Advertisement
১৯ জুন ২০২৪

নাকচ বোমা-তত্ত্ব

রুশ বিমান ধ্বংসের পিছনে ফের নতুন তত্ত্ব আনলেন তদন্তকারীরা। তবে পর্যাপ্ত প্রমাণের অভাবে সে তত্ত্ব জোর পায়নি। গুলি করে বিমানটিকে নীচে নামানোর সম্ভাবনার পাশাপাশি তদন্তকারীরা জানান, আগে থেকেই বিমানের মধ্যে বোমা লুকিয়ে রেখেছিল জঙ্গিরা।

চলছে বিমান ধ্বংসের তদন্ত। ছবি: এএফপি।

চলছে বিমান ধ্বংসের তদন্ত। ছবি: এএফপি।

সংবাদ সংস্থা
মস্কো শেষ আপডেট: ০৬ নভেম্বর ২০১৫ ০২:৪৬
Share: Save:

রুশ বিমান ধ্বংসের পিছনে ফের নতুন তত্ত্ব আনলেন তদন্তকারীরা। তবে পর্যাপ্ত প্রমাণের অভাবে সে তত্ত্ব জোর পায়নি। গুলি করে বিমানটিকে নীচে নামানোর সম্ভাবনার পাশাপাশি তদন্তকারীরা জানান, আগে থেকেই বিমানের মধ্যে বোমা লুকিয়ে রেখেছিল জঙ্গিরা।

উপগ্রহ চিত্রে যে আগুনের গোলার ছবি ধরা পড়েছে, তা সেই বিস্ফোরণেরই ফল। রুশ মেট্রোজেট বিমান এয়ারবাস এ৩২১-কে এ ভাবেই ধ্বংস করা হয়েছে বলে দাবি মার্কিন ও ইউরোপীয় তদন্তকারী সংস্থার। আরও দাবি, বিমানবন্দরের নিরাপত্তা বেষ্টনী এড়িয়ে বিমানের মধ্যেই লুকিয়ে রাখা হয়েছিল বোমা।

তবে এই বোমা তত্ত্ব খারিজ করে দিয়েছে রাশিয়া ও মিশর। এই তত্ত্বকে অবাস্তব বলে আখ্যা দিয়ে মিশরের বিমানমন্ত্রী হোসাম কামাল আজ বিবৃতি দেন, ‘‘তদন্তকারীদের কাছে এই সন্দেহের পক্ষে প্রমাণ নেই। ধ্বংসের প্রকৃত কারণ অনুসন্ধান করে তা সকলকে জানাতে মিশর সরকার দায়বদ্ধ।’’ বিমানবন্দরে নিরাপত্তা-গাফিলতির সম্ভাবনাকে আড়াল করতে তিনি আরও বলেন, ‘‘মিশরের সব ক’টি বিমানবন্দরেই আন্তর্জাতিক মানের সুরক্ষা ব্যবস্থা রয়েছে।’’

ক্রেমলিনের তরফেও জানানো হয়েছে, ভিত্তিহীন সন্দেহের উপর নির্ভর করে সিদ্ধান্তে পৌঁছনো সম্ভব নয়। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ বলেন, ‘‘তদন্তকারীদের তথ্যগুলি যাচাই করা প্রয়োজন। এখনই সরকারি ভাবে আমরা কিছু জানতে পারিনি।’’

২১৭ জন যাত্রী এবং সাত জন বিমান কর্মী-সহ শনিবার মিশরের সিনাইয়ে ভেঙে পড়ে রুশ বিমানসংস্থা কোগালিমাভিয়ার মেট্রোজেট বিমান এয়ারবাস এ৩২১। আইএসের মিশরীয় শাখা সংগঠন বিস্ফোরণের দায় স্বীকার করে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE