• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

জেলে মৃত্যু ১৯৯৩-এর মুম্বই হামলায় দোষী ইউসুফ মেমনের

Yusuf Memon
—ফাইল চিত্র।

জেলবন্দি অবস্থায় মৃত্যু হল ইউসুফ মেমনের। দাউদ-সঙ্গী টাইগার মেমনের ভাই তিনি। ১৯৯৩ সালে মুম্বই ধারাবাহিক বিস্ফোরণ মামলায় দোষী সাব্যস্ত হয়েছিলেন ইউসুফ। শুক্রবার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তাঁর মৃত্যু হয় বলে জানা গিয়েছে।  

মুম্বইয়ের নাসিক রোড সেন্ট্রাল জেলে বন্দি ছিলেন ইউসুফ মেমন। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এ দিন সকালে দাঁত মাজার সময় আচমকাই মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি। তড়িঘড়ি নাসিক সিভিল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাঁকে। চিকিৎসা চলাকালীন সেখানেই মৃত্যু হয় তাঁর।   

হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েই ইউসুফ মেমনের মৃত্যু হয়েছে বলে পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে। তবে ধুলে মেডিক্যাল কলেজে তাঁর দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। সেই রিপোর্ট হাতে এলেই নিশ্চিত ভাবে কিছু জানা যাবে।

আরও পড়ুন: লাদাখে সেনা কমাচ্ছে চিন, কিন্তু সরাচ্ছে না ছাউনি, বলছে দিল্লি​

মাফিয়া ডন দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে ষড়যন্ত্র কষে ১৯৯৩ সালের ১২ মার্চ মুম্বইয়ে ১২টি ধারাবাহিক বিস্ফোরণ ঘটান টাইগার মেমন। তাতে কমপক্ষে ২৫০ জন প্রাণ হারান। হামলার ষড়যন্ত্রে সরাসরি লিপ্ত না হলেও, মুম্বইয়ের আল-হুসেইনি বিল্ডিংয়ে নিজের একটি ফ্ল্যাট এবং গ্যারেজ নাশকতামূলক কাজকর্মের জন্য ইউসুফ ছেড়ে দিয়েছিলেন বলে জানা যায়।

আরও পড়ুন: কখন, কী ভাবে হটবে চিন! মোদীকে প্রশ্ন সনিয়ার​

সেই মামলায় ২০১৮-র ২৬ জুলাই ইউসুফ মেমন ও তাঁর ভাই ইসাকে যাবজ্জীবনের সাজা শোনায় বিশেষ টাডা আদালত। এই একই মামলায় টাইগার ও ইউসুফের আর এক ভাই ইয়াকুব মেমনকে মৃত্যুদণ্ড শুনিয়েছিল আদালত। ২০১৫-য় তাঁর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হয়।  

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন