বেল পেপারের চাটনি

উপকরণ: হলুদ, সবুজ ও লাল বেল পেপার ১টা করে, ধনেপাতা ৫০ গ্রাম, কাঁচা লঙ্কা ২টো, তেঁতুলের ক্বাথ ১ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ কুচনো ১০০ গ্রাম, সরষে আধ চামচ, কারিপাতা ৫-৬টা, বিউলির ডাল ২ চা চামচ, সাদা তেল আধ চামচ, নুন পরিমাণমতো।

প্রণালী: বেল পেপারগুলো ডুমো করে কেটে নিন। পেঁয়াজ ও ধনেপাতাও কুচি কুচি করে কেটে ফেলতে হবে। কড়াইতে তেল দিয়ে ক্যাপসিকাম, পেঁয়াজ, ধনেপাতা, কাঁচা লঙ্কা, তেঁতুলের ক্বাথ, নুন সব একসঙ্গে একটু নেড়ে মিক্সিতে বেটে নিন। এর পর কড়াইতে তেল দিয়ে কারিপাতা, সরষে, বিউলির ডাল হালকা করে ভেজে ক্যাপসিকাম বাটার উপর ফোড়নটা ছড়িয়ে দিন। যে কোনও ভাজার সঙ্গী হিসেবে এই চাটনির তুলনা নেই।

 

ইলিশ মুড়োর চাটনি

উপকরণ: ইলিশের মুড়ো ২০০ গ্রাম, হলুদ আধ চামচ, সরষের তেল ৩ চা চামচ, শুকনো লঙ্কা ১টা, পাঁচফোড়ন আধ চা চামচ, ভেজানো তেঁতুলের ক্বাথ ২ চা চামচ, চিনি পরিমাণমতো।

প্রণালী: কড়াইতে তেল দিয়ে নুন, হলুদ মাখিয়ে মাছের মুড়ো ভেজে নিন। ভাজা হয়ে গেলে কড়াই থেকে মাছের মুড়ো তুলে কড়াইতে আবার তেল দিয়ে শুকনো লঙ্কা, পাঁচফোড়ন ভেজে তার মধ্যে তেঁতুলের ক্বাথ ঢেলে দিতে হবে। পরিমাণমতো জল দিয়ে সেটা ফুটিয়ে নিন। সামান্য হলুদ দিয়ে ১০ মিনিট ফুটিয়ে মুড়োটা তার মধ্যে দিয়ে দিতে হবে। এ বার এর মধ্যে নুন ও চিনি দিন। ফুটে গেলে নামিয়ে ঠান্ডা করে পরিবেশন করুন।

 

পেঁয়াজের চাটনি

উপকরণ: পেঁয়াজ ২৫০ গ্রাম, শুকনো লঙ্কা ৩-৪টে, তেঁতুলের ক্বাথ ১ টেবিল চামচ, চিনি ও নুন ১ টেবিল চামচ করে, সরষে আধ চামচ, কারিপাতা ৫-৬টা, সাদা তেল ২ টেবিল চামচ।

প্রণালী: পেঁয়াজ ঝিরিঝিরি করে কেটে নিন। কড়াইতে তেল দিয়ে শুকনো লঙ্কা, পেঁয়াজ কুচি, নুন, তেঁতুলের ক্বাথ দিয়ে নেড়ে নিন। কিছুটা রান্না হয়ে গেলে মিক্সিতে দিয়ে বেটে নিন। তার পর পাত্রে এই মিশ্রণটা ঢেলে নিতে হবে। এর পর কড়াইতে আবার তেল দিয়ে গোটা সরষে ও কারিপাতা ফোড়ন দিন। এই ফোড়নটা ঢেলে দিন চাটনিতে। একটা আস্ত পেঁয়াজ রেখে দেবেন। সেটা পরে পুড়িয়ে এই চাটনির সঙ্গে পরিবেশন করুন। স্বাদ বাড়বে।

 

ডালের বড়ার চাটনি

উপকরণ: ছোলার ডাল ২০০ গ্রাম, তেঁতুলের ক্বাথ ১ চা চামচ, গোটা সরষে এক চিমটে, নুন ও চিনি পরিমাণমতো।

প্রণালী: গরম জলে এক ঘণ্টা ছোলার ডাল ভিজিয়ে রাখতে হবে। তার পর মিক্সিতে ছোলার ডাল বেটে নিতে হবে। মিহি করে বাটা হয়ে গেলে নুন দিয়ে ডাল ভাল করে ফেটিয়ে ছোট ছোট বড়ার আকার দিতে হবে। এ বার কড়াইতে তেল গরম হলে বড়া ভেজে তুলে নিতে হবে। কড়াইতে আবার তেল দিয়ে গোটা সরষে ফোড়ন দিন। তার পর একে একে হলুদ, চিনি, নুন আর তেঁতুলের ক্বাথ দিয়ে রসটা ফুটতে দিন। রস তৈরি হলে বড়াগুলো দিয়ে ঢাকা দিয়ে রাখুন। রসে বড়াগুলো ফুলে উঠবে। এই বড়াগুলোয় এতটাই রস ভরে টইটম্বুর থাকে যে, এমনিই খাওয়া যায়।

 

বাদাম-পোস্তর চাটনি

উপকরণ: পোস্ত ১০০ গ্রাম, চিনে বাদাম ২০ গ্রাম, তেঁতুলের ক্বাথ ১ টেবিলচামচ, শুকনো লঙ্কা ৩টে, কারিপাতা ৫-৬টা, গোটা সরষে কয়েকটা, চিনি ১ চামচ, নুন পরিমাণমতো।

প্রণালী: কড়়াইতে কাঁচা বাদাম লাল করে ভেজে নিতে হবে। তার পর পোস্তও শুকনো নেড়ে নিতে হবে। এর পর দু’টো শুকনো লঙ্কাও কড়াইতে নেড়ে নিন। এবার বাদাম, পোস্ত আর শুকনো লঙ্কা, নুন ও সামান্য চিনি দিয়ে একসঙ্গে মিক্সিতে বেটে নিতে হবে। এ বার অল্প তেল দিয়ে তাতে গোটা সরষে, শুকনো লঙ্কা, কারিপাতা ফোড়ন দিন। এই ফোড়নটা ওই মিশ্রণের উপর ঢেলে দিলেই তৈরি চাটনি।


ছবি: শুভেন্দু চাকী।

আপনি কি নিজের অভিনব রান্নার রেসিপি পত্রিকায় প্রকাশ করতে চান? তবে সেই রান্নার ছবি তুলে নাম, ঠিকানা ও ফোন নম্বর-সহ মেল করুন এই মেল আইডিতে patrika@abp.in