• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

উদ্বেগ নিয়েই প্রস্তুতি ইস্টবেঙ্গল, কাশ্মীরের

Alejandro
বোরখার চোট নিয়ে চিন্তিত আলেসান্দ্রো মেনেন্দেস গার্সিয়া।

Advertisement

অবশেষে ইস্টবেঙ্গল অনুশীলনে যোগ দিলেন বোরখা গোমেস পেরেস। কিন্তু লাল-হলুদ জার্সি গায়ে কবে তিনি আই লিগের ম্যাচে খেলবেন তা নিয়ে ধোঁয়াশা অব্যাহত। 

কলকাতা প্রিমিয়ার লিগে মহমেডানের বিরুদ্ধে ম্যাচে হাঁটুতে চোট পেয়ে স্পেনে ফিরে গিয়েছিলেন বোরখা। অস্ত্রোপচারের পরে সেখানেই রিহ্যাব করছিলেন। চব্বিশ ঘণ্টা আগে তাঁর কলকাতায় ফেরার খবরে ইস্টবেঙ্গল সমর্থকদের মধ্যে উন্মাদনা ছড়িয়ে পড়েছিল। কিন্তু সোমবার সকালে যুবভারতী সংলগ্ন মাঠে বোরখাকে দেখা গেল সাইড লাইনের বাইরে শুধুই ফিটনেস ট্রেনিং করতে।  বিকেলে নিউ টাউনের এক হোটেলে সাংবাদিক বৈঠকে ইস্টবেঙ্গল কোচ আলেসান্দ্রো মেনেন্দেস গার্সিয়া দাবি করলেন, ‘‘সপ্তাহখানেকের মধ্যেই বোরখা খেলার মতো জায়গায় চলে আসবে।’’

বোরখা যখন মাঠের বাইরে ফিজিক্যাল ট্রেনারের কাছে ট্রেনিং করছিলেন, আলেসান্দ্রো তখন ব্যস্ত ছিলেন বাকি ফুটবলারদের নিয়ে রিয়াল কাশ্মীরকে হারানোর মহড়ায়। প্রথমে অর্ধেক মাঠে ম্যাচ অনুশীলন করালেন। তার পরে পুরো মাঠ ব্যবহার করলেন। রিয়াল কাশ্মীরের বিরুদ্ধে বোরখা ছাড়া বাকি পাঁচ বিদেশিকেই যে তিনি খেলাতে চান, এ দিনের অনুশীলনেই তার ইঙ্গিত দিয়ে রাখলেন। বলছিলেন, ‘‘রিয়াল কাশ্মীর শক্তিশালী দল। গত বছর শেষ ম্যাচ পর্যন্ত খেতাবের দাবিদার ছিল। ওদের রক্ষণ দারুণ শক্তিশালী।’’ এর পরেই তিনি যোগ করলেন, ‘‘তবে আমরাও তৈরি। আই লিগের প্রস্তুতিও ঠিক মতো হয়েছে।’’

একা বোরখা নন। শতবর্ষের আবহে লাল-হলুদ সমর্থকদের উদ্বেগ বাড়ছে মার্কোস দে লা এসপারা খিমেনেসকে নিয়েও। এনরিকে এসকুয়েদার পরিবর্তে স্পেনীয় স্ট্রাইকারকে নিয়েছেন আলেসান্দ্রো। কিন্তু এখনও পর্যন্ত তিনি নিজেকে প্রমাণ করতে পারেননি। ইতিমধ্যেই মার্কোসকে ছেঁটে ফেলার দাবি তুলেছেন তাঁরা। ইস্টবেঙ্গল কোচ অবশ্য স্পেনীয় স্ট্রাইকারের উপরেই আস্থা রাখছেন। তাঁর কথায়, ‘‘বুধবারই নিজেকে প্রমাণ করবে মার্কোস।’’ তিনি আরও বললেন, ‘‘সমর্থকদের জন্যই আই লিগ জিততে চাই।’’

রিয়াল কাশ্মীর শিবিরে দুশ্চিন্তার কারণ, ভূস্বর্গের সাম্প্রতিক পরিস্থিতি। এখনও মোবাইল, ইন্টারনেট পরিষেবা স্বাভাবিক নয়। সাংবাদিক বৈঠকে মিডফিল্ডার খালিদ কায়ুম বললেন, ‘‘মনঃসংযোগ করতে সমস্যা তো হবেই।’’ এর পরেই তিনি দাবি করলেন, ‘‘আমরা পেশাদার ফুটবলার। সব রকম পরিস্থিতির সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার জন্য তৈরি থাকতে হয় আমাদের।’’ চোটের কারণে দলের সঙ্গে অবশ্য আসেননি পাকিস্তান বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ নাগরিক কাশিফ সিদ্দিকি। 

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন
বাছাই খবর

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন