Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৫ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

আন্তর্জাতিক

Universities of Billionaires: ধনকুবেরদের কারখানা! এই ১১টি বিশ্ববিদ্যালয় থেকেই পাশ করেছেন বিশ্বের অধিকাংশ কোটিপতি

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ২১ অক্টোবর ২০২১ ১৭:৩২
তাঁরা লক্ষ্মীর বরপুত্র। পৃথিবীর জমা-খরচের অনেকটাই নিয়ন্ত্রণ করেন। আবার এঁদের অনেকেরই বিশ্বের নামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রি রয়েছে। কেউ আবার পড়াশোনা মাঝপথে থামিয়ে রেখে হয়তো কলেজ ছেড়েছেন। তবে তাতে তাঁদের ‘১০ জনের এক জন’ হয়ে ওঠার পথে সেই সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ভূমিকাকে খাটো করে না।

সম্প্রতি প্রকাশিত একটি তালিকায় দেখা গিয়েছে, বিশ্বের ২৭৫৫ জন ধনকুবেরের অধিকাংশেরই কোনও না কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রি রয়েছে। তাঁদের বুদ্ধির বৃহস্পতিও নেহাৎ অবহেলা করার মতো নয়।
Advertisement
কোন কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেছেন এই ধনকুবেররা? দেখা গিয়েছে ধনকুবের তৈরিতে ‘পটু’ বিশ্বের ১১টি বিশ্ববিদ্যালয়। যার মধ্যে এক ভারতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ও রয়েছে।

কোন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কত জন ধনকুবের ডিগ্রি নিয়ে পাশ করেছেন, তার ভিত্তিতে ১১টি বিশ্ববিদ্যালয়ের ওই তালিকার শীর্ষে রয়েছে হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রিধারী ২৯ জন ধনকুবের। আর ন্যূনতম ১১ জন ধনকুবের তৈরি করে একসঙ্গে নবম স্থানে রয়েছে কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়, প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয় এবং ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া।
Advertisement
হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ২৯ জন। তবে এই তালিকার প্রথম দশে মার্ক জাকারবার্গ বা বিল গেটস নেই। দু’জনে হার্ভার্ডের ছাত্র হলেও তাঁরা দু’জনেই কলেজ শেষ হওয়ার আগে পড়াশোনা বন্ধ করে দেন। হার্ভার্ডের ডিগ্রিধারী ২৯ ধনকুবেরের মধ্যে ১৭ জনই অর্থনীতি এবং বিনিয়োগ শিল্পের ক্ষেত্রের মানুষ। এই তালিকার সবচেয়ে ধনী লস অ্যাঞ্জেলসের বাস্কেটবল টিম এলএ ক্লিপার্সের মালিক স্টিভ বামার। তাঁর সম্পদের পরিমাণ ৬ হাজার ৮৭০ কোটি ডলার। দ্বিতীয় জন ব্রাজিলের এক ইনভেস্টমেন্ট ব্যাঙ্কার পাওলো লেম্যান। তাঁর সম্পদ এক হাজার ৬৯০ কোটি ডলার। বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রিধারী ধনী ছাত্রদের সম্পদের মোট মূল্য ২০ হাজার সাতশো কোটি ডলার।

পেনসিলভ্যানিয়া বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ২৮ জন।  অল্পের জন্য দ্বিতীয়। তবে মোট সম্পদের বিচারে টেক্কা দিয়েছে হার্ভার্ডকেও। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনী ছাত্রদের মধ্যে রয়েছেন এলন মাস্ক। তাঁর সম্পদ ১৫ হাজার একশো কোটি ডলার। আমেরিকার প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও পড়াশোনা করেছেন এই বিশ্ববিদ্যালয়েই। বিশ্ববিদ্যালয়টির ধনকুবের ছাত্রদের মোট সম্পদের মূল্য ২৮ হাজার ৪৮০ কোটি ডলার।

স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ২৮ জন দ্বিতীয় স্থানের জোড়া দাবিদার। এই বিশ্ববিদ্যালয়েরও ধনী ছাত্রের সংখ্যা ২৮। তবে স্ট্যানফোর্ডের বিশেষত্ব অন্যত্র। পরিসংখ্যান বলছে নতুন উদ্যোগপতি বেশি তৈরি করেছে স্ট্যানফোর্ড। ভারতীয় বংশোদ্ভূত আমেরিকান ধনকুবের বৈজু ভাটও স্ট্যনফোর্ডের ছাত্র। এ ছাড়া ডিজিটাল ব্যাঙ্ক নুবাক, ইয়াহু প্রতিষ্ঠাতা জেরি ইয়াংও স্ট্যানফোর্ডে পড়াশোনা করেছেন। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনকুবের ছাত্রদের মোট সম্পদের মূল্য ১২ হাজার ৪৪০ কোটি ডলার।

ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ২১ জন।  একদা ওয়াল্ট ডিজনি সংস্থার সর্বাধিক শেয়ারের মালিক সিড বাস পড়াশোনা করেছেন ইয়েলে। তেল শিল্পের প্রথমসারির শিল্পপতি সিড রিচার্ডসনের উত্তরাধিকারী বাস-রা চার ভাই সিড, এডওয়ার্ড, রবার্ট এবং লি। এঁরা প্রত্যেকেই ইয়েলের ছাত্র। এ ছাড়া ২১ জন ধনকুবের ছাত্রের  মধ্যে রয়েছেন আলিবাবার সহ প্রতিষ্ঠাতা জো সাই-ও। ধনকুবের ছাত্রদের মোট সম্পদ ১৪ হাজার আট কোটি ডলারের।

মুম্বই বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ২০ জন।  জন মুকেশ অম্বানীর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। তবে একা তিনি নন। কুমারমঙ্গলম বিড়লা, উদয় কোটাক, রাধাকিষণ দামানিও মুম্বই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র। ধনকুবেরদের বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম একাদশে থাকা এক মাত্র অ-আমেরিকান বিশ্ববিদ্যালয় এটিই। তবে পরিসংখ্যান বলছে মাত্র চার জন ছাড়া মুম্বই বিশ্ববিদ্যালয়ের সমস্ত ধনকুবের ছাত্রই নিজেদের সম্পদ উত্তরাধিকার সূত্রে পেয়েছেন। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনকুবের ছাত্রদের মোট সম্পদ ১৬ হাজার ২৮০ কোটি ডলারের।

কর্নেল বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ১৮ জন।  এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনী ছাত্রদের মোট সম্পদের মূল্য ছ’হাজার ৫১০ কোটি ডলার। কয়েক জন ধনী ছাত্রের মধ্যে অন্যতম স্যান্ডি উইল, রবার্ট এফ স্মিথ, ডেভিড ডাফিল্ড এবং রবার্ট ল্যাঙ্গার। এর মধ্যে শেষ ব্যক্তি এক জন বিজ্ঞানী। মডার্নায় অংশীদারিত্বই ধনকুবের করেছে তাঁকে।

সাদার্ন ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ১৫ জন। ‘স্টার ওয়ার’ খ্যাত জর্জ লুকাস এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র। ব্রাজিলের এক ধনী প্রযোজক এবং পরিচালক ওয়াল্টার সালেসও এখানকার ছাত্র। ধনী ছাত্রদের সম্পদের মোট মূল্য পাঁচ হাজার ৮৫০ কোটি ডলার।

ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি। ধনকুবের ছাত্র ১৪ জন। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনকুবের ছাত্রদের অর্ধেকের বেশি ধনী হয়েছেন উত্তরাধিকার সূত্রে পাওয়া সম্পদে। আমেরিকার ধনী কোচ পরিবারের তিন সদস্য এমআইটি-র ছাত্র। ধনী ছাত্রদের সম্পদের মোট মূল্য ১০ হাজার ৪০০ কোটি ডলার।

কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ১১ জন। ছাত্রদের সম্পদের মোট হিসেবে সবচেয়ে পিছিয়ে রয়েছে কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনী ছাত্রদের মোট সম্পদের মূল্য চার হাজার ৯০ কোটি ডলার। ধনকুবের ছাত্রদের অধিকাংশই রয়েছেন বিনিয়োগ শিল্পে।

প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ১১ জন।  এই মুহূর্তে বিশ্বের ধনীতম ব্যক্তি জেফ বেজোস। ১৭ হাজার ৭০০ কোটি ডলারের সম্পত্তি তাঁর। জেফ প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র। আবার জেফের প্রাক্তন স্ত্রী, যিনি নিজেও একজন ধনকুবের, তিনিও প্রিন্সটনেরই ছাত্রী। ছাত্রদের মোট সম্পদের হিসেব করলে মাত্র ১১ জন ধনী নিয়েও সর্বাগ্রে রয়েছে প্রিন্সটন। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রদের মোট সম্পদ ২৮ হাজার ৮৪০ কোটি ডলার।

ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়। ধনকুবের ছাত্র ১১ জন। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ধনী ছাত্রদের মোট সম্পদের মূল্য আট হাজার ২৬০ কোটি ডলার। হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের জীববিদ্যার অধ্যাপক টিমোথি স্প্রিঙ্গার যিনি টিকা বানিয়ে মডার্নার অংশীদার হয়ে ধনকুবের হয়েছেন, তিনি ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ছিলেন।