শিল্পাঞ্চলের নানা রুটে দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থার (এসবিএসটিসি) বাস চালু হবে, ঘোষণা করেছিল সরকার। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আসানসোলের এক সভায় সেই পরিষেবার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনও করেন। তার দেড় বছর পরে শেষমেশ সেই বাসের সুবিধে পেতে চলেছেন শিল্পাঞ্চলবাসী। ১৫ অগস্ট থেকে পথে নামবে এই বাস, এসবিএসটিসি-র চেয়ারম্যান তমনোষ ঘোষের উপস্থিতিতে বুধবার এ কথা জানালেন রাজ্যের মন্ত্রী তথা স্থানীয় বিধায়ক মলয় ঘটক।

দুই শিল্পশহরের কোন কোন রুটে বাস চালানো হবে, তা ঠিক করতে বুধবার আসানসোলে একটি বৈঠকের আয়োজন করেন জেলাশাসক সৌমিত্র মোহন। প্রশাসন সূত্রের খবর, বৈঠকে ঠিক হয়েছে, মোট ৯০টি বাস রাস্তায় নামবে। তার মধ্যে বড় বাস ২০টি ও মিডিবাস (বড়বাসের থেকে ছোট, মিনিবাসের থেকে সামান্য বড়) ৭০টি। মন্ত্রী মলয়বাবু জানান, এ দিনের আলোচনায় উঠে এসেছে, আসানসোল মহকুমায় এখন প্রায় ৬০টি রুটে কোনও বাস পরিষেবা নেই। আগে এই রুটগুলিতে মিনিবাস চলত। পরে মিনিবাসের মালিকেরা বাস তুলে নিয়েছেন। ঠিক হয়েছে, ওই সব রুটে এসবিএসটিসি-র মিডিবাস চালানো হবে। মলয়বাবু বলেন, ‘‘আসানসোল মিনিবাস অ্যাসোসিয়েশন সরকারের এই সিদ্ধান্তে সহমত জানিয়েছে।’’ বৈঠকে হাজির আসানসোল মিনিবাস অ্যাসোসিয়েশনের সম্পাদক সুদীপ রায় বলেন, ‘‘আমরা প্রশাসনের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছি। যে সব রুটে মিনিবাস বন্ধ আছে সেখানে সরকারি বাস চালানো যেতে পারে।’’

বৈঠকে আলোচনায় উঠে আসে, চাহিদা থাকা সত্ত্বেও আসানসোল থেকে পার্শ্ববর্তী কয়েকটি জেলায় বাস পরিষেবার উন্নতি হচ্ছে না। সেই সব অঞ্চলেও এসবিএসটিসি-র পরিষেবা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত হয়েছে। মন্ত্রী জানান, আসানসোল থেকে তারাপীঠ, শান্তিনিকেতন, রামপুরহাট, সিউড়ি, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, মুকুটমনিপুর, বিষ্ণুপুর পর্যন্ত বড় বাস চালানোর কথা ভাবা হয়েছে। দু’টি মিডিবাস নিচ্ছে আসানসোল পুরসভাও। মেয়র জিতেন্দ্র তিওয়ারি জানান, আসানসোল ও আশপাশের এলাকায় কল্যাণেশ্বরী মন্দির, মাইথন, ঘাগড়বুড়ি মন্দির, বরাকরের সিদ্ধেশ্বরী মন্দির, বার্নপুরের নেহরু পার্কের মতো নানা পর্যটনের জায়গা রয়েছে। কিন্তু এই জায়গাগুলিতে যাওয়ার যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতির জন্যই পুরসভার তরফে বাস দু’টি নেওয়া হচ্ছে।

বছর কয়েক আগে এসবিএসটিসি-র বেশ কিছু বাস শিল্পাঞ্চলের বিভিন্ন রাষ্ট্রীয় সংস্থাকে তাদের কর্মী আনা-নেওয়ার জন্য লিজ দেওয়া হয়েছে। এ দিনের বৈঠকে প্রশ্ন ওঠে, বাসগুলি রুটে নামানোর পরিবর্তে লিজ দেওয়া হয়েছে কেন। এসবিএসটিসি-র চেয়ারম্যান অবশ্য বলেন, ‘‘এর মধ্যে অন্যায় কিছু নেই। লিজ দেওয়া বাসগুলিতে এলাকার নাগরিকেরাই তো পরিষেবা পাচ্ছেন।’’ বৈঠক শেষে জেলাশাসক জানান, আসানসোল-দুর্গাপুর শিল্পাঞ্চলে চালানোর জন্য প্রায় ৫০টি মিডিবাস অনেক দিন আগেই সরকারের তরফে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রথমে সেগুলিই রাস্তায় নামানো হবে।