মাছগুলো কি টাটকা, চোখ দেখে তো মনে হচ্ছে, এখনও বেঁচে রয়েছে। ব্যস, সঙ্গে সঙ্গেই বাজারের থলিতে ভরে নিলেন মাছটা। কিন্তু বাড়ি গিয়েই ভাঙল ভুল। মাছগুলো তো মোটেও ভাল নয়। কিন্তু চোখ দেখে তো মনে হয়নি।

এরপরই সামনে এল আসল ঘটনা। নকল চোখ লাগিয়ে মাছগুলিকে টাটকা প্রমাণ করার চেষ্টা করা হচ্ছিল। ঘটনাটি কুয়েতের একটি দোকানের। স্থানীয় একটি দৈনিকে খবরটি প্রকাশিত হতেই ছড়ায় চাঞ্চল্য। বন্ধ করে দেওয়া হয় সেই দোকান।

টুইটারে এক ব্যক্তি একটি টাটকা মাছ ও একটি পাথরের চোখ বসানো মাছের ছবি পাশাপাশি রেখে পোস্ট করেন। ভাল করে না দেখলে আলাদা করা খুবই মুশকিল। পোস্ট হতেই তা বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়। টুইটারে এক ধাক্কায় ছয় হাজার লাইক পড়ে এই পোস্টে।

আরও খবর: এই ছবি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া তোলপাড়, শেষটা জানলে আপনি চমকে যাবেন!

কেউ লেখেন, ‘এই মাছের দোকানদারকে শাস্তি পাওয়া উচিত।’ কেউ বলেন, ‘এতে বোঝাই মুশকিল। যদি পেটে এই নকল চোখ চলে যেত!’

এক জন টুইটারেত্তি লেখেন, ‘এই মাছের দোকানের মালিক নিশ্চয়ই এক জন সৃষ্টিশীল মানুষ। নইলে এটা কী ভাবে মাথায় আসবে।’

 

অনেকে আবার মাছ নিয়ে নানারকম মজার জোকসও পোস্ট করেন। তবে সব মিলে পচা মাছকে টাটকা বলে চালানোর জন্য নকল চোখ বসিয়ে বেচার চেষ্টা দেখে চমকে গিয়েছেন অনেকেই।

(সারা বিশ্বের সেরা সব খবর বাংলায় পড়তে চোখ রাখতে পড়ুন আমাদের আন্তর্জাতিক বিভাগে।)