• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

স্বচ্ছতা প্রমাণে তালিকা ঝুলছে ব্লক অফিসে

Cyclone Amphan
ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা ঝুলছে নোটিস বোর্ডে। গোঘাট-১ ব্লক অফিসে। — নিজস্ব িচত্র

নির্দেশ দিয়েছে নবান্ন।

সেই মতো দিন কয়েক ধরে বিচ্ছিন্ন ভাবে হুগলির কয়েকটি বিডিও অফিসে আমপান ক্ষতিপূরণ প্রাপকদের তালিকা টাঙানো হচ্ছিল। বৃহস্পতিবার জেলার প্রায় সব ব্লকেই ওই কাজ চালু হল। তবে কোথাও টাঙানোর পরেই তালিকা খুলে ফেলা হয়েছে। কোথাও তালিকার লেখা এত ছোট যে, পড়া যাচ্ছে না বলে অভিযোগ।

হুগলির ১৮টি ব্লকে ২০৭টি পঞ্চায়েত। বিভিন্ন পঞ্চায়েতে ক্ষতিপূরণে অনিয়মের অভিযোগ ওঠে। রাজ্য জুড়ে এমন অভিযোগ উঠতে থাকায় স্বচ্ছতার প্রশ্নে নবান্ন ক্ষতিপূরণ প্রাপকদের তালিকা টাঙানোর নির্দেশ দেয়। জেলাশাসক ওয়াই রত্নাকর রাও বলেন, ‘‘ক্ষতিপূরণ নিয়ে যাতে কোনও বিভ্রান্তি না ছড়ায়, সেই জন্য প্রতি ব্লক অফিসে তালিকা প্রকাশ্যে ঝোলানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’’

এ দিন বিভিন্ন বিডিও অফিসে নোটিস বোর্ডে তালিকা চোখে পড়েছে। স্থানীয় সূত্রের খবর, বুধবার জাঙ্গিপাড়া বিডিও অফিসে সর্বদল বৈঠকের পরে তালিকা টাঙানো হয়। বৃহস্পতিবার তা নোটিস বোর্ড থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এই নিয়ে গ্রামে প্রশ্ন উঠছে। ব্লক প্রশাসনের এক আধিকারিকের বক্তব্য, 

‘‘সর্বদল বৈঠকে সব দলের প্রতিনিধিরা তালিকার ছবি তুলে নিয়েছেন। কেউ যাতে নোটিস বোর্ড থেকে তালিকা ছিঁড়ে না নেয়, 

সেই জন্যই খোলা হয়েছে। প্রয়োজনে ফের লাগানো হবে।’’ আরামবাগ মহকুমার এক বিডিও বলেন, ‘‘প্রতিটি আবেদন সরেজমিনে খতিয়ে দেখে দফায় দফায় সংশোধিত তালিকা টাঙানো হবে।’’

পান্ডুয়া, পোলবা, বলাগড়, চুঁচুড়া-মগরার বিডিওরা জানিয়েছেন, কয়েক দিন আগেই তালিকা ঝোলান হয়েছে। পান্ডুয়ার বিজেপি নেতা অশোক দত্তের বক্তব্য, ‘‘পান্ডুয়া বিডিও অফিসে টাঙানো তালিকায় অক্ষর এত ছোট, পড়াই যাচ্ছে না। মানুষ বিভ্রান্ত হচ্ছেন। স্পষ্টভাবে পড়া এবং বোঝা যায়, এমন ভাবে তালিকা টাঙানো উচিত।’’ জেলা প্রশাসনের এক আধিকারিক জানান, প্রকৃত ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার যাতে সাহায্য পায়, তা দেখা হচ্ছের পাশাপাশি সাধারণ মানুষ যাতে তথ্য জানতে পারেন, সেই ব্যবস্থা হচ্ছে। পঞ্চায়েত ভবনেও তালিকা টাঙানো হবে।

তবে সব বিডিও অফিসে তালিকা টাঙানো হয়নি বলে জানা গিয়েছে। চণ্ডীতলা-১ ব্লকের গঙ্গাধরপুর পঞ্চায়েতের তৃণমূল সদস্য জ্যোতির্ময় আদক বলেন, ‘‘আমাদের পঞ্চায়েতে অনিয়মের অভিযোগের তদন্তই হল না। ব্লক অফিসে তালিকাও টাঙানো হল না।’’ চেষ্টা করেও বিডিও নরোত্তম বিশ্বাসের সঙ্গে যোগাযোগ করা যায়নি।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন