• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘নো’ বলে বেঁচে যাওয়া সেই মেন্ডিসই ভোগালো বাংলাদেশেকে

kushal

গলে বাংলাদেশ দলের গলার কাঁটা হয়ে ঝুলে থাকলেন কুশল মেন্ডিস। অথচ প্রথম বলেই আউট হয়ে যেতে পারতেন এই শ্রীলঙ্কান ব্যাটসম্যান। শুভাশিস রায়ের বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়েছিলেন মেন্ডিস। ‘নো’ বলে বেঁচে যাওয়া সেই মেন্ডিসই ভোগালো বাংলাদেশেকে। তাঁর সেঞ্চুরিতে গল টেস্টের প্রথম দিনটাও হয়ে থাকল শ্রীলঙ্কার। স্বাগতিকরা দিন শেষ করেছে ৪ উইকেটে ৩২১ রানে।


মঙ্গলবার গল আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন লঙ্কান দলপতি রঙ্গনা হেরাথ।

দিনের প্রথম সেশনে নিজের প্রথম ওভারের চতুর্থ বলে উইকেট তুলে নেন শুভাশিস রায়। তিনি সরাসরি বোল্ড করেন বাংলাদেশের জন্য বিপদজনক উপল থারাঙ্গাকে । দলীয় ১৫ ও ব্যক্তিগত ৪ রানে সাজঘরে ফেরেন তিনি। পরের বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ তুলেছিলেন কুশল মেন্ডিস। কিন্তু নো বলের কারণে উইকেট বঞ্চিত হন শুভাশিস। এর পর মেহেদি হাসান মিরাজের ঘূর্ণিতে ৩০ রান করে বিদায় নিলেন দিমুথ করুনারাত্নে।

আরও পড়ুন
কোহালির ব্যঙ্গবাণ

দিনেশ চান্দিমালকে ফিরিয়ে উইকেট উদযাপনে মাতেন দীর্ঘ দিন পর টেস্টে ফেরা মোস্তাফিজুর রহমান। ৯২ রানে তৃতীয় উইকেট হারায় স্বাগতিকরা। ৪০তম ওভারে মেহেদী হাসান মিরাজের হাতে ধরা পড়েন প্রস্তুতি ম্যাচে ভোগানো চান্দিমাল (৫৪ বলে ৫)।

লঙ্কানদের চতুর্থ ব্যাটসম্যান হয়ে ফেরেন গুনারাত্নে। ব্যক্তিগত ৮৫ রানে তাসকিনের বলে বোল্ড হন তিনি। দলীয় ২৮৮ রানের মাথায় চতুর্থ উইকেটের দেখা পায় বাংলাদেশ। এরপর আর কোনো উইকেট হারায়নি দলটি। ৮৮ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ৩২১ রানে দিন পার করে লঙ্কানরা। ১৬৬ রানে অপরাজিত থাকেন মেন্ডিস। তার ২৪২ বলের ইনিংসটি ছিল ১৮টি চার আর দু’টি ছক্কায়। ১৪ রানে অপরাজিত রয়েছেন নিরোশান ডিকওয়েলা।

টাইগারদের হয়ে একটি করে উইকেট নেন শুভাশিস, মেহেদি, তাসকিন আর মোস্তাফিজ।

প্রথম এই টেস্টে তিনটি পরিবর্তন এনেছে বাংলাদেশ। ভারত টেস্ট থেকে ওই তিনটি পরিবর্তনে বাদ পড়েছেন সাব্বির, রাব্বি ও তাইজুল। সুযোগ পেয়েছেন মুস্তাফিজুর, লিটন ও শুভাশিস। যেখানে বাংলাদেশ তিন পেসার নিয়ে খেলছে, সেখানে শ্রীলঙ্কা দুই পেসার ও তিন বিশেষজ্ঞ স্পিনার নিয়ে খেলছে। পিচে পরে টার্ন পাওয়ার সম্ভাবনাতেই এমনটি ভেবেছে স্বাগতিকরা।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন