Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

১৮ হাজার কোটি টাকার অস্ত্র এবং সরঞ্জাম কিনছে সেনা

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ১৫ জানুয়ারি ২০২১ ১৮:০৫
শীতের লাদাখে ভারতীয় সেনা— ফাইল চিত্র।

শীতের লাদাখে ভারতীয় সেনা— ফাইল চিত্র।

সীমান্তে মোতায়েন বাহিনীর অস্ত্র, গোলাবারুদ এবং অন্যান্য সমর উপকরণের মজুত বাড়াতে তৎপর হল ভারতীয় সেনা। চিন এবং পাকিস্তান সীমান্তে সাম্প্রতিক অশান্তির প্রেক্ষিতে শুরু হওয়া এই অভিযানে আনুমানিক ১৮ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ ধার্য হয়েছে। এর মধ্যে আপৎকালীন পরিস্থিতিতে জরুরি ভিত্তিতে কেনা হবে ৫ হাজার কোটি টাকার সামরিক সরঞ্জাম।

গত বছরের ১৫ জুন পূর্ব লাদাখের গালওয়ানে চিনা ফৌজের হামলায় ২০ জন ভারতীয় সেনার মৃত্যুর পরেই সামরিক বাহিনীর তিন শাখাকে জরুরি ভিত্তিতে যুদ্ধাস্ত্র ও সমর সরঞ্জাম কেনার প্রয়োজনীয় আর্থিক ক্ষমতা দিয়েছিল প্রতিরক্ষা মন্ত্রক। সেনাপ্রধান জেনারেল মনোজ মুকুন্দ নরবণে শুক্রবার বলেন, ‘‘জরুরি ভিত্তিতে সামরিক ক্রয়ের জন্য আমরা ‘ফাস্ট ট্র্যাক স্কিম’-এ ৩৮টি চুক্তি করেছি। যার মোট আর্থিক অঙ্ক ৫,০০০ কোটি টাকা। এ ছাড়া ১৩ হাজার কোটি টাকার অন্যান্য সামরিক ক্রয় চুক্তিগুলিও রূপায়ণের পথে।’’

হাল্কা মেশিনগান, পাহাড়ি অঞ্চলে চলাচলের উপযোগী হাল্কা সামরিক যান এবং সেনাদের নিরাপত্তার জন্য ‘পার্সোনাল প্রোকেক্টিভ গিয়ারস’ কেনার বিষয়টি অগ্রাধিকারের তালিকায় রয়েছে বলেও জানিয়েছেন জেনারেল নরবণে।

Advertisement

আরও পড়ুন: সীমান্তে স্থিতাবস্থা নষ্ট করতে চক্রান্ত চিনের, জানালেন সেনাপ্রধান

শুধু অস্ত্র বা গোলাবারুদ কেনা নয়, সিয়াচেন-সহ জম্মু ও কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণরেখা (এলওসি) বা লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা (এলএসি)-য় প্রাকৃতিক ভাবে চূড়ান্ত প্রতিকূল পরিবেশে মোতায়েন সেনাদের স্বাচ্ছন্দ্যের ব্যবস্থা করার লক্ষ্যে নানা পদক্ষেপ করা হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন সেনাপ্রধান। পাশাপাশি তিনি জানান, কর্তব্যরত পরিস্থিতিতে নিহত সেনাদের পরিবার এবং আহতদের আর্থিক সহায়তার জন্য ‘অপারেশন স্নো লেপার্ড’ কর্মসূচি শুরু করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: করোনা আবহের কারণে প্রধান অতিথি বিহীন প্রজাতন্ত্র দিবস

আরও পড়ুন

Advertisement