×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২১ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

মহিলাদের হেল্পলাইন চালু করবে জেলা

নিজস্ব সংবাদদাতা
মালদহ০৫ ডিসেম্বর ২০১৯ ০৪:১৩
গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

মালদহে মহিলাদের সুরক্ষায় ইংরেজবাজার মহিলা থানা একটি হেল্পলাইন নম্বর চালু করেছিল। কিন্তু অভিযোগ, গত তিন বছর ধরে সেই নম্বর অস্তিত্বহীন হয়ে রয়েছে। এ দিকে, হায়দরাবাদে এক মহিলা পশু চিকিৎসককে ধর্ষণ করে খুনের ঘটনায় মহিলাদের সুরক্ষার দাবি তুলে মালদহ জেলাতেও পথে নামে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন থেকে রাজনৈতিক দল। এই পরিস্থিতিতে মহিলাদের সুরক্ষায় হেল্পলাইন নম্বর চালু করতে উদ্যোগী হল মালদহ জেলা পুলিশ।

সূত্রের খবর, ওই হেল্পলাইন নম্বর চালু করার ব্যাপারে জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপারকে দ্রুত পদক্ষেপ করার নির্দেশ দিয়েছেন পুলিশ সুপার। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, কোনও মহিলা বিপদে পড়ে ওই নম্বরে ফোন করলে দ্রুত পদক্ষেপ করবে পুলিশ। 

মালদহের জেলা সদর ইংরেজবাজারে চালু রয়েছে মহিলা থানা। ২০১৫ সালে এই থানায় একটি হেল্পলাইন নম্বর চালু করা হয়েছিল (৯৭৩৩৭-২২১০০)। এক বছর চলার পরে ২০১৬ সালে হঠাৎই তা বন্ধ হয়ে যায়। এর পরে প্রায় তিন বছর কেটে গেলেও নতুন করে আর কোনও হেল্পলাইন নম্বর চালু করা হয়নি। এ ব্যাপারে কেউ উদ্যোগীও হয়নি বলে অভিযোগ। তাতে ইংরেজবাজার শহর বা জেলার কোনও প্রান্তে মহিলারা কোনও বিপদে পড়লে মহিলা থানার পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছেন না বলে অভিযোগ ওঠে।

Advertisement

এ দিকে, হায়দরাবাদে এক মহিলা পশু চিকিৎসককে গণধর্ষণ করে খুনের ঘটনায় তোলপাড় গোটা দেশ। প্রতিবাদ জানানো হয় মালদহ জেলাতেও। মহিলাদের সুরক্ষার দাবি তুলে মালদহ জেলায়, বিশেষত ইংরেজবাজার শহরে পথে নামে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন থেকে শুরু করে রাজনৈতিক দলগুলি। প্রশ্ন ওঠে মহিলাদের সুরক্ষায় পুলিশের ভূমিকা নিয়ে। 

এর পরেই জেলা পুলিশ সূত্রে খবর, মালদহ জেলায় মহিলাদের সুরক্ষায় নতুন করে একটি হেল্পলাইন চালু করতে চলেছে তারা। ওই ফোন নম্বর ২৪ ঘণ্টা চালু থাকবে। জেলায় কোনও মহিলা বিপদে পড়লে সেই নম্বরে ফোন করলে দ্রুত সংশ্লিষ্ট থানার পুলিশ পদক্ষেপ করবে। পুলিশ সুপার অলোক রাজোরিয়া বলেন, ‘‘মহিলাদের সুরক্ষায় একটি হেল্পলাইন নম্বর চালু করতে চাইছি। দ্রুত সেই নম্বর চালু করা হবে। জেলার বিভিন্ন থানা এলাকায় সেই নম্বর প্রচার করার পাশাপাশি সোশ্যাল মিডিয়াতেও প্রচার করা হবে।’’

Advertisement