Advertisement
Back to
Presents
Associate Partners
Lok Sabha Election 2024

মেদিনীপুর ছেড়েও দুই বন্ধুর মন পড়ে স্ট্রং রুমে

মেদিনীপুর লোকসভার ভোট গণনা হবে খড়্গপুরের কেন্দ্রীয় বিদ্যালয়ে। সেখানেই স্ট্রং রুম। এই কেন্দ্রে যুযুধান তৃণমূল প্রার্থী জুন মালিয়া এবং বিজেপি প্রার্থী অগ্নিমিত্রা পাল রাজনীতির বাইরে বন্ধুই।

(বাঁদিকে) মেদিনীপুর কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী অগ্নিমিত্রা পাল  এবং তৃণমূল প্রার্থী জুন মালিয়া।

(বাঁদিকে) মেদিনীপুর কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী অগ্নিমিত্রা পাল এবং তৃণমূল প্রার্থী জুন মালিয়া। —নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
মেদিনীপুর শেষ আপডেট: ২৯ মে ২০২৪ ০৮:৩৩
Share: Save:

ভোট শেষে মেদিনীপুর ছেড়ে দু’জনেই ফিরেছেন কলকাতায়। তবে দু’জনের মন পড়ে রয়েছে খড়্গপুরের স্ট্রং রুমে। ফোনে দলের নেতা-কর্মীদের প্রয়োজনীয় নির্দেশ, পরামর্শ দিচ্ছেন।

মেদিনীপুর লোকসভার ভোট গণনা হবে খড়্গপুরের কেন্দ্রীয় বিদ্যালয়ে। সেখানেই স্ট্রং রুম। এই কেন্দ্রে যুযুধান তৃণমূল প্রার্থী জুন মালিয়া এবং বিজেপি প্রার্থী অগ্নিমিত্রা পাল রাজনীতির বাইরে বন্ধুই। জুন অভিনেত্রী। অগ্নিমিত্রা ফ্যাশন ডিজ়াইনার। কলকাতায় কাজের সূত্রে পরিচয় এবং প্রায় দু’দশকের বন্ধুত্ব দু’জনের। এক সময়ে ডিজ়াইনার অগ্নিমিত্রার শো স্টপার ছিলেন অভিনেত্রী জুন। প্রায় সমবয়সি। প্রায় একই সময়ে কেরিয়ার শুরু করেছেন। রাজনীতিতেও একুশের বিধানসভা ভোটে প্রথম লড়েই পৌঁছে গিয়েছেন বিধানসভার অন্দরে। জুন মেদিনীপুরের তৃণমূল বিধায়ক। অগ্নিমিত্রা আসানসোলের (দক্ষিণ) বিজেপি বিধায়ক। এ বার দু’জনেরই লক্ষ্য লোকসভা।

গত শনিবার ভোটের পরে জুন মেদিনীপুর ছেড়েছেন সোমবার, অগ্নিমিত্রা রবিবার। জুনের এখানে ফেরার কথা আগামী শনিবার। তবে অগ্নিমিত্রা ফিরতে পারেন বুধ-বৃহস্পতিবারের মধ্যে। স্ট্রং রুমে ইভিএমে কারচুপির আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন বিজেপি প্রার্থী। দলীয় সূত্রে খবর, মঙ্গলবার নেতা-কর্মীদের এক ভিডিয়ো বার্তায় অগ্নিমিত্রা বলেছেন, ‘শেষ দু’দিন ধরে আমরা শুনতে পাচ্ছি আইপ্যাক এবং তৃণমূল, মানে তৃণমূল আইপ্যাকের সাহায্যে, বিভিন্নভাবে স্ট্রং রুমে ঢুকে, স্ট্রং রুমে যে ইভিএমগুলি রাখা রয়েছে, সেগুলিকে ট্যাম্পার করা, সিসিটিভি সরানো, করতে পারে।’ সঙ্গে বার্তা, ‘বিজেপির কার্যকর্তাদের কাছে আমার আহ্বান, খড়্গপুরে কেন্দ্রীয় বিদ্যালয়ের স্ট্রং রুমে ইভিএম রাখা রয়েছে। আপনারা যখনই সময় পাবেন, যান। পাহারা দেওয়ার কাজ করুন। আমাদের ইভিএমকে রক্ষা করতে হবে।’’ বিজেপি প্রার্থীর কথায়, ‘রায় যাই হোক, আমরা মাথা পেতে নেবো। কিন্তু রায়টা যেন সঠিক হয়।’

দলীয় প্রার্থীর এই ভিডিয়ো বার্তা বিজেপি নেতাকর্মীরা সমাজমাধ্যমেও ছড়াচ্ছেন। মঙ্গলবার সকালে স্ট্রং রুম চত্বরের নিরাপত্তা দেখতে গিয়েছিলেন জেলা বিজেপির সহ-সভাপতি রমাপ্রসাদ গিরি। রমাপ্রসাদ দলীয় প্রার্থীর নির্বাচনী এজেন্ট। অন্য দিকে, সোমবার রাতে স্ট্রং রুম চত্বরের নিরাপত্তা দেখতে গিয়েছিলেন মেদিনীপুরের তৃণমূল পুরপ্রধান সৌমেন খান। স্ট্রং রুমের আলো যাতে না নেভে, সে দিকে নজর রাখতে দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা-কর্মীদের সতর্কবাণী শুনিয়েছেন যুযুধান প্রার্থীই।

প্রশাসন সূত্রে খবর, ত্রিস্তরীয় নিরাপত্তা বলয়ে মুড়ে ফেলা হয়েছে খড়্গপুরের স্ট্রং রুম চত্বর। সিসি ক্যামেরায় চলছে নজরদারি। স্ট্রং রুমের বাইরে দিনের ২৪ ঘন্টা পাহারায় রয়েছেন কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানেরা। রয়েছে পুলিশও। জেলা প্রশাসনের এক আধিকারিক বলেন, ‘‘স্ট্রং রুম চত্বরে নিরাপত্তার সব আয়োজন কমিশনের নিয়মানুযায়ী করা হয়েছে।’’ স্ট্রং রুমে ইভিএমে কারচুপি সম্ভব? জেলা বিজেপির সাধারণ সম্পাদক শুভজিৎ রায়ের মন্তব্য, ‘‘তৃণমূল সব পারে! ওরা জনসমর্থন পায়নি। তাই অসৎ উপায়ে জেতার কৌশল নিতেই পারে!’’ তৃণমূলের রাজ্য সম্পাদক প্রদ্যোত ঘোষের পাল্টা মন্তব্য, ‘‘মেদিনীপুরে বিজেপির পরাজয় নিশ্চিত। এটা ওদের প্রার্থী বুঝতে পেরেই নিশ্চয়ই এমন আশঙ্কা প্রকাশ করছেন!’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE