হাইলাকান্দির শিক্ষা বিভাগে অব্যবস্থার অভিযোগের জেরে প্রতিবাদে সরব হলেন বিধায়ক আনোয়ার হুসেন লস্কর।

হাইলাকান্দিতে জুলাই মাসের শিক্ষকদের বেতন এখনও পর্যন্ত হয়নি। এ নিয়ে বিধায়কের কাছে অভিযোগ জানিয়েছিলেন শিক্ষকদের একাংশ। আজ বিধায়ক হাইলাকান্দির শিক্ষা দফতরে গিয়ে এ বিষয়ে খোঁজখবর করেন। তাঁকে জানানো হয়, কয়েক দিন আগে শিক্ষদের অনুপাতিকরণের জন্য কয়েক জনের বিদ্যালয় অদলবদল করা হয়েছিল। তার জেরেই বেতন দিতে সমস্যা হয়েছে। বিধায়কের কাছে অভিযোগ করা হয়, হাইলাকান্দি রাঙ্গাউটি গার্লস এম ই স্কুলের বিজ্ঞান শিক্ষক আব্দুল সালাম বড়ভুঁইঞা শিক্ষকদের স্কুল অদলবদলের ‘ব্যবসা’ চালাচ্ছেন। বিধায়ক এ দিন ওই স্কুলে গিয়ে ওই শিক্ষকের বিষয়ে খোঁজ নেন। প্রধান শিক্ষক আব্দুল মতিন বড়ভুঁইঞা তাঁকে জানান, গত ১৫ দিন ধরে বিজ্ঞান শিক্ষক স্কুলে আসছেন না। তার সঠিক কারণ প্রধান শিক্ষক জানাতে পারেননি। তবে তিনি বিধায়ককে জানান, জেলা প্রাথমিক শিক্ষাধিকারিক কে কে বড়ুয়ার কাছ থেকে খবর মিলেছে, বিজ্ঞান শিক্ষক অনুপাতিকরণের কাজে গুয়াহাটি রয়েছেন। বিধায়ক লস্কর জেলা প্রাথমিক শিক্ষাধিকারিকের কাছে এই বিষয়টি জানতে চান। শিক্ষাধিকারিক জানান, রাজ্যের শিক্ষা বিভাগের সঞ্চালকের নির্দেশে ওই বিজ্ঞান শিক্ষক গুয়াহাটিতে বসে শিক্ষক অনুপাতিকরণের কাজ করছেন। তবে এ নিয়ে কোনও লিখিত বিভাগীয় নির্দেশ তিনি বিধায়ককে দেখাতে পারেননি। শিক্ষা বিভাগের কাজকর্ম নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেন। বিধায়ক। তিনি রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রীর কাছে অভিযোগ জানানোর কথা বলেন। হাইলাকান্দির জেলা প্রাথমিক শিক্ষাধিকারিক জানান, অভিযোগ খতিয়ে দেখা হবে।