Advertisement
২০ জুলাই ২০২৪
Bengaluru

মদ্যপান নিয়ে অশান্তি, স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে খুন করলেন স্বামী, রাত কাটালেন মৃতদেহের পাশে শুয়ে!

শনিবার রাতে স্ত্রীর সঙ্গে ঝগড়ার মধ্যেই তাঁকে খুন করেন ভেঙ্কটেশ। গলায় শাড়ির ফাঁস জড়িয়ে শ্বাসরোধ করে খুন করেন। তার পর রাতে একই বিছানায় মৃত স্ত্রী নেত্রাবতীর পাশে ঘুমান ভেঙ্কটেশ।

Bengaluru man kills wife after fight over alcohol

প্রতীকী ছবি।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৯ এপ্রিল ২০২৪ ১১:০৯
Share: Save:

রোজ রোজ মদ খেয়ে বাড়ি আসতেন স্বামী। যা নিয়ে তুমুল অশান্তি হত। মদ খেতে নিষেধ করায় রেগে যান ওই ব্যক্তি। ঝগড়ার মাঝেই স্ত্রীর গলায় শাড়ি পেঁচিয়ে খুন করার অভিযোগ উঠল তাঁর বিরুদ্ধে। শুধু তা-ই নয়, স্ত্রীকে খুন করার পর সেই মৃতদেহের সঙ্গে রাতও কাটালেন অভিযুক্ত।

ঘটনাটি ঘটেছে গত ৬ এপ্রিল বেঙ্গালুরুর রঙ্গনাথপুরে। পুলিশ সূত্রে খবর, অভিযুক্ত বছর ৩৫-এর ভেঙ্কটেশ প্রায় রোজই মদ খেয়ে বাড়ি ফিরতেন। এই কারণে স্ত্রীর সঙ্গে ঝামেলা হত। শনিবার রাতে স্ত্রীর সঙ্গে ঝগড়ার মধ্যেই তাঁকে খুন করেন ভেঙ্কটেশ। গলায় শাড়ির ফাঁস জড়িয়ে শ্বাসরোধ করে খুন করেন। তার পর রাতে একই বিছানায় মৃত স্ত্রী নেত্রাবতীর পাশে ঘুমান ভেঙ্কটেশ।

রবিবার সকালে ভেঙ্কটেশের ন’বছরের ছেলে এসে মাকে ঘুম থেকে জাগানোর জন্য ডাকাডাকি করে। কিন্তু মা সাড়া না দেওয়ায় কান্নাকাটি শুরু করে বাচ্চাটি। তার কান্না শুনে ছুটে আসেন প্রতিবেশীরা। এসে দেখেন বিছানায় পড়ে রয়েছে নেত্রাবতীর নিথর দেহ। তার পরই খবর দেওয়া হয় পুলিশকে।

পুলিশ এসে দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠায়। তদন্ত শুরু করে তারা জানতে পারে, শনিবার রাতে অশান্তি হয় ভেঙ্কটেশ এবং নেত্রাবতীর মধ্যে। যা শুনে প্রতিবেশীরা বাড়ি এসে ঝামেলা থামান। কিন্তু তার পর কী ঘটেছিল তা নিয়ে তাঁদের কোনও ধারণা নেই। প্রতিবেশীদের ধারণা গভীর রাতেই খুনের ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশ অভিযুক্ত ভেঙ্কটেশকে গ্রেফতার করে। পুলিশি জেরার মুখে খুনের কথা স্বীকার করে নেন তিনি। এক পুলিশ কর্তা জানিয়েছেন, মদ্যপানের অভ্যাস নিয়ে ঝামেলার কারণেই স্ত্রীকে খুন করেছেন অভিযুক্ত। তার পর রাতে মৃত স্ত্রীর পাশেই ঘুমোন তিনি। পুলিশ ভেঙ্কটেশের বিরুদ্ধে খুনের ধারায় মামলা রুজু করে তদন্ত করছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

bengaluru Death
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE