×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৪ জুন ২০২১ ই-পেপার

খেলা

হাতি থেকে উট, বিশ্বকাপের এই গণৎকারদের চেনেন?

নিজস্ব প্রতিবেদন
১৮ জুন ২০১৮ ১০:২২
তাদের সঙ্গে ফুটবলের কোনও সম্পর্ক নেই। ফুটবল বিশ্বকাপ নিয়েও তাদের কোনও মাথাব্যাথাও নেই। তাও বিশ্বকাপ ফুটবলের আসর বসতে না বসতেই খবরের শিরোনামে চলে আসে তারা। কখনও পল দ্য অক্টোপাস কখনও বা অ্যাকিলিস দ্য ক্যাট। ফুটবল বিশ্বযুদ্ধ এমনই হরেক পশুকে খবরের শিরোনামে তুলে আনে— তাদের ভবিষ্যদ্বাণীর জন্য। কতটা সঠিক হয় এঁদের ভবিষ্যদ্বাণী? দেখে নেওয়া যাক।

পল দ্য অক্টোপাস: ২০১০-এ ফুটবল বিশ্বকাপের সময় খবরের শিরোনামে চলে আসে পল। তার ভবিষ্যদ্বাণী বেশ কিছু ক্ষেত্রে মিলেও গিয়েছিল। বিশেষ করে জার্মানির ক্ষেত্রে। জার্মানির প্রতিটি খেলার বিষয়ে তার ভবিষ্যদ্বাণী দারুণ ভাবে মিলে গিয়েছিল। এমনকী, ফাইনালের স্পেনের পক্ষে ছিল পল। আর বিশ্বকাপ জেতে স্পেনই।
Advertisement
অ্যাকিলিস দ্য ক্যাট: এ বারের রাশিয়া বিশ্বকাপে সব থেকে চর্চিত নাম। অ্যাকিলিস একটি ধবধবে সাদা বিড়ালের নাম। ইতিমধ্যেই রাশিয়ার প্রথম ম্যাচে তার ভবিষ্যদ্বাণী মিলে গিয়েছে। অ্যাকিলিস বলেছিল রাশিয়া জিতবে। এর আগে টানা আট মাস একটি ম্যাচ না জিতলেও অ্যাকিলিসের কথা মিলিয়ে ম্যাচটি জিতে যায় রাশিয়া।

নেলি দ্য এলিফ্যান্ট: নেলি জার্মান হাতি। ২০১০ বিশ্বকাপ, ২০১২ ইউরো ও ২০১৩ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালের সঠিক ভবিষ্যদ্বাণী করেছে নেলি। তার সামনে দু’দেশের পতাকা টাঙানো গোলপোস্ট রাখা থাকত। সে যে তিনকাঠিতে বল মারত, সেই দলই ম্যাচ জিতবে বলে ধরা হত। বহু ক্ষেত্রে মিলে গিয়েছিল নেলির ভবিষ্যদ্বাণী।
Advertisement
আলফ, ললি এবং গিনি: তিন পেঙ্গুইন। দলে সব থেকে প্রবীণ ছিল আলফ। সামনে রাখা থাকত তিনটি পাথর। দু’টিতে দুই দেশের পতাকা। আর মাঝে একটি পাথরের গায়ে ড্র লেখা কাগজ। আলফরা তার মধ্যে থেকে বেছে একটির উপর গিয়ে বসত। এ ভাবেই নিজেদের মতামত জানাত তারা।

শাহীন দ্য ক্যামেল: ২০১৪ সালের বিশ্বকাপের আগে খবরের শিরোনামে উঠে এসেছিল শাহীন। সে ছিল দুবাইয়ের একটি উট। দু’টি কাঠের পোস্টে দু’দেশের পতাকা লাগানো থাকত। একটিতে কামড় দিয়ে কে জিতবে তা বুঝিয়ে দিত শাহীন। গত বারের পর এ বারের বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচেও রাশিয়া জিতবে বলে আগাম বলেছিল শাহীন। 

Tags: বিশ্বকাপ ফুটবল ২০১৮