাসত জেলা আদালতের সপ্তম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা বিচারক দামন প্রসাদ বিশ্বাস। শনিবার অভিযুক্তদের সাজা শোনাবে আদালত। এই মামলায় বেকসুর খালাস পেয়েছে রাজসাক্ষী অনুপ তালুকদার। সাজাপ্রাপ্ত ১২ জনের মধ্যে ৯ জনকে খুন, অপহরণ ও তথ্যপ্রমাণ লোপাটের অপরাধে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। এ দিন সরকারি কৌসুলি বিপ্লব রায় জানান, এর মধ্যে মূল অভিযুক্ত শ্যামল কর্মকারকে এই ধারাগুলি ছাড়া অস্ত্র রাখার অপরাধেও দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। বাকি ৩ জনের বিরুদ্ধে খুনে সাহায্য করা, যোগসাজস ও খুনিদের আশ্রয় দেওয়ার অপরাধ প্রমাণিত হয়েছে। রায় ঘোষণার পর অভিযুক্তদের পক্ষের আইনজীবী প্রদীপ কর বলেন, ‘‘রায় সন্তোষজনক নয়। আমরা উচ্চ আদালতে আপিল করব।’’
অন্য দিকে, মূল অভিযুক্ত শ্যামল কর্মকার আদালত থেকে বেরোনোর সময় ক্ষোভে ফেটে পড়েন। তিনি অভিযোগ করেন, তাঁকে ফাঁসানো হয়েছে। রাহুল সিংহ ও লকেট চট্টোপাধ্যায়রা তাঁকে ষড়যন্ত্র করে ফাঁসিয়েছেন, এমন অভিযোগও আনেন তিনি।
২০১৪-র জুলাই মাসে বামনগাছির দত্তপুকুর এলাকায় নিজের বাড়ির সামনে থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে সৌরভকে খুন করে তাঁর দেহ টুকরো টুকরো করে রেললাইনের ধারে রেখে যায় শ্যামল ও তাঁর দলবল। এলাকায় বেআইনি মদের কারবারের প্রতিবাদ করতে গিয়েই অকালে প্রাণ হারায় বিরাটি কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র সৌরভ। তাঁর মৃত্যুতে রাজ্য জুড়ে প্রতিবাদের ঝড় উঠেছিল। দোষীদের গ্রেফতারের পর ৪১ দিনের মাথায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে চার্জশিট জমা দেয় পুলিশ। আজ সেই হত্যা মামলার রায় ঘোষণা হল বারাসত জেলা আদালতে। এ দিন রায় ঘোষণার পর সৌরভের দাদা সন্দীপ চৌধুরী বলেন, ‘‘আমরা অভিযুক্তদের সর্বোচ্চ শাস্তি চেয়েছিলাম। এতদিন পরে এই রায়ে আমরা খুশি। ভাইকে তো আর ফিরে পাব না। চাই দোষীদের সকলের ফাঁসি হোক।’’ আদালত চত্বরে এ দিন মিছিল করে এসেছিল বিজেপি, সিপিএম ও তৃণমূল সমর্থকরা। সব দলেরই দাবি, এই জয় তাঁদেরই।

Advertisement


Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement