১১ এপ্রিল থেকে ৭ দফায় ভোট দেশ জুড়ে, দেখুন কবে কোথায়
ভোটগ্রহণ শুরু হবে ১১ এপ্রিল থেকে। শেষ দফার ভোটগ্রহণ ১৯মে। সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনের চূড়ান্ত ফলঘোষণা ২৩ মে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।
Election Commission

বাজল ভোটের ঘণ্টা। সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা। ছবি: পিটিআই।

১৭ তম লোকসভা নির্বাচনের নির্ঘণ্ট ঘোষণা করল নির্বাচন কমিশন। আজ নয়াদিল্লির বিজ্ঞান ভবনে সাংবাদিক সম্মেলন করে লোকসভা নির্বাচনের দিনক্ষণ ঘোষণা করলেন মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা। সারা দেশে মোট সাতটি  দফায় ভোট হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। ভোটগ্রহণ শুরু হবে ১১ এপ্রিল থেকে। শেষ দফার ভোটগ্রহণ ১৯মে। সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনের চূড়ান্ত ফলঘোষণা ২৩ মে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

নির্বাচনী নির্ঘণ্ট ঘোষণা করার সঙ্গেই সারা দেশে চালু হয়ে যাচ্ছে নির্বাচনী আচরণ বিধি। অর্থাৎ, নতুন কোনও প্রকল্পের ঘোষণা করতে পারবে না কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকারগুলি। গুগল, ফেসবুক, টুইটার সহ সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রচারের নথি জমা দিতে হবে নির্বাচন কমিশনে। বিভিন্ন কেন্দ্রে ভোটের ৪৮ ঘণ্টা আগে নিষিদ্ধ হয়ে যাবে মাইক, লাউড স্পিকারের ব্যবহার। 

এই নির্বাচনে সারা দেশে মোট ভোটারের সংখ্যা প্রায় ৯০ কোটি। এর মধ্যে নতুন ভোটারের সংখ্যা প্রায় দেড় কোটি বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। ১৭.৪ লক্ষ ভিভিপ্যাট ব্যবহার করা হবে লোকসভা নির্বাচনে। সমস্ত ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম)-এই থাকবে প্রার্থীদের ছবি। সারা দেশে ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের সংখ্যা প্রায় দশ লক্ষ বলেই জানিয়েছেন মুখ্য নির্বাচনী কমিশনার সুনীল অরোরা।

ভারতের প্রথম সাধারণ নির্বাচন সম্পর্কে এই তথ্যগুলি জানেন কি?

যে  সাতটি দফায় ভোট হবে তার মধ্যে প্রথম দফার ভোট ১১ এপ্রিল, দ্বিতীয় দফার ভোট ১৮ এপ্রিল, তৃতীয় দফার ভোট ২৩ এপ্রিল, চতুর্থ দফার ভোট ২৯ এপ্রিল, পঞ্চম দফার ভোট ৬ মে, ষষ্ঠ দফার ভোট ১২ মে এবং সপ্তম দফার ভোটগ্রহণ হবে ১৯ মে। 

পশ্চিমবঙ্গের ৪২টি লোকসভা আসনে ভোট হবে সাত দফায়। প্রথম দফায় ভোট দু’টি আসনে, দ্বিতীয় দফায় ভোট তিনটি আসনে, তৃতীয় দফায় ভোট পাঁচটি আসনে, চতুর্থ দফায় ভোট আটটি আসনে, পঞ্চম দফায় ভোট সাতটি আসনে, ষষ্ঠ দফায় ভোট আটটি আসনে এবং সপ্তম দফায় ভোট হবে ন’টি আসনে।

এক দফায় ভোট হবে অন্ধ্রপ্রদেশ, অরুণাচল প্রদেশ, গোয়া, গুজরাত, হরিয়ানা, হিমাচল প্রদেশ, কেরল,  মেঘালয়,  মিজোরাম, নাগাল্যান্ড, পঞ্জাব, সিকিম, তেলঙ্গানা, তামিলনাড়ু, উত্তরাখণ্ড, আন্দামান-নিকোবর, দাদরা-নগর হাভেলি, দমন-দিউ, লক্ষদ্বীপ, দিল্লি, পুদুচেরি এবং চণ্ডীগড়ে। 

আরও পড়ুন: পশ্চিমবঙ্গে ৭ দফায় নির্বাচন, দেখে নিন কবে-কোথায় ভোট

দু’টি দফায় ভোট নেওয়া হবে কর্নাটক, মনিপুর, রাজস্থান এবং ত্রিপুরায়।তিনটি দফায় ভোট নেওয়া হবে অসম, চণ্ডীগড়ে। চারটি দফায় ভোট নেওয়া হবে ঝাড়খণ্ড, মধ্যপ্রদেশ, ওড়িশা এবং মহারাষ্ট্রে।

পাঁচ দফায় ভোট হবে জম্মু ও কাশ্মীরে। মোট সাতটি দফায় ভোট নেওয়া হবে বিহার, উত্তরপ্রদেশ এবং পশ্চিমবঙ্গে। 

প্রথম দফায় ভোট হবে ২০টি রাজ্যের ৯১ আসনে। দ্বিতীয় দফায় ভোট হবে ১৩ রাজ্যের ৯৭ আসনে। তৃতীয় দফায় ভোট হবে ১৪ রাজ্যের ১১৫ আসনে। চতুর্থ দফায় ভোট হবে ৯ রাজ্যের ৭১ আসনে। পঞ্চম দফায় ভোট হবে ৭ রাজ্যের ৫১ আসনে। ষষ্ঠ দফায় ভোট হবে ৭ রাজ্যের ৫৯ আসনে এবং সপ্তম দফায় ভোট হবে ৮ রাজ্যের ৫৯ আসনে। 

সারা দেশে লোকসভা নির্বাচনের সঙ্গে বিধানসভা নির্বাচন হবে অন্ধ্রপ্রদেশ, ওড়িশা, সিকিম এবং অরুণাচল প্রদেশ— এই চারটি রাজ্যেও। যদিও জম্মু ও কাশ্মীরে বিধানসভা নির্বাচনের কথা জানায়নি নির্বাচন কমিশন। 

গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ। 

২০১৪ লোকসভা নির্বাচনের ফল

  • প্রাইম মিনিস্টার’স অফিস এখন পাবলিসিটি মিনিস্টার’স অফিসে পরিণত হয়েছে।

  • author
    রাহুল গাঁধী কংগ্রেস সভাপতি

আপনার মত