Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

৩৪ হাজারের মাইলফলক পেরোল সূচক

নিজস্ব সংবাদদাতা
২৭ ডিসেম্বর ২০১৭ ০২:৫৯
উদ্‌যাপন: সেনসেক্সের রেকর্ডে আনন্দে মেতেছেন বিএসই-র কর্মী ও ব্রোকাররা। মঙ্গলবার মুম্বইয়ে। ছবি: এএফপি

উদ্‌যাপন: সেনসেক্সের রেকর্ডে আনন্দে মেতেছেন বিএসই-র কর্মী ও ব্রোকাররা। মঙ্গলবার মুম্বইয়ে। ছবি: এএফপি

নতুন মাইলফলক পেরিয়ে গেল শেয়ার সূচক। তিন দিনের ছুটি কাটিয়ে মঙ্গলবার ফের লেনদেন শুরু হওয়ার পরে সেনসেক্স ৩৪ হাজারের ঘরে উঠে গড়ল নতুন রেকর্ড। একই ভাবে নিফ্‌টি ১০,৫৩১.৫০ অঙ্কে পৌঁছে ভেঙে দিল পুরনো সব নজির।

এ দিন সেনসেক্সের উঠেছে ৭০.৩১ পয়েন্ট এবং নিফ্‌টি বেড়েছে ৩৮.৫০। এর আগে গত শুক্রবারও সেনসেক্স বেড়েছিল ১৮৪.১০ পয়েন্ট।

এক দিকে ভবিষ্যতে বাজার বাড়ার আশা, অন্য দিকে আগামী বৃহস্পতিবার আগাম লেনদেনে হস্তান্তরের জন্য শেয়ার কেনার হিড়িক, এই দু’টিই সূচকের উত্থানে রসদ জুগিয়েছে, দাবি বাজার সূত্রের।

Advertisement

শেয়ার বাজারকে উপরের দিকে উঠতে রসদ জোগানোয় প্রধান ভূমিকা নিয়েছে মিউচুয়াল ফান্ড-সহ ভারতীয় আর্থিক সংস্থাগুলি। এই দিন ওই সব সংস্থা ৫৪৪.৫০ কোটি টাকার শেয়ার কিনেছে। এর ফলে গত দু’দিনেই তাদের শেয়ার বাজারে মোট লগ্নির পরিমাণ দাঁড়াল ৯১৯ কোটি টাকা। বিদেশি লগ্নিকারী সংস্থাগুলি আগের দিন ১০৭.৮৭ কোটি টাকার শেয়ার কিনলেও এ দিন তারা বিক্রি করেছে ৪৪.০৭ কোটি টাকার শেয়ার।

আগামী কাল বৃহস্পতিবার আগাম লেনদেনে সেট্‌লমেন্টের দিন। যে-সব লগ্নিকারী হাতে শেয়ার না-থাকা সত্ত্বেও তা আগাম লেনদেনে বিক্রি করে রেখেছেন, ওই দিন তাঁদের শেয়ার হস্তান্তর করতে হবে। তার জন্য প্রস্তুত হতে এ দিন ওই সব লগ্নিকারী শেয়ার কিনতে থাকেন। যা সূচকের পারাকে উপরের দিকে উঠতে সাহায্য করেছে বলেও জানাচ্ছে শেয়ার বাজারমহল।



বাজার বিশেষজ্ঞ এবং শেয়ার ব্রোকিং সংস্থা শেয়ারখানের সিইও জয়দীপ অরোরা বলেন, ‘‘ভারতের শেয়ার বাজারের পক্ষে যেটি নির্দ্বিধায় ভাল লক্ষণ বলে উল্লেখ করা যেতে পারে, সেটি হল, এখন বাজারকে আর বিদেশি লগ্নিকারী সংস্থাগুরির মুখাপেক্ষী হয়ে থাকতে হচ্ছে না। প্রধান চালিকাশক্তি হয়ে দাঁড়িয়েছে মিউচুয়াল ফান্ড-সহ ভারতীয় আর্থিক সংস্থাগুলিই।’’

বাজার সূত্রের খবর, গত বেশ কিছু দিন ধরেই ছোট ও মাঝারি মাপের মূলধনের সংস্থাগুলির শেয়ার দ্রুত বাড়ছে। সংবাদ সংস্থার খবর, মাঝারি মূলধনের সংস্থা (মিড ক্যাপ)-র শেয়ার সূচক গত ৮ দিন ধরে টানা বাড়ছে। এই দিন তা বেড়েছে ০.৭৬ শতাংশ। পিছিয়ে নেই ছোট মূলধনের (স্মল ক্যাপ) সংস্থাগুলিও। তাদের শেয়ার সূচকও গত ৭ দিন ধরে টানা বাড়ছে, এ দিন বৃদ্ধির হার ছিল ০.৬৪ শতাংশ।

বড় মূলধনের (লার্জ ক্যাপ) সংস্থাগুলির মধ্যে এ দিন সকলের আগে রয়েছে রিলায়্যান্স কমিউনিকেশন্স। আর্থিক সমস্যায় থাকা টেলি পরিষেবা সংস্থাটি ঘোষণা করেছে যে, তারা তাদের ঋণ মেটানোর জন্য পরিকল্পনা চূড়ান্ত করে ফেলেছে। সেটি রূপায়িত হলে সংস্থাটি পুরোপুরি ঋণমুক্ত হবে বলে কর্তৃপক্ষের দাবি। ওই ঘোষণার পরেই রিলায়্যান্স কমিউনিকেশন্সের শেয়ার দর এই দিন হু হু করে বাড়তে থাকে। এক সময়ে তা ৩২ শতাংশ বেড়ে যায়। বম্বে স্টক এক্সচেঞ্জে লেনদেন বন্ধের সময়ে তা ৩০.৭৮ শতাংশ বেড়ে দাঁড়ায় ২১.৩৩ টাকা।

আরও পড়ুন

Advertisement