• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘বিশ্ববিদ্যালয় অশান্তি সৃষ্টির কারখানা নয়’, কটাক্ষ বিচারপতি বোবদের

CJI
সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি শরদ অরবিন্দ বোবদে। - ফাইল ছবি।

Advertisement

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) নিয়ে বিক্ষোভ, আন্দোলনের প্রেক্ষিতে বিশ্ববিদ্যালয়গুলির ভূমিকা নিয়ে এ বার কটাক্ষ করলেন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি শরদ অরবিন্দ বোবদে। বললেন, ‘‘বিশ্ববিদ্যালয়গুলি ইট আর মর্টার বানানোর জায়গা নয়। সেগুলি অশান্তি সৃষ্টির কারখানা নয়।’’

মহারাষ্ট্রের নাগপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন অনুষ্ঠানে শনিবার আমন্ত্রিত বক্তা হিসাবে ভাষণ দিচ্ছিলেন দেশের প্রধান বিচারপতি। সেখানে বিচারপতি বোবদে বলেন, ‘‘বিশ্ববিদ্যালয়গুলি শুধুই ইট আর মর্টার বানানোর জায়গা নয়। বিশ্ববিদ্যালয়গুলি নিছকই কলকারখানার প্রোডাকশান ইউনিটের মতো চলবে, এটাও প্রত্যাশিত নয়। সেগুলি অশান্তি সৃষ্টির কারখানা নয়।’’

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ)-এর বিরোধিতায় ইতিমধ্যেই সরব হয়েছেন দিল্লির জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয় (জেএনইউ), বেঙ্গালুরুর ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ সায়েন্স (আইআইএসসি)-সহ দেশের বেশ কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা। তাঁরা পথে নেমে বিক্ষোভে শামিল হয়েছেন। মিছিলে হেঁটেছেন, মিটিং-এ হাজির হয়েছেন। তাঁদের উপর পুলিশ ও বিজেপির ছাত্র সংগঠনের অত্যাচারেরও অভিযোগ উঠেছে।

বিচারপতি বোবদে এ দিন এও বলেন, ‘‘বিশ্ববিদ্যালয়গুলির কাছ থেকে সমাজের কিছু প্রত্যাশা থাকে। কিছু পাওয়ার থাকে। সেটাও বিশ্ববিদ্যালয়গুলির মাথায় রাখা উচিত।’’

এই আন্দোলনে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের জড়িয়ে পড়াটা উচিত হয়েছে কি না, তা নিয়ে সরকারি মহলে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠেছে। বিশ্ববিদ্যালয়গুলির ভূমিকার তীব্র সমালোচনাও হয়েছে।

তার প্রেক্ষিতে পূর্বতন সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়তও দিনকয়েক আগে নামোল্লেখ না করে বিশ্ববিদ্যালয়গুলির ভূমিকা নিয়ে কটাক্ষ করেছিলেন। বলেছিলেন, ‘‘যে কোনও কিছুর সামনে থাকলেই নেতা হয়ে ওঠা যায় না। সঠিক নেতৃত্বের জন্য কিছু গুণের দরকার হয়।’’

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন