সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘আপনি প্রধানমন্ত্রী হলে দেশ বদলে যেত!’ সুষমাকে টুইট পাক তরুণীর

Sushma Swaraj

Advertisement

বিদেশে কেউ সমস্যায় পড়লে তৎক্ষণাৎ সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। সে যে কোনও দেশেরই নাগরিক হোন না কেন, সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে সব সময়েই বিপদে পড়া মানুষের পাশে দাঁড়ান বিদেশমন্ত্রী। ভারতে চিকিৎসা করাতে আসা পাক নাগরিকদের প্রতি তাঁর সহানুভূতি ইতিমধ্যেই নজর কেড়েছে। তাঁর এই ইতিবাচক সাড়ায় আপ্লুত সীমান্তপারের এক পাক তরুণীও। শুক্রবার নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে ওই তরুণী লিখেছেন, ‘‘সুষমা স্বরাজ যদি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হতেন, তা হলে সে দেশের চেহারাই বদলে যেত।’’

আরও পড়ুনশরিফকে প্রধানমন্ত্রী পদ থেকে বরখাস্ত করল পাক সুপ্রিম কোর্ট

সম্প্রতি চিকিৎসার জন্য এক পাক নাগরিককে ভারতে আসার মেডিক্যাল ভিসা দেওয়ার ক্ষেত্রে টুইটারে বিদেশমন্ত্রীকে আবেদন জানিয়েছিলেন হিজাব আসিফ নামে এক পাক তরুণী। এই আবেদনে সাড়া দিয়ে খুব দ্রুত পদক্ষেপ করেন সুষমা। ইসলামাবাদে ভারতীয় হাইকমিশনের সঙ্গে কথা বলে পাকিস্তানের ওই বাসিন্দাকে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব মেডিক্যাল ভিসা দেওয়ার নির্দেশ দেন তিনি। বিদেশমন্ত্রীর নির্দেশ পেয়ে ওই পাক নাগরিকের সঙ্গে যোগাযোগও করে ইসলামাবাদে ভারতীয় হাইকমিশন। এত দ্রুত সাড়া পেয়ে অভিভূত ওই তরুণী অনেক ভালবাসা ও কৃতজ্ঞতা জানিয়ে টুইটারে লেখেন, ‘‘সুষমা স্বরাজ, আপনাকে আমি কী বলে ডাকব? সুপারওম্যান। ভগবান। আপনার সহৃদয়তাকে ব্যাখ্যা করার কোনও ভাষাই নেই। আপনাকে অনেক ভালোবাসা দিলাম।’’

পাক তরুণী হিজাব আসিফের টুইট সুষমা স্বরাজকে

 

সরকারি রিপোর্ট অনুযায়ী, প্রতি বছর ভারতের বিভিন্ন হাসপাতালে প্রায় ৫০০ জন পাক নাগরিকের চিকিৎসা হয়। কিন্তু, পাক সামরিক আদালতে ভারতীয় নৌসেনার প্রাক্তন আধিকারিক কুলভূষণ যাদবকে মৃত্যুদণ্ডের সাজা শোনানোর পর থেকে দু’দেশের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের অনেক অবনতি হয়েছে। পাক নাগরিকদের ভারতে আসার মেডিক্যাল ভিসা দেওয়ার ব্যাপারেও রাশ টেনেছে সে দেশের বিদেশমন্ত্রক। পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের বিদেশনীতি সংক্রান্ত পরামর্শদাতা সরতাজ আজিজের সুপারিশ ছাড়া সে দেশের কোনও নাগরিককেই ভিসা দেওয়া হয় না। যদিও ভিসা ইস্যুতে আজিজকে আরও সহানুভূতিশীল হতে পরামর্শ দিয়েছেন সুষমা।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন