Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৭ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

এই ছোট বিয়ারের বোতলের দাম শুনলে মাথা ঘুরে যাবে!

‘বিয়ারটি দেখতে পাচ্ছেন? এটাই বিশ্বের ইতিহাসে সব থেকে দামি বিয়ার। আমি এই বিয়ারের জন্য ম্যাঞ্চেস্টারের মালমাইসন হোটেলে ৯৯ হাজার ৯৮৩.৬৪ ডলার (ভ

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১১:৫১
Save
Something isn't right! Please refresh.
পিটার লালোর টুইটার পেজ থেকে নেওয়া ছবি।

পিটার লালোর টুইটার পেজ থেকে নেওয়া ছবি।

Popup Close

বিশ্বের সব থেকে দামি বিয়ারের ছবি পোস্ট করলেন অস্ট্রেলিয়ার এক ব্যক্তি। তাঁর কাছ থেকে একটি বিয়ারের দাম নেওয়া হয়েছে প্রায় ১ লক্ষ ডলার। টুইটারে তিনি বিয়ারের ছবির সঙ্গে একটি পোস্টও করেছেন। সেখানে জানিয়েছেন তাঁর এই অভিজ্ঞতার কথা। অবাক হলেন?

অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট লিখিয়ে ও বিয়ার বিশেষজ্ঞ পিটার লালোর তাঁর ভেরিফায়েড টুইটার হ্যান্ডলে ৫ সেপ্টেম্বর একটি পোস্ট করেছেন। সেখানে তিনি বিয়ার বোতল ও তার সঙ্গে একটি বিয়ারের গ্লাসের ছবি দিয়েছেন। তিনি লিখেছেন, ‘বিয়ারটি দেখতে পাচ্ছেন? এটাই বিশ্বের ইতিহাসে সব থেকে দামি বিয়ার। আমি এই বিয়ারের জন্য ম্যাঞ্চেস্টারের মালমাইসন হোটেলে ৯৯ হাজার ৯৮৩.৬৪ ডলার (ভারতীয় মুদ্রায় ৭১ লক্ষ ৬৬ হাজার ৮৩৭ টাকা) দিয়েছি। সত্যিই।’

লালোর জানিয়েছেন, সেদিন তিনি বিয়ার পান করতে যান ম্যাঞ্চেস্টারের ওই হোটেলে। গিয়ে তিনি বলেন, এমন একটি বিয়ার দিন যেটি আমেরিকান নয়,বরং কিছুটা ব্রিটিশ। সেই মতো বার টেন্ডার তাঁকে বিয়ার দেন। তিনিও বিয়ার পান করে কার্ডেদাম মিটিয়ে দেন। কোনও কারণে তাঁর সন্দেহ হওয়ায় তিনি জিজ্ঞেস করেন, কত টাকা দিতে হল তাঁকে এই বিয়ারের জন্য। প্রথমে উত্তর দিতে চাননি ওই বার টেন্ডার। পরে অনেক বার জিজ্ঞেস করায় বার টেন্ডার বলেন, একটি ভুল হয়েছে। পরে বিষয়টি শুধরে নেওয়া হবে।

Advertisement

আরও পড়ুন : চাঁদে হাঁটছেন মহাকাশচারী, পাশ দিয়ে হুশ করে বেরিয়ে গেল অটোরিকশা!

হোটেল থেকে বেরিয়ে যাওয়ার পর লালোর জানতে পারেন, তার ব্যাঙ্ক অ্যাকউন্ট থেকে প্রায় ৭১ লক্ষ ৬৬ হাজার ৮৩৭ টাকা কাটা হয়েছে। পরে ট্রানজাকশন ফি-এর১ লক্ষ ৭৯ হাজার টাকা ফেরত দেওয়া হলেও বাকি টাকা দেওয়া হয়নি। টাকা কাটার পর ৯ দিন পেরিয়ে যাওয়ার পরও নাকি তিনি তা ফেরত পাননি। তারপরই তিনি এই টুইট করেন।

লালোরের এই টুইট নিয়েঅবশ্য অনেকেই সন্দেহ প্রকাশ করেছেন। অনেকেরই দাবি এটি মিথ্যা গল্প। কেউ কেউ আবার বলছেন, এখনকার দিনে কারও ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে এভাবে ১ লক্ষ ডলার থাকাটাই বিশ্বাসযোগ্য নয়।



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement