Advertisement
Back to
Presents
Associate Partners
Bengaluru

ভোটের লাইনে দাঁড়িয়ে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত মহিলা, প্রাণ বাঁচালেন ভোট দিতে আসা চিকিৎসক

স্থানীয় সূত্রে খবর, বেঙ্গালুরুর বোম্মাসান্দ্রা কেন্দ্রে ভোট দিতে গিয়েছিলেন এক মহিলা। ভোট দেওয়ার জন্য সকাল ৭টা থেকেই ভোটারদের বিশাল লাইন পড়ে যায়।

ভোট দিতে গিয়ে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত মহিলা। ছবি: এক্স।

ভোট দিতে গিয়ে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত মহিলা। ছবি: এক্স।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৬ এপ্রিল ২০২৪ ১৫:১৫
Share: Save:

একে গরম, তার উপর দীর্ঘ লাইনে ঠায় দাঁড়িয়ে ভোট দেওয়া। দেশের বেশির ভাগ রাজ্যে যখন তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করা হয়েছে, এমন পরিস্থিতিতে ভোট দিতে গিয়ে অনেক ভোটারই সমস্যার মুখে পড়ছেন। কোথাও কোথাও ভোটারদের অসুস্থ হয়ে পড়ার মতো ঘটনাও প্রকাশ্যে আসছে। বেঙ্গালুরু থেকেও তেমনই একটি ঘটনা প্রকাশ্যে এসেছে।

স্থানীয় সূত্রে খবর, বেঙ্গালুরুর বোম্মাসান্দ্রা কেন্দ্রে ভোট দিতে গিয়েছিলেন এক মহিলা। ভোট দেওয়ার জন্য সকাল ৭টা থেকেই ভোটারদের বিশাল লাইন পড়ে যায়। অনেক ক্ষণ ভোটের লাইনে অপেক্ষা করার পর মহিলা একটু অসুস্থ বোধ করতে থাকেন। মাথার উপর তখন গনগনে সূর্য। প্রত্যক্ষদর্শীদের দাবি, মহিলা লাইন ছেড়ে বেরিয়ে আসেন। তার পর ভোটকেন্দ্রেই রাখা পানীয় জল খাওয়ার জন্য এগিয়ে যান। তখনই জ্ঞান হারান। এক ভোটার সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে ধরে ফেলেন। এই ঘটনায় হুলস্থুল পড়ে যায়।

ওই কেন্দ্রেই ভোট দিতে গিয়েছিলেন চিকিৎসক গণেশ শ্রীনিবাস প্রসাদ। তিনিও ভোটের লাইনে দাড়িয়েছিলেন। এই পরিস্থিতি দেখে বিন্দুমাত্র দেরি না করে সবাইকে সরিয়ে দিয়ে মহিলার অবস্থা খতিয়ে দেখেন চিকিৎসক। তিনি বুঝতে পারেন মহিলা হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। কালবিলম্ব না করে তিনি সিপিআর দেওয়া শুরু করেন। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই মহিলার জ্ঞান ফেরে। তার পর সেই পরিস্থিতি কথা পরে নিজের এক্স (সাবেক টুইটার) হ্যান্ডলে শেয়ার করেন চিকিৎসক। তিনি বলেন, “ভোট দেওয়ার জন্য লাইনে দাঁড়িয়েছিলাম। হঠাৎ দেখি এক মহিলা জ্ঞান হারালেন। তাঁকে ধরাধারি করে ফাঁকা জায়গায় নিয়ে আসা হয়। তাঁকে সিপিআর দিই। সৌভাগ্যবশত তিনি এ যাত্রায় প্রাণ ফিরে পেলেন।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

bengaluru Cardiac Arrest
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE