×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৭ মার্চ ২০২১ ই-পেপার

বিনোদন

বাবা মায়ের বাধায় অধরা লিভ ইন, বহু বার প্রত্যাখ্যাত হয়ে স্কুলের প্রেমিকাকে বিয়ে করলেন বরুণ

নিজস্ব প্রতিবেদন
২০ ডিসেম্বর ২০২০ ১৪:০৪
সম্পর্ক নিয়ে লুকোচুরি খেলাতেই অভ্যস্ত বলিউডের তারকারা। কিন্তু বরুণ ধওয়ন বরাবরই অন্য পথে হাঁটতে ভালবাসেন। নাতাশা দালালের সঙ্গে প্রেম নিয়ে সবসময়ই তিনি স্বচ্ছ।

২০২০ সালেইই তাঁদের বিয়ের কথা ছিল। কিন্তু অতিমারির জন্য তাঁদের সাতপাকে বাঁধা পড়া পিছিয়ে যায়।
Advertisement
তবে নাতাশাই যে তাঁর হবু জীবনসঙ্গী, সে কথা স্পষ্ট করে জানিয়ে দিয়েছিলেন বরুণ।

সম্প্রতি তিনি গিয়েছিলেন করিনা কপূর খানের একটি রেডিয়ো শো-এ। সেখানে তিনি রোমন্থন করেন নাতাশার সঙ্গে প্রেমপর্বও।
Advertisement
বরুণ এবং নাতাশা ছিলেন একই স্কুলের পড়ুয়া। তবে নাতাশা ছিলেন ইয়েলো হাউসে এবং তিনি নিজে রেড হাউসে।

নাতাশার সঙ্গে বরুণের প্রথম দেখা বাস্কেটবল কোর্টে। তখন তাঁরা দু’জনেই ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়া।

দীর্ঘ দিন তাঁরা ছিলেন ভাল বন্ধু। ক্লাস ইলেভেনে পৌঁছে নাতাশাকে প্রথম বার প্রোপোজ করেন বরুণ। কিন্তু প্রত্যাখ্যাত হন।

‘স্টুডেন্ট অব দ্য ইয়ার’-এর নায়ক কিন্তু হাল ছাড়েননি। একাধিক বার প্রোপোজ করেছিলেন নাতাশাকে। তিনি বুঝেছিলেন তাঁর প্রতি নাতাশারও দুর্বলতা আছে। কিন্তু মুখ ফুটে বলতে পারছেন না।

শেষ অবধি অবশ্য নাতাশাও তাঁর মনের কথা প্রকাশ করেই ফেলেন। সাড়া দেন বরুণের প্রেমের প্রস্তাবে।

দাদা রোহিতের মেয়ে নিয়ারা বরুণের খুবই আদরের। রোহিতের নিটোল সংসার দেখেই বরুণের ইচ্ছে হয় বিয়ে করার।

২০২০ সালেই নাতাশা করবা চৌথ ব্রতও পালন করেছেন। তার পর তাঁদের বিয়ের জল্পনা আরও জোরালো হয়।

সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁদের ছবি দিলেই অনুরাগীরা উচ্ছ্বসিত হয়ে পড়েছেন আগেও।

বিয়ে নিয়ে তখনও কিছু বলেননি বরুণ নিজে বা তাঁর পরিবার। তবে করিনার শো-এ তিনি জানান, নাতাশার সঙ্গে লিভ ইনেও তাঁর আপত্তি ছিল না।

কিন্তু ছেলেক লিভ ইন করার জন্য সম্মতি দেননি বরুণের বাবা ডেভিড ধওয়ন এবং মা করুণা। তবে নাতাশাকে খুবই ভালবাসেন তাঁর বাবা মা। জানিয়েছেন বরুণ।

বিয়ে না হলেও বরুণের জীবনে নাতাশা স্ত্রীর মর্যাদাই পান। তবে নাতাশার আলাদা সত্ত্বাকেও গুরুত্ব দেন বরুণ। তাঁর জীবনে নাতাশার মতামতের বিশেষ গুরুত্ব আছে।

ডেভিড ধওয়নের ছেলে বরুণ ইন্ডাস্ট্রিতে প্রথম কাজ করেন সহকারী পরিচালক হিসেবে। ‘মাই নেম ইজ খান’ ছবিতে তিনি ছিলেন কর্ণ জোহরের সহকারী।

২ বছর পরে কর্ণের ছবি ‘স্টুডেন্ট অব দ্য ইয়ার’-এ নায়কের ভূমিকায় অভিনয় করেন বরুণ। তাঁর ফিল্মোগ্রাফিতে উল্লেখযোগ্য হল ‘হাম্পটি শর্মা কি দুলহনিয়া’, ‘বদলাপুর’, ‘বদ্রীনাথ কি দুলহনিয়া’, ‘কলঙ্ক’ এবং ‘স্ট্রিট ডান্সার থ্রি ডি’।

‘যুগ যুগ জিও’ এবং ‘কুলি নম্বর ওয়ান’-এও অভিনয় করছেন বরুণ। অন্য দিকে নাতাশা এক জন ফ্যাশন ডিজাইনার। তিনি নিউ ইয়র্ক থেকে ফ্যাশন ডিজাইনিংয়ের কোর্স করেছেন।

লেহঙ্গা, গাউন এবং বিয়ের পোশাক তৈরিতে নাতাশা বর্তমানে দেশের এক জন প্রথমসারির ডিজাইনার।

২৪ জানুয়ারি সাতপাকে বাঁধা পড়লেন তাঁরা।