Advertisement
Back to
Presents
Associate Partners
Lok Sabha Election 2024

শরিক হতে চান উন্নয়নের, জয়নগরে তৃণমূল প্রার্থীর প্রচারে গিয়ে নাটকীয় ভাবে দলে যোগ সিপিএম কর্মীর

নতুন দলে যোগ দিয়ে নাসিরুদ্দিন জানিয়েছেন যে, তৃণমূলের উন্নয়নের কাজ দেখে তাঁর ভাল লেগেছে। তৃণমূলের সঙ্গে কাজ করে রাজ্যের উন্নয়ন করতে চান। তাই সিপিএম ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিলেন।

প্রচারের মাঝেই সিপিএম কর্মীর হাতে দলীয় পতাকা তুলে দিচ্ছেন প্রতিমা মণ্ডল।

প্রচারের মাঝেই সিপিএম কর্মীর হাতে দলীয় পতাকা তুলে দিচ্ছেন প্রতিমা মণ্ডল। — নিজস্ব চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
কুলতলি শেষ আপডেট: ১২ মে ২০২৪ ১৩:৩৮
Share: Save:

রবিবাসরীয় সকালে প্রচারে বেরিয়েছিলেন জয়নগরের তৃণমূল প্রার্থী তথা বিদায়ী সাংসদ প্রতিমা মণ্ডল। প্রচার চলাকালীনই এলাকার এক সিপিএম কর্মী প্রতিমার কাছে গিয়ে তৃণমূলে যোগ দেওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ করেন। সঙ্গে সঙ্গে তাঁর হাতে দলীয় পতাকা তুলে দেন প্রতিমা। রবিবার, দক্ষিণ ২৪ পরগনার জয়নগর লোকসভার অন্তর্গত কুলতলিতে প্রচারে বেরিয়েছিলেন প্রতিমা।

কুলতলির চুপড়িঝাড়া পঞ্চায়েতের ১৭০ নম্বর বুথের সিপিএম সদস্য নাসিরুদ্দিন মণ্ডল। দীর্ঘদিন সিপিএম করেছেন। কিন্তু রবিবার সেই নাসিরুদ্দিনই নাটকীয় ভাবে যোগ দিলেন তৃণমূলে। সকালে চুপড়িঝাড়া পঞ্চায়েত এলাকায় প্রচার সারছিলেন প্রতিমা। নাসিরুদ্দিন প্রচার চলাকালীনই প্রতিমার সঙ্গে গিয়ে কথা বলেন। জানান, তিনি তৃণমূলে যোগ দিতে চান। প্রতিমা দলীয় কর্মীদের নির্দেশ দেন নাসিরুদ্দিনকে দলে শামিল করার জন্য। তার পরেই নাসিরুদ্দিনের হাতে ঘাসফুল পতাকা তুলে দিয়ে আনুষ্ঠানিক ভাবে যোগদান কর্মসূচি শেষ করেন প্রতিমা। নতুন দলে যোগ দিয়ে নাসিরুদ্দিন বলেন, ‘‘তৃণমূলের উন্নয়নের কাজ দেখে ভাল লেগেছে। আমি চাই তৃণমূলের সঙ্গে কাজ করে রাজ্যের উন্নয়ন করতে। তাই সিপিএম ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিলাম।’’

২০২৪ লোকসভা নির্বাচনের সমস্ত খবর জানতে চোখ রাখুন আমাদের 'দিল্লিবাড়ির লড়াই' -এর পাতায়।

চোখ রাখুন

গত কয়েক দিন ধরেই কুলতলি বিধানসভার বিভিন্ন পঞ্চায়েতে প্রচার করছেন প্রতিমা। রবিবার তিনি আসেন চুপড়িঝাড়া পঞ্চায়েত এলাকায়। শিকেরহাটে একটি মন্দিরে পুজো দিয়ে শুরু হয় প্রচার। তাঁর সঙ্গে ছিলেন কুলতলির বিধায়ক গণেশচন্দ্র মণ্ডল, জেলা পরিষদ সদস্য খান জিয়াউল হক-সহ অন্যরা।

২০২৪ লোকসভা নির্বাচনের সমস্ত খবর জানতে চোখ রাখুন আমাদের 'দিল্লিবাড়ির লড়াই' -এর পাতায়।

চোখ রাখুন
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE