Advertisement
০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Augusta Masters

টাইগারের মঞ্চে ইতিহাস গড়লেন জাপানের হিদেকি

করোনার নতুন সংক্রমণের কারণে তাঁর দেশে শেষ পর্যন্ত অলিম্পিক্স হবে কি না, তা নিয়ে এখনও চাপা প্রশ্ন এবং সংশয় রয়ে গিয়েছে।

কীর্তি: মাস্টার্স জেতার পরে ট্রফি নিয়ে উচ্ছ্বসিত জাপানের হিদেকি।

কীর্তি: মাস্টার্স জেতার পরে ট্রফি নিয়ে উচ্ছ্বসিত জাপানের হিদেকি। ছবি এএফপি।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৩ এপ্রিল ২০২১ ০৭:২৬
Share: Save:

অগাস্টা মাস্টার্স গলফের সঙ্গে কিংবদন্তি টাইগার উডসের অনেক সাফল্যের স্মৃতি জড়িয়ে রয়েছে। সেই মঞ্চে কোনও এশীয় প্রতিনিধির চ্যাম্পিয়ন হওয়ার স্বপ্ন এত দিনে সফল হল। হিদেকি মাতসুয়ামা ছিনিয়ে নিয়ে গেলেন ২০২১ অগাস্টা মাস্টার্স গলফের খেতাব।

Advertisement

এহিমের ২৯ বছরের প্রতিনিধি সেরার ট্রফি হাতে নিয়ে বলে উঠেছেন, “বুঝতেই পারছিলাম, খুব নাটকীয়তার মধ্যে দিয়েই লড়াইটা শেষ হতে চলেছে। ফলে আমার পক্ষে সেই সময় অন্য কিছুই চিন্তা করা সম্ভব ছিল না। শেষ শটের পরেও চুপ করে দাঁড়িয়েছিলাম। আমার ক্যাডি এসে যখন জড়়িয়ে ধরল, তখন ফিরল সংবিত। বুঝতে পারলাম, আমি অগাস্টা মাস্টার্সে চ্যাম্পিয়ন হয়েছি।”

করোনার নতুন সংক্রমণের কারণে তাঁর দেশে শেষ পর্যন্ত অলিম্পিক্স হবে কি না, তা নিয়ে এখনও চাপা প্রশ্ন এবং সংশয় রয়ে গিয়েছে। কিন্তু জাপানের প্রথম প্রতিনিধি হিসেবে তাঁর এই অবিশ্বাস্য সাফল্য পাল্টে দিয়েছে বিশ্ব গলফে ইউরোপীয়দের একতরফা আধিপত্যের ধারণাকে। ইতিহাস বলছে, ১৯৭৭ সালে এলপিজিএ চ্যাম্পিয়নশিপে চাকো হিগুচি এবং ২০১৯ সালে মহিলাদের ওপেন গলফে চ্যাম্পিয়ন হিনাকো শিবুনো ছাড়া জাপানের গলফ-মানচিত্রে সাফল্য খুঁজতে যাওয়া নির্বুদ্ধিতা। রবিবার যে ধারণা আরও একবার পাল্টে গেল হিদেকির অভাবনীয় সাফল্যে।

অগাস্টা মাস্টার্সের নতুন নায়ককে স্বাগত জানিয়েছেন আর এক কিংবদন্তি জ্যাক নিকলস। তিনি টুইট করেন, “বিশ্বায়িত গলফের দৃষ্টিভঙ্গি থেকে বিচার করলে হিদেকির এই সাফল্য এক তাৎপর্যপূর্ণ পরিবর্তনের বার্তা দিয়েছে বলে আমি মনে করি।” আরও লিখেছেন, “একটা দীর্ঘ সময় জাপানে কাটানোর সৌভাগ্য আমার হয়েছিল। সেই অভিজ্ঞতা থেকে বলতে পারি, জাপানের মানুষ এই খেলাটা কতটা পছন্দ করেন। আজ তাঁরাও নিশ্চয়ই হিদেকির মতোই সমান ভাবে গর্ব অনুভব করছেন। আমার চোখে হিদেকি শুধু জাপানের নতুন নায়কই নয়, বিশ্ব গলফের মানচিত্রে ও নতুন এক দিশার উন্মোচনও করে দিয়েছে।”

Advertisement

প্রথা মেনে গায়ে সবুজ রংয়ের ব্লেজার পরে হাতে ট্রফি তুলে নিয়ে কেমন মনে হচ্ছিল? সাংবাদিক সম্মেলনে উড়ে আসা প্রশ্নের জবাবে বিনয়ী হিদেকির প্রতিক্রিয়া, “যদি সে ভাবে দেখতে হয়, তা হলে মানতেই হবে টেনিসে নেয়োমি ওসাকা, বাস্কেটবলে ইয়ু ডারভিসের পরে আমি সম্ভবত জাপানে গলফ সম্পর্কে সাধারণ মানুষের মনে একটা অন্য প্রভাব বিস্তার করতে পেরেছি। আশা করি, এর পরে এই খেলাটাকে নিয়ে আমার দেশেও একটা নতুন প্রজন্ম তৈরি হবে সাফল্যর পথ ধরে এ ভাবেই এগিয়ে যাওয়ার জন্য। তার বাইরে আমি অন্য কিছু এখন আর ভাবতে চাই না।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.