• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

করোনাকে উপেক্ষা করা ট্রয়ের ঘোড়াকে ডেকে আনার সমান, তেলঙ্গানা সরকারকে ভর্ৎসনা আদালতের

covid-19 test
তেলঙ্গানায় যথেষ্ট কম কোভিড টেস্ট করানো হয়েছে বলে অভিযোগ। ছবি: পিটিআই।

তেলঙ্গানায় কম সংখ্যক কোভিড-টেস্ট করানোয় আদালতের তোপের মুখে কেসিআর সরকার। রাজ্য সরকারকে তীব্র ভর্ৎসনা করে তেলঙ্গানা হাইকোর্টের মন্তব্য, ‘কম পরীক্ষা করে করোনাকে উপেক্ষা করাটা ট্রয়ের ঘোড়াকে আমন্ত্রণ জানানোরই সমান।’’ মঙ্গলবার একটি জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে আদালতের আরও পর্যবেক্ষণ, ‘‘কম সংখ্যক কোভিড-টেস্ট করানো নিয়ে আর্থিক সীমাবদ্ধতাকে ঢাল হিসাবে ব্যবহার করতে পারে না সরকার।’’

এ দিন একটি জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে করোনা-পরিস্থিতি নিয়ে তেলঙ্গানা সরকারের সমালোচনা করে রাজ্যের মুখ্য বিচারপতি রাঘবেন্দ্র সিংহ চৌহান এবং বিচারপতি বি বিজয়সেন রেড্ডির বেঞ্চ। ওই বেঞ্চের প্রশ্ন, কম সংখ্যক কোভিড টেস্ট করালে কী ভাবে জানা যাবে তেলঙ্গানায় আসলে কত জন সংক্রমিত হয়েছেন? সেই সঙ্গে কেসিআর সরকারকে লক্ষ্য করে আদালতের মন্তব্য, ‘‘সুশাসনের জন্য মানুষের জীবনের মূল্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।’’

তেলঙ্গানায় এখনও পর্যন্ত ১ হাজার ৯৯১ জন করোনায় সংক্রমিত বলে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক। বুধবার প্রকাশিত হিসাবে অনুযায়ী সে রাজ্য করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৫৭ জনের। গোটা দেশে যেখানে আক্রান্তের সংখ্যা দেড় লক্ষ ছাড়িয়ে গিয়েছে, সেখানে পরিসংখ্যানের নিরিখে তেলঙ্গানায় করোনা পরিস্থিতি আপাতদৃষ্টিতে উদ্বেগজনক নয়। তবে অনেকের মতে, বাস্তবে পরিস্থিতিটা একেবারেই অন্য। বিরোধী তথা নাগরিক সংগঠনগুলির দাবি, রাজ্যে পর্যাপ্ত সংখ্যক কোভিড টেস্ট করানো হচ্ছে না। সেই কারণেই প্রকৃত ছবিটা ধরা পড়ছে না। এ নিয়ে রাজ্য সরকারের সমালোচনা করে তেলঙ্গানা জনসমিতির হয়ে অধ্যাপক পি এল বিশ্বেশ্বর রাও একটি জনস্বার্থ মামলা রুজু করেন। পাশাপাশি, এ নিয়ে আরও চারটি জনস্বার্থ মামলা রুজু করা হয়েছে তেলঙ্গানা হাইকোর্টে। আবেদনকারীদের সকলেরই দাবি, তেলঙ্গানায় বহু এলাকা রেড জোন বলে ঘোষণা করলেও পর্যাপ্ত সংখ্যক কোভিড-টেস্ট করানো হচ্ছে না। কে চন্দ্রশেখর রাও (কেসিআর) সরকার বিঁধে তাঁদের অভিযোগ, শুধুমাত্র হায়দরাবাদেই ৩২টি কনটেনমেন্ট এলাকা থাকা সত্ত্বেও সেখানেও যথেষ্ট কম টেস্ট করানো হয়েছে। যদিও সরকার পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট জেনারেল বি এস প্রসাদের দাবি, কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক এবং আইসিএমআর-এর নিয়ম অনুযায়ী করোনা পরিস্থিতির মোকাবিলা করছে রাজ্য সরকার।

আরও পড়ুন: দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দেড় লাখ ছাড়াল, মৃত ৪৩৩৭

আরও পড়ুন: চড়া সুর চিনের, লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় প্রস্তুত ভারতও​

করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় রাজ্য সরকারের ভূমিকায় একেবারেই সন্তুষ্ট নয় হাইকোর্ট। চলতি মাসের গোড়া থেকে ২৫ মে পর্যন্ত নির্মল এবং সূর্যপেট জেলা-সহ তেলঙ্গানায় কত জনের কোভিড টেস্ট করানো হয়েছে, সরকারের কাছ থেকে সে পরিসংখ্যান তলব করেছে আদালত। রাজ্যে মৃতদের দেহে কোভিড টেস্ট করানোয় আগ্রহী নয় তেলঙ্গানা সরকার। গত মাসে রাজ্যের জনস্বাস্থ্য দফতর এ নিয়ে নির্দেশ জারি করেছিল। এ দিন ওই নির্দেশ নিয়ে তেলঙ্গানা সরকারের সমালোচনা করেছে হাইকোর্ট। রাজ্য সরকারের নির্দেশ বাতিল করে হাইকোর্ট জানিয়েছে, পরিবারের কাছে দেহ হস্তান্তর করার আগে বাধ্যতামূলক ভাবে কোভিড টেস্ট করাতে হবে। সেই সঙ্গে লকডাউনের সময় রাজ্য কত জন পরিযায়ী শ্রমিক এসেছে এবং তাঁদের কত জনের কোভিড টেস্ট করানো হয়েছে, তার পরিসংখ্যানও তেলঙ্গানা সরকারের কাছ থেকে তলব করছে হাইকোর্ট।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন