Advertisement
Back to
PM Narendra Modi

‘কালো টাকার দিকে ঠেলে দেওয়া হল দেশকে’! মোদী নির্বাচনী বন্ডেরই সমর্থক, আশ্বাস ‘ভয়হীন’ বিকাশের

এএনআইকে দেওয়া ওই সাক্ষাৎকারে ‘এক দেশ এক ভোট’-এর মতো বিতর্কিত বিষয়েও মুখ খুলেছেন প্রধানমন্ত্রী। মন্তব্য, ‘‘বার বার নির্বাচনের আয়োজন করতে গেলে উন্নয়ন কর্মসূচির ক্ষতি হয়।’’

সাক্ষাৎকারে মোদী।

সাক্ষাৎকারে মোদী। ছবি: এক্স হ্যান্ডল থেকে নেওয়া।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৫ এপ্রিল ২০২৪ ১৮:৪৯
Share: Save:

সুপ্রিম কোর্টের নাম না করে নির্বাচনী বন্ড বাতিলের সিদ্ধান্তের সমালোচনা করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। লোকসভা ভোটপর্ব শুরুর চার দিন আগে সংবাদ সংস্থা এএনআই-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তাঁর মন্তব্য, ‘‘দেশকে কালো টাকার দিকে ঠেলে দেওয়া হল!’’ তিনি দাবি করেন, নির্বাচনী বন্ড না থাকলে কেউ জানতেই পারত না কোন সংস্থা, কত টাকা কোন দলকে দিচ্ছে।

সুপ্রিম কোর্ট সরাসরি ‘অসাংবিধানিক’ বললেও নির্বাচনী বন্ডের পক্ষে সওয়াল করে সংবাদ সংস্থাকে মোদী জানান, ভোটে কালো টাকা ব্যবহার বন্ধ করার উদ্দেশ্যেই ওই ব্যবস্থা (নির্বাচনী বন্ড) চালু করা হয়েছিল। তাঁর মন্তব্য, ‘‘যদি সৎ প্রতিফলন দেখা যায়, সকলেই এক দিন এ নিয়ে অনুশোচনা করবে।’’ সেই সঙ্গে তিনি বলেন, ‘‘আমি কখনওই বলিনি একটি সিদ্ধান্ত পুরোপুরি ত্রুটিমুক্ত। কিন্তু বিরোধী দলগুলি নির্বাচনী বন্ড নিয়ে মিথ্যা প্রচার করছে।’’

২০৪৭ সালের মধ্যে তাঁর ‘বিকশিত (অর্থাৎ উন্নত) ভারতের’ পরিকল্পনা রূপায়ণের স্লোগান ইতিমধ্যেই নানা প্রশ্ন তুলেছে রাজনীতিতে। তৈরি হয়েছে নানা আশঙ্কা। ওই সাক্ষাৎকারে প্রধানমন্ত্রী জানিয়ে দিয়েছেন, তাঁর সরকারের পরিকল্পনা নিয়ে কোনও জনগোষ্ঠী বা শ্রেণির শঙ্কার কোনও কারণ নেই। তিনি বলেন, ‘‘ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই। কারও ভয় পাওয়ানো বা দমন করা আমার সরকারের লক্ষ্য নয়। যখন আমি বলি ‘আমার বড় পরিকল্পনা রয়েছে’, তখন কাউকে ভয় পাওয়া উচিত নয়। আমি কাউকে ভয় দেখানো বা তাড়ানোর জন্য সিদ্ধান্ত নিই না। আমি দেশের সার্বিক উন্নয়নের জন্য সিদ্ধান্ত নিই।’’

প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, প্রযুক্তি এবং উদ্ভাবনী ক্ষমতার নিরিখে ভারতকে উন্নত বিশ্বে পরিণত করার পাশাপাশি সুস্থিত অর্থনৈতিক বৃদ্ধি তাঁর ‘বিকশিত ভারত ২০৪৭’ পরিকল্পনার অন্যতম অঙ্গ। কেন এমন পরিকল্পনা তাঁর সরকার গ্রহণ করল, তা ব্যাখ্যা করতে গিয়ে মোদী বলেন, ‘‘আমি সব সময় সঠিক পথে চলার চেষ্টা করেছি। তবুও আমি দেখতে পাই, যে আমার দেশে এত চাহিদা রয়েছে। আমি কী ভাবে প্রতিটি পরিবারের স্বপ্ন পূরণ করব, সেটাই বলার চেষ্টা করছি এই পরিকল্পনায়।’’ সেই সঙ্গে গত এক দশকে তাঁর সরকারের উন্নয়নের কাজ প্রসঙ্গে মোদীর মন্তব্য, ‘‘এটা তো শুধু ট্রেলার। পুরো সিনেমা এখনও বাকি রয়েছে।’’

এএনআইকে দেওয়া ওই সাক্ষাৎকারে ‘এক দেশ এক ভোট’-এর মতো বিতর্কিত বিষয়েও মুখ খুলেছেন প্রধানমন্ত্রী। ‘এক দেশ এক ভোট’ পক্ষে সওয়াল করতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্য, ‘‘বার বার নির্বাচনের আয়োজন করতে গেলে উন্নয়ন কর্মসূচির ক্ষতি হয়।’’ প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের নেতৃত্বাধীন কমিটি ‘এক দেশ এক ভোট’ কার্যকরের বিষয়ে ইতিবাচক সুপারিশ করেছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘‘আমরা প্রতিশ্রুতি মতোই এই কর্মসূচি রূপায়ণের চেষ্টা করব।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE