×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

মায়ের বদলে অন্য মহিলার দেহ দিল মর্গ, কাঠগড়ায় হাসপাতাল-পুরসভা

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৭ অগস্ট ২০২০ ২০:২৯
বি আর সিংহ হাসপাতাল। ফাইল চিত্র।

বি আর সিংহ হাসপাতাল। ফাইল চিত্র।

হাসপাতালের মর্গে দেহ বদলের অভিযোগ উঠল। মর্গ থেকে শেষকৃত্যের জন্য একটি দেহ নিয়ে যাওয়ার কথা ছিল হাসপাতাল থেকে। পুরসভার কর্মীরা তার বদলে অন্য কারও দেহ নিয়ে যান। সেই দেহ দাহ করাও হয়ে যায়। এর পর অন্য দেহটি নিতে আত্মীয়-পরিজনেরা মর্গে গেলে তাঁদের আর একটি দেহ তুলে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। কী ভাবে এমন বিভ্রাট হল, কী ভাবেই বা অন্য কারও দেহ সৎকার হয়ে গেল, তা নিয়ে চলছে অভিযোগ পাল্টা অভিযোগের পালা। খাস কলকাতায় ঘটনাটি ঘটেছে বি আর সিংহ রেল হাসপাতালে।

কল্পনা ভগত নামে এক বৃদ্ধার চিকিৎসা চলছিল ওই হাসপাতালে। করোনা কোভিড-১৯ পরীক্ষা করা হয়। কিন্তু রিপোর্ট আসার আগেই তাঁর মৃত্যু হয়। পরে তাঁর রিপোর্ট নেগেটিভও আসে। হাসপাতালের তরফে কল্পনাদেবীর পরিবারকে বলা হয়, দেহ মর্গ রাখা রয়েছে। শুক্রবার তাঁরা দেহ নিতে এলে প্রথমে নথিপত্রে সইও করানো হয়। দেহ নেওয়ার সময় কল্পনাদেবীর ছেলে দেখেন, সেটি তাঁর মায়ের দেহ নয়। শীলা সেনগুপ্ত নামে অন্য কারও দেহ তাঁদের দেওয়া হচ্ছিল। এর পরেই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে অভিযোগ জানানো হয়।

হাসপাতালের তরফে তাঁদের জানানো হয়, পুরসভার কর্মীরা কোভিড-১৯ আক্রান্তের দেহ ভেবে তা নিয়ে যায়। নিয়ম মেনে তা সৎকারও করে ফেলা হয়েছে। কল্পনা ভগতের দেহ ফিরিয়ে দেওয়ার দাবি জানাচ্ছেন তাঁর পরিবার। বিআর সিংহ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি কলকাতা পুরসভাকেও জানায়। কী ভাবে এই ঘটনা ঘটলে, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে পুরলভা সূত্রে জানা গিয়েছে। হাসপাতালকে কাঠগড়ায় তুলছে কল্পনা ভগতের পরিবার। হাসপাতালের গাফিলতিতে এই ঘটনা ঘটেছে, নাকি পুরসভার কোনও ভুল রয়েছে, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। বিষয়টি স্বাস্থ্য ভবনেও জানানো হয়েছে বলে খবর।

Advertisement
Advertisement