×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২২ জুন ২০২১ ই-পেপার

দাবি তোলায় হেনস্থার মুখে প্রাথমিক শিক্ষিকা

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৮ ডিসেম্বর ২০১৮ ০৩:২২
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষক-শিক্ষিকাদের সংশোধিত বেতন-কাঠামো (পিআরটি)-র দাবিতে শিক্ষকদের সংগঠিত করে শহিদ মিনারে সমাবেশ করেছিল উস্তি ইউনাইটেড প্রাইমারি টিচার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন (ইউইউপিটিডব্লিউএ)। সেখানে গ্রেফতার হন আসানসোলের হীরাপুর চক্রের নরসিং বাঁধ জিএস অবৈতনিক প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা অপরাজিতা সেন। তার পরে হুমকির মুখে পড়তে হয় তাঁকে। গত সপ্তাহে তাঁকে শারীরিক ভাবে নিগ্রহেরও চেষ্টা হয় বলে অভিযোগ। বিষয়টির সঙ্গে শাসক দলের যোগ রয়েছে বলে অভিযোগ সংগঠনের নেতৃত্বের।

অভিযোগ, ২৯ নভেম্বর চার যুবক দু’টি মোটরবাইকে চড়ে এসে আসানসোলের কুমারপুর মোড়ের কাছে অপরাজিতাদেবীর স্কুটিতে ধাক্কা মারে। শিক্ষিকা ওই যুবকদের চেনেন না। ৩০ নভেম্বর আসানসোল দক্ষিণ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তিনি। অপরাজিতাদেবী বলেন, ‘‘আমার সঙ্গে ব্যক্তিগত কোনও শত্রুতা নেই। কিন্তু উস্তি সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার কারণে নানা ভাবে আমায় হেনস্থা করার চেষ্টা চলছে। আমাদের সঙ্গে অনেকে আছেন। এক জনকে ভয় দেখিয়ে ন্যায্য দাবিদাওয়া থেকে দূরে রাখা যাবে না।’’

অপরাজিতাদেবী যে চক্রের অন্তর্গত স্কুলের শিক্ষিকা, পশ্চিমবঙ্গ তৃণমূল প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির রাজ্য সভাপতি অশোক রুদ্র সেখানকার একটি স্কুলের শিক্ষক। অশোকবাবু বলেন, ‘‘প্রচারে থাকতে গল্প তৈরি করছে উস্তির ওই সংগঠন।’’ তবে উস্তির সংগঠনের সম্পাদিকা পৃথা বিশ্বাস বলেন, ‘‘অপরাজিতা আমাদের আন্দোলনের অন্যতম মুখ। তাঁকে আঘাত করা মানে সংগঠনকেই আক্রমণ করা। তবে এতে আমরা দমছি না।’’

Advertisement
Advertisement