• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কলকাতা ছাড়লেন আলেসান্দ্রো

কোচ সেই মারিয়োই, ক্রোমার ঘোষণা তিনি তৈরি

East Bengal
অনুশীলনে ক্রোমা। সঙ্গী কোলাদো (বাঁ দিকে)। সহকারী থেকে এখন প্রধান কোচ স্পেনীয় মারিয়ো (মাঝখানে)। ভক্তদের ভালবাসায় কলকাতা ছাড়লেন আলেসান্দ্রো (ডান দিকে)। ছবি: সুদীপ্ত ভৌমিক

Advertisement

বৃহস্পতিবার সকালে কয়েকশো সমর্থকের চোখের জলে আলেসান্দ্রো মেনেন্দেস গার্সিয়া বিদায় নেওয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই প্রত্যাশা মতো নতুন কোচ হিসেবে মারিয়ো রিভেরার নাম ঘোষণা করল ইস্টবেঙ্গল। তবে আগামী শনিবার কোয়েম্বত্তূরে চেন্নাই সিটি এফসির বিরুদ্ধে ম্যাচে সহকারী কোচ মার্সেল সেভিয়ানোই দলের দায়িত্ব সামলাবেন। 

গত মঙ্গলবার দুপুরে আলেসান্দ্রো পদত্যাগ করার পর থেকেই লাল-হলুদের নতুন কোচ কে হবেন তা নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে পৌঁছেছিল। করিম বেনশরিফা, অ্যাশলে ওয়েস্টউডের পাশাপাশি গত মরসুমে আলেসান্দ্রোর সহকারী মারিয়োও আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন। ইস্টবেঙ্গলে কোচিং করানোর অভিজ্ঞতা থাকায় শুরু থেকেই অন্যদের চেয়ে এগিয়ে ছিলেন মারিয়ো। সরকারি ভাবে মারিয়োর নাম ঘোষণা করাই শুধু বাকি ছিল। ইতিমধ্যেই ভারতে আসার ভিসার জন্য আবেদন করেছেন স্পেনীয় কোচ। আগামী সপ্তাহের শেষের দিকে তাঁর কলকাতায় আসার কথা।

রিয়াল মাদ্রিদ রিজার্ভ দলের প্রাক্তন কোচ আলেসান্দ্রো ইস্টবেঙ্গলের দায়িত্ব ছাড়লেও তাঁর দেখানো পথেই যে চলবেন, জানিয়ে দিয়েছেন মার্সেল। তাঁর কথায়, ‘‘আলেসান্দ্রো অসাধারণ কোচ। এই দলটাকে ও গড়ে তুলেছে। আমার লক্ষ্য আলেসান্দ্রোর পরম্পরা বজায় রাখা। ওর সঙ্গে কথা বলব, পরামর্শ নেব। চেন্নাইকে হারিয়েই আলেসান্দ্রোকে বিদায়ী উপহার দিতে চাই।’’ লাল-হলুদ অন্দরমহলের খবর, কলকাতা ছাড়ার আগে নাকি আলেসান্দ্রো সাপোর্ট স্টাফের সঙ্গে চেন্নাই ম্যাচ নিয়ে আলোচনায় বসেছিলেন। শুধু তাই নয়। আই লিগের বাকি ম্যাচগুলোতেও কী ভাবে খেলবে ইস্টবেঙ্গল, সেই রূপরেখাও নাকি প্রস্তুত করে দিয়েছেন।

গত বারের আই লিগ চ্যাম্পিয়ন চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে কার্ড সমস্যায় মার্তি ক্রেসপি খেলতে পারবেন না। বৃহস্পতিবার সকালে যুবভারতী সংলগ্ন মাঠে স্পেনীয় ডিফেন্ডার অনুশীলনে না আসায় জল্পনা শুরু হয়ে যায়, তিনিও কি ইস্টবেঙ্গল ছাড়ছেন? পরে জানা গিয়েছে, কোচের অনুমতি নিয়েই এ দিন বিশ্রাম নিয়েছেন তিনি।  বোরখা গোমেস পেরেস নেই। কার্ড সমস্যায় ক্রেসপি ছিটকে গিয়েছে। দলে কোনও বিদেশি ডিফেন্ডার নেই। এই পরিস্থিতিতে চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে খেলা কতটা কঠিন? মার্সেল বলছেন, ‘‘চেন্নাইয়ের খেলা দেখেছি, বিশ্লেষণ করেছি। খুবই ভাল দল। ৪-৩-৩ ছকে আকর্ষণীয় ফুটবল খেলে ওরা। চেন্নাইয়ের রণনীতির মোকাবিলা করার মতো অস্ত্র আমাদের আছে বলেই আমার বিশ্বাস। আশা করছি, ভাল ফলই হবে।’’ 

রক্ষণ নিয়ে উদ্বেগের মধ্যেই অনুশীলনে নেমে পড়লেন আনসুমানা ক্রোমা। কলকাতা প্রিমিয়ার লিগে পিয়ারলেসের হয়ে সর্বোচ্চ গোলদাতা হওয়ার পুরস্কার পাওয়া লাইবেরীয় স্ট্রাইকার নিজেও ছটফট করছেন মাঠে নামার জন্য। আজ, শুক্রবার সকালে দলের সঙ্গে কোয়াম্বত্তূরেও যাচ্ছেন তিনি। তবে কলকাতা লিগের পরে কোনও প্রতিযোগিতায় না খেললেও ক্রোমা আত্মবিশ্বাসী। বলছিলেন, ‘মালয়েশিয়ায় আমি বেশ কয়েকটা অনুশীলন ম্যাচ খেলেছি। তাই কোনও সমস্যা হবে না। ইস্টবেঙ্গলের হয়ে খেলার জন্য আমি তৈরি।’’

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন