জমিদারি মজলিশ। গান বাজনার আসর বসেছে। মধ্যমণি সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। চেনা মুখ ব্রাত্য বসু। অতিথিদের জন্য থালায় ভরে লুচি পরিবেশন চলছে। আর সেখানেই ‘ও গো লুচি...’ বলে ডাক ছেড়ে নাচে, গানে জমিয়ে দিলেন অপরাজিতা আঢ্য

ঘটনাটি ঠিক কী? কোথায় চলছে এ সব অদ্ভুত কাণ্ড?

কোথায় আবার? ‘মনোজদের অদ্ভুত বাড়ি’তে। সৌজন্যে পরিচালক অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়। পুজোতে আসছে তাঁর নতুন ছবি। সদ্য মুক্তি পেল সে ছবিরই গান।

এ ছবির গানঘরের দায়িত্বে রয়েছে চমক। ছবিতে গানঘরের দায়িত্ব রয়েছেন শিলাজিত। আর সদ্য মুক্তিপ্রাপ্ত গানটি রসরাজ অমৃতলাল বসু রচিত, গেয়েছেন অনন্যা ভট্টাচার্য।

এ ছবির বহু চমকের মধ্যে রয়েছে আবির চট্টোপাধ্যায়ের প্লেব্যাক। ছবিতে হরিণগড়ের হারিয়ে যাওয়া রাজপুত্র কন্দর্পনারায়ণের ভূমিকায় অভিনয় করছেন আবির। পাকেচক্রে যে কন্দর্পনারায়ণ ডাকাতদের দলে ভিড়ে যায়। ছবির একটি সিকোয়েন্সে ডাকাতিরই গান গাইবেন আবির। সঙ্গে থাকছেন ভজবাবুর ভূমিকায় রজতাভ দত্ত। বলা যেতে পারে আবির এবং রজতাভর ডুয়েট গান এটি।

আরও পড়ুন, শহরে আসছেন নতুন গোয়েন্দা, আপনি তৈরি তো?

গানটি লিখেছেন শিলাজিৎ। সুরও তাঁর। নাম ‘ডাকাত হব আস্তে আস্তে’। প্রথমে ভাবা হয়েছিল, পেশাদার গায়কদের দিয়েই গানটা রেকর্ড করা হবে। শেষে ঠিক হয়, সিকোয়েন্সের মজাটা ধরে রাখতে অভিনেতারা গাইলেই স্বাদটা ফুটবে ভাল!

কিছুদিন আগেই এই ছবিতে ব্রাত্য বসুর পরিচয় পেয়েছেন দর্শক। তিনি বরদাচরণ। শহরের নতুন গোয়েন্দা। এ ছাড়াও সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, সন্ধ্যা রায়ের মতো শিল্পীর অভিনয়ে সমৃদ্ধ এই ছবি।

(সিনেমার প্রথম ঝলক থেকে টাটকা ফিল্ম সমালোচনা - রুপোলি পর্দার বাছাই করা বাংলা খবর জানতে পড়ুন আমাদের বিনোদনের সব খবর বিভাগ।)