Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ নভেম্বর ২০২১ ই-পেপার

রাস্তার সংখ্যা কিন্তু কমে আসছে

অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
০৪ মে ২০১৯ ০০:২৭
সিআইএ-র প্রাক্তন প্রধান মাইকেল মোরেল। — ছবি সংগৃহীত।

সিআইএ-র প্রাক্তন প্রধান মাইকেল মোরেল। — ছবি সংগৃহীত।

টনক আর কবে নড়বে আমাদের প্রতিবেশী রাষ্ট্রের? পৃথিবীর সবচেয়ে বিপজ্জনক রাষ্ট্র পাকিস্তান— এই তকমাও জুটে গেল এ বার। কোনও সর্বমান্য আন্তর্জানিক প্রতিষ্ঠান বা কোনও বিশ্বখ্যাত সমীক্ষকের মাপকাঠি পাকিস্তানকে এই তকমা দিয়েছে, এমন নয়। কিন্তু, এই মন্তব্য যাঁর কাছ থেকে এল, সেই মাইকেল মোরেল নিজেই প্রায় প্রতিষ্ঠানের সমতুল্য। মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ-র প্রাক্তন প্রধান মোরেল যে মন্তব্য পাকিস্তান সম্পর্কে করেছেন, তার মান্যতা নিয়ে প্রশ্ন তোলার অবকাশ ইমরান খানদের সামনে অবশ্যই রয়েছে। কিন্তু, সেই প্রশ্ন না তুলে পাকিস্তানের নিয়ন্ত্রকদের উচিত নিজেদেরকে প্রশ্নের মুখে দাঁড় কারানো।

সন্ত্রাসবাদকে তথা সন্ত্রাসবাদীদের আশ্রয় ও প্রশ্রয় দিতে দিতে পাকিস্তান নিজেকে সঙ্কটের যে গভীর খাদে নিক্ষেপ করেছেন, সেখান থেকে ফিরে আসা যে কতখানি কঠিন, সে কথাই মাইকেল মোরেল এক আলোচনা সভায় সম্প্রতি ব্যাখ্যা করেছেন। মোরেল যা বলেছেন, তা নতুন কিছু নয় আমাদের কাছে। পাকিস্তান কী ভাবে নিজেকে সন্ত্রাসের আঁতুড়ঘর বানিয়ে ফেলেছে, পাকিস্তান কী ভাবে নিজের ভূখণ্ড থেকে সন্ত্রাস রফতানি করে প্রতিবেশী দেশগুলোয় সে কথা ভারতীয় কূটনীতিকরা দশকের পর দশক ধরে বার বার তুলে ধরেছেন বিভিন্ন আন্তর্জাতিক মঞ্চে। সমস্যার গভীরতা বোঝাতে সময় লাগলেও আজ প্রায় গোটা পৃথিবী বুঝে নিয়েছে, পাকিস্তান আর সন্ত্রাসবাদ একেবারে ওতপ্রোত।

কোনও মার্কিন কর্তার মুখে পাকিস্তান সম্পর্কে এই ধাঁচের মন্তব্যও কিন্তু প্রথম বারের জন্য নয়। প্রেসিডেন্ট থাকাকালীন বারাক ওবামা বলেছিলেন, পাকিস্তানের ফাটা (ফেডেরালি অ্যাডমিনিস্টার্ড ট্রাইবাল এরিয়া) অঞ্চল হল পৃথিবীর সব চেয়ে বিপজ্জনক স্থান। এ বার ওবামার জমানার গোয়েন্দা প্রধানও প্রায় একই মন্তব্য করলেন, তবে গোটা পাকিস্তানকেই বিপজ্জনক বলে দিলেন।

Advertisement

সম্পাদক অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়ের লেখা আপনার ইনবক্সে পেতে চান? সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

এই পরিস্থিতির বদল কি পাকিস্তান চায় না? বার বার আন্তর্জাতিক মহলের কাছ থেকে ধাক্কা খেতে হচ্ছে সন্ত্রাস প্রশ্নে, বার বার রক্তাক্ত হতে হচ্ছে, নানা আন্তর্জাতিক মঞ্চে মিত্র দেশগুলোও আর পাকিস্তানের পাশে দাঁড়াতে পারছে না। এই পরিস্থিতির পরিবর্তন কি পাকিস্তান চাইছে না? যদি চায়, তা হলে সর্বাগ্রে তাকে বিশ্বাসযোগ্য পদক্ষেপ করতে হবে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে। আন্তর্জাতিক মহলের আস্থা ফিরে পাওয়ার আর কোনও পথ পাকিস্তানের সামনে খোলা নেই।

আরও পড়ুন: পাকিস্তান সবচেয়ে বিপজ্জনক দেশ, বললেন প্রাক্তন মার্কিন গুপ্তচর

দিল্লি দখলের লড়াই, লোকসভা নির্বাচন ২০১৯



Tags:

আরও পড়ুন

Advertisement