Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৫ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

মুক্তির ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই ইন্টারনেটে ফাঁস রাজ চক্রবর্তীর ‘পরিণীতা’!

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১২:১০
গোটা ঘটনায় হতাশ রাজ।

গোটা ঘটনায় হতাশ রাজ।

ফাঁস হয়ে গেল রাজ চক্রবর্তী পরিচালিত বহু আলোচিত ছবি ‘পরিণীতা’। ইউটিউবে ফাঁস হয়েছিল শনিবারেই। রবিবার থেকে তা মিলছে টরেন্টেও। গত শুক্রবারই বড় পর্দায় মুক্তি পেয়েছিল বহু প্রতীক্ষিত ওই ছবি। প্রথম দিন থেকে দর্শক মহলেও বেশ ভাল সাড়া জাগিয়েছিল শুভশ্রী-ঋত্বিক অভিনীত পরিণীতা। কিন্তু শেষ রক্ষা হল না।‘পাইরেসি’-র জাল বিছানো সর্বত্র। সেই জালেই আটকা পড়ল ‘পরিণীতা’।

ইউটিউবে আপলোড করা ভার্সনটি কোনও হল থেকে মোবাইলে তোলা হয়েছে বলেই প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে। ‘নতুন নাটক’ নামক এক ইউজারের প্রোফাইল থেকে আপলোড হয়েছে ছবিটি। গোটা ঘটনায় খুবই হতাশ রাজ। রাজের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, “এটা আমারও নজরে এসেছে। আমরা চেষ্টা করছি যত দ্রুত সম্ভব টরেন্ট এবং ইউটিউব থেকে ছবিটি সরিয়ে ফেলার। সাইবার সেল বিভাগে অভিযোগ দায়ের করেছি। দেখা যাক কী হয়।”

কিন্তু মুক্তির মাত্র দু’দিন পরেই টরেন্টে চলে আসা তো নিঃসন্দেহে বাণিজ্যিক ক্ষতি! বিষয়টি মেনে নিয়ে রাজের বক্তব্য, “অবশ্যই তাই। অনেক দর্শক রয়েছেন যাঁরা হলে না গিয়ে টরেন্ট থেকে নামিয়েই ছবিটি দেখে নেবেন।” তবে এ সবের মধ্যেও আশাবাদী রাজ। বললেন,“ইউটিউবে আপলোড করা ভিডিয়োটি গুণমানের দিক দিয়ে খুবই খারাপ। যাঁরা সত্যি সিনেমা ভালবাসেন, আমার মনে হয় তাঁরা হলে গিয়েই ছবিটি দেখবেন।”

Advertisement

বাংলা সিনেমার বর্তমান বাণিজ্যিক অবস্থার হালহকিকত সম্পর্কে আশঙ্কা প্রকাশ করে রাজ জানালেন, এই হারে ছবি জাল (পাইরেসি)হলে অদূর ভবিষ্যতে বাংলা ছবির বাজার মারাত্মক ক্ষতির মুখে পড়বে। পাইরেসি রুখতে ইন্ডাস্ট্রির প্রত্যেকের সহযোগিতা যে প্রয়োজন তাও প্রকাশ পেল তাঁর কথায়। বললেন, “আমার ক্ষতি হচ্ছে বলে অন্য কেউ হাসবে সেটা করলে হবে না।”

আরও পড়ুন- অসুস্থতা কাটিয়ে বড় পর্দায় কামব্যাক সৌমিত্রের, থাকছেন দুই বাংলাদেশি নায়ক নায়িকা

ছবিটির কেন্দ্রীয় চরিত্রে রয়েছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী এবং শুভশ্রী। রাজের পরিচালনায় বিয়ের পর এটিই ছিল শুভশ্রীর প্রথম ছবি। ছবির গান, ট্রেলার মুগ্ধ করেছিল দর্শকদের। তথাকথিত মেনস্ট্রিম ছবি থেকে বেরিয়ে অন্য ধাঁচের ‘পরিণীতা’-র জন্য পরিচালক হিসেবেও প্রশংসিত হয়েছিলেন রাজ চক্রবর্তী। তারই মধ্যে এ রকম অনভিপ্রেত ঘটনায় সাময়িক ভাবে বিমর্ষ হয়ে পড়েছেন ‘পরিণীতা’ টিম।

পাইরেসির মতো ঘটনা অবশ্য ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে নতুন কিছু নয়। আইনের চোখে অপরাধ হলেও এই ঘটনা ঘটেই যাচ্ছে। টরেন্ট ভারতে নিষিদ্ধ। তা সত্ত্বেও এর ব্যবহার বেড়েই চলেছে ক্রমশ। এর আগে বলিউডে ‘উড়তা পঞ্জাব’, ‘পা’-এর মতো বেশ কিছু ছবি মুক্তির আগেই লিক হয়েছিল টরেন্টে।

আরও পড়ুন

Advertisement