Advertisement
১৬ জুলাই ২০২৪
TET

‘নিয়ম মেনেই নিয়োগ হবে’, টেট আন্দোলনের তিন দিন পরও নিজেদের অবস্থানে অনড় পর্ষদ সভাপতি

অনশন করতে গিয়ে কয়েক জন চাকরিপ্রার্থী অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। এই প্রসঙ্গে বৃহস্পতিবার গৌতম পাল বলেছেন, ‘‘যাঁরা অসুস্থ হয়ে পড়েছেন, সেটা অনভিপ্রত। অনশন তুলে নিন। সুস্থ থাকুন।’’

গৌতম পাল।

গৌতম পাল। ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২০ অক্টোবর ২০২২ ১৭:০৩
Share: Save:

নিয়ম মেনেই নিয়োগ হবে। বজায় রাখা হবে স্বচ্ছতা। সল্টলেকের করুণাময়ীতে টেট আন্দোলনের তিন দিন পরও নিজের অবস্থানে অনড় প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের সভাপতি গৌতম পাল। বৃহস্পতিবার বিকেলে সাংবাদিক বৈঠকে গৌতম আবার বললেন, ‘‘স্বচ্ছতা, নিরপেক্ষতা বজায় রাখা হবে। মেধা মেনে চলব। আইন মেনে চলব।’’

সেই সঙ্গে টেট উত্তীর্ণদের আমরণ অনশন তুলে নেওয়ারও আবেদন করেছেন পর্ষদ সভাপতি। গত সোমবার থেকে সরাসরি নিয়োগের দাবিতে করুণাময়ীতে পর্ষদের দফতরের সামনে অবস্থানে বসেছেন ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণরা। ওই চাকরিপ্রার্থীদের দাবি, তাঁরা দু’বার ইন্টারভিউ দিয়েছেন। এ বার সরাসরি নিয়োগ করতে হবে তাঁদের। নতুন করে আর নিয়োগ প্রক্রিয়ায় তাঁরা অংশ হতে চান না। পর্ষদের বক্তব্য, সকলকেই নিয়োগ প্রক্রিয়ার মাধ্যমেই নিয়োগ করা হবে। আর এ নিয়েই টানাপড়েন অব্যাহত করুণাময়ীতে। মঙ্গলবার সকাল থেকে ওই চাকরিপ্রার্থীরা আমরণ অনশন শুরু করেছেন।

অনশন করতে গিয়ে কয়েক জন চাকরিপ্রার্থী অসুস্থও হয়ে পড়েছেন। এই প্রসঙ্গে বৃহস্পতিবার গৌতম বলেছেন, ‘‘যাঁরা অসুস্থ হয়ে পড়েছেন, সেটা অনভিপ্রেত। অনশন তুলে নিন। সুস্থ থাকুন।’’

অন্য দিকে, বৃহস্পতিবার সল্টলেকে টেট আন্দোলন নতুন মোড় নিয়েছে। ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণদের পাল্টা আন্দোলনে শামিল হয়েছেন ২০১৭ সালের টেট উত্তীর্ণরা। সল্টলেকের ১০ নম্বর ট্যাঙ্কের সামনে অবস্থান বিক্ষোভ শুরু করেছেন তাঁরা। তাঁদের বক্তব্য, ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণদের দাবি ‘ঠিক নয়’। তাঁরা এখন ইন্টারভিউ প্রক্রিয়ায় অংশ নিলে আসনে কোপ পড়বে। সে ক্ষেত্রে ২০১৭ সালের টেট উত্তীর্ণদের সমস্যা হবে।

এই প্রসঙ্গে, পর্ষদ সভাপতি বলেন, ‘‘আমি বলতে পারি না, ২০১৭ সালের টেট উত্তীর্ণরা আগে পাবেন। ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণরা দুটো নিয়োগ প্রক্রিয়ায় অংশ নিয়েছেন। তাই বলে তাঁদের বাদ দিতে পারি না। সব শ্রেণির টেট উত্তীর্ণদের গ্রহণযোগ্যতা একই সারিতে। কাউকে এগিয়ে দিচ্ছি না। তাঁদের মধ্যে প্রতিযোগিতা হবে।কোনও শ্রেণির প্রতিই বিদ্বেষ নেই, সবাই সমান।’’ গৌতম এ-ও জানান যে, নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দেওয়ার আগে যে কোনও তারিখে পাশ করা প্রশিক্ষণ নেওয়ারা অগ্রাধিকার পাবেন। আগামী কাল থেকে রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া শুরু হবে বলে জানিয়েছেন পর্ষদ সভাপতি। স্বচ্ছতা বজায় রাখার জন্য নিয়োগ প্রক্রিয়া ‘অন ক্যামেরা’ করার কথাও জানান তিনি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

TET gautam pal
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE