• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘হেয়ারলুম’-এক নতুন ভাবনা

Hairloom
‘হেয়ারলুম’ ছবির একটি দৃশ্য।

সম্পর্কটা আসলে তৈরি হয় মানুষের সঙ্গে মানুষের। সেখানে জাতি, ধর্ম, বর্ণ আদৌ কি গুরুত্বপূর্ণ? প্রশ্নটা তুললেন অর্কময় দত্ত মজুমজার, শৌর্য দেব ও অরিত্রিক ভট্টাচার্য। সৌজন্য তাঁদের শর্ট ফিল্ম ‘হেয়ার লুম’।

আরও পড়ুন, ‘লিপস্টিক আন্ডার মাই বুরখা’র সেলেব রিভিউ

ভিন্ন পেশার তিন বন্ধু পরিচালনা করেছেন দু’মিনিট ৩০ সেকেন্ডের ছবিটি। হাওড়ার ডোমজুড় এলাকার গ্রাম পার্বতীপুর। মূলত মুসলিম অধ্যুষিত গ্রামটির অধিকাংশ মানুষ পাট দিয়ে মূর্তির চুল তৈরি করেন। এটাই তাঁদের পেশা। মূর্তির অধিকাংশ হিন্দু দেবদেবীর। মা দুর্গাও রয়েছেন। পুজোর আগে রয়েছে প্রচুর কাজের বরাত। জোরকদমে হিন্দু দেবীর চুল তৈরি করছেন মুসলিম সন্তানেরা। এ যেন কোথাও ঈশ্বরেরই ইচ্ছে!

ছবির অন্যতম পরিচালক অর্কময়ের কথায়, ‘‘একটা প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার জন্য আমরা শর্টফিল্মটা তৈরি করেছিলাম। সেখানে সাফল্য আসেনি। কিন্তু ওই এলাকার মানুষের দীর্ঘদিনের পেশা এটা। বেশ কিছু হিন্দু কারিগর রয়েছে যাঁরা কোনও না কোনও মুসলিম কারিগরের থেকে কাজ শিখেছেন। কিন্তু সমাজে হিন্দু-মুসলিম নিয়ে এখনও টেনশন রয়েছে। সেখান থেকেই এই ভাবনা।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন