Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২২ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

প্রতিবেশী দেশগুলোর থেকে ভারতে কেন আইফোনের দাম এত বেশি?

সংবাদ সংস্থা
২৫ মার্চ ২০১৭ ১১:৫৪
জনপ্রিয়তার নিরিখে এক নম্বরে। ছবি: সংগৃহীত

জনপ্রিয়তার নিরিখে এক নম্বরে। ছবি: সংগৃহীত

উন্নত প্রযুক্তি আর ভাল পরিষেবার জন্য গ্রাহকদের কাছে বরাবরই জনপ্রিয় আইফোন। নতুন মডেল বাজারে আসামাত্রই তা নিয়ে উত্তেজনার পারদ থাকে ঊর্ধ্বমূখী। হট কেকের মতো পাতে পরতে না পরতেই নিমেষে হাপিস হয়ে যেতেও সময় নেয় না। তবে জানেন কি দেশ ভিত্তিতে দামের বড় রকম হেরফের হয় আইফোনের!

সে দিক থেকে দেখতে গেলে এশিয়ার অন্যান্য দেশের তুলনায় ভারতের বাজারে আইফোনের দাম বেশি। কিন্তু কেন এই হেরফের?

টেকনোলজি প্রাইজ ইনডেক্সের একটি সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, এশিয়ান দেশগুলোর মধ্যে আইফোনের দাম সবথেকে কম চিন ও জাপানে। জাপানে যে আইফোনের দাম ৪১৪ ডলার, সেটাই চিনে ৪৭০ ডলার। সেখানে ভারতে সেই আইফোনেরই দাম ৫০৫ ডলার। কিন্তু কেন প্রতিবেশী দেশগুলোর তুলনায় ভারতে আইফোনের দাম এত বেশি?

Advertisement

আসলে ভারতে অ্যাপলের উপর শুল্কের মাত্রা অন্য দেশের তুলনায় অনেকটাই বেশি। এর সঙ্গে যুক্ত হয় উচ্চমাত্রার কর। ফলে সব মিলিয়ে ফোনের দাম হয়ে যায় আকাশছোঁয়া। অন্য দিকে ভারতে অ্যাপলের নিজস্ব স্টোরের সংখ্যা খুবই কম। ফলে মাল্টি কোম্পানির স্টোরগুলি থেকেই বিক্রি করা হয় অ্যাপেলের আইফোন। প্রস্তুতকারী সংস্থা থেকে অন্তত পাঁচ ‘মিডলম্যান’-এর হাত ঘুরে গ্রাহকের হাতে পৌঁছয় এই ফোন। ফলে এর দাম আরও বেড়ে যায়।

আরও পড়ুন: ৩৫ বছর নখই কাটেননি ইনি!



ভারতের একটি বিপণীতে আইফোনে মশগুল এক যুবক। ছবি: সংগৃহীত

এই খরচগুলোর সঙ্গে যুক্ত হয় শ্রমিক এবং জমির দামও। ভারতের দিল্লি, মুম্বইয়ের মতো বেশ কিছু বড় শহরে জমির দাম এতটাই আকাশছোঁয়া যে তার প্রভাব পড়ে সেই জমিতে তৈরি হওয়া দোকানের সামগ্রীর উপরেও।

তবে ভারতের থেকেও বেশি দামে আইফোন পাওয়া পায় এশিয়ার অনেক দেশেই। এশীয় দেশগুলির মধ্যে সিঙ্গাপুরে আইফোনের দাম সবচেয়ে বেশি।

আরও পড়ুন

Advertisement