Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ব্যোমকেশ চরিত্রে আবার আবীর

আবীর চট্টোপাধ্যায়কে নিয়ে সত্য উদ্ঘাটনের দায়িত্বে এ বার ধ্রুব বন্দ্যোপাধ্যায়আবীর চট্টোপাধ্যায়কে মুখ করে ফের ব্যোমকেশের ছবি করার পরিকল্পনায় ভে

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০১ সেপ্টেম্বর ২০২০ ০০:১১
​আবীর ও পরমব্রত।

​আবীর ও পরমব্রত।

সাফল্য কে না চায়? যে কাহিনি পর্দায় দর্শালে নিশ্চিত সাফল্য, তা নিয়ে নানা কাণ্ডকারখানা তো হবেই। শরদিন্দু বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘ব্যোমকেশ বক্সী’ নিয়ে এ পর্যন্ত যত ছবি হয়েছে, সবই মোটামুটি হিট। একের পর এক ছবি হিট হয়েছে, পাল্লা দিয়ে প্রধান চরিত্রের মুখ ও পরিচালক বদলেছে। আর সে সব কাণ্ড নিয়ে টলিউড সরগরম হয়েছে।

আবীর চট্টোপাধ্যায়কে মুখ করে ফের ব্যোমকেশের ছবি করার পরিকল্পনায় ভেঙ্কটেশ ফিল্মস। কেউ বলতেই পারেন, আবীরই তো ব্যোমকেশ ছিল। ব্যাপার হল, মাঝে পাল্লা একটু অন্য দিকে ভারী হয়েছিল। এসভিএফ-এর ঘর থেকে অরিন্দম শীলের প্রস্থানের পরে ব্যোমকেশের চরিত্রে নতুন মুখ এবং নতুন পরিচালক নেওয়ার খবর শোনা যায়। সত্যান্বেষীর চরিত্রে অনির্বাণ ভট্টাচার্য থাকবেন, পরিচালক বিরসা দাশগুপ্ত, এমন কথা শোনা যাচ্ছিল। করোনা হানা না দিলে, এত দিনে হয়তো সে ছবির শুটিংও হয়ে যেত। পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে অনেক কিছুই বদলেছে। ব্যোমকেশ হচ্ছেন আবীরই, পরিচালনায় ধ্রুব বন্দ্যোপাধ্যায়।

অনির্বাণ যেমন ওয়েব প্ল্যাটফর্মে ব্যোমকেশ বক্সীর চরিত্র করছেন, তেমনটাই করবেন। ‘গুপ্তধন’ সিরিজ় হিট দেওয়ার পরে প্রযোজনা সংস্থার ঘরে ধ্রুবর নম্বর অনেকটাই বেড়েছে। ব্যোমকেশের মতো ওজনদার সিরিজ়ের দায়িত্ব তাঁর হাতেই দিতে চাইছে সংস্থা। তা ছাড়া আবীরের সঙ্গে ধ্রুবর সমীকরণও বেশ ভাল। তবে ছবির শুটিং শুরু হতে এখনও দেরি আছে। সিনেমা হল না খোলা পর্যন্ত নতুন কোনও কাজে হাত দিতে চাইছে না প্রযোজনা সংস্থা। তবে এ খবরে এসভিএফ কিংবা আবীর কেউই সিলমোহর দেননি।

Advertisement

ব্যোমকেশ পর্ব এখানেই শেষ নয়। একই সময়ে দুই অভিনেতা, একই চরিত্রে অভিনয় করছেন তা বোধহয় শুধু টলিউডেই সম্ভব! পরমব্রত চট্টোপাধ্যায় অভিনীত ব্যোমকেশ এই পুজোয় মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। ‘দুর্গরহস্য’র মতো কাহিনি করোনা পরিস্থিতিতে শুট করা সম্ভব নয়। রাজস্থানে আউটডোর শুটের পরিকল্পনা ছিল। সবটাই আপাতত বাতিল করা হয়েছে। তবে পরমব্রত জানালেন, শীতকালে তাঁরা ছবির শুটিংয়ের প্রস্তুতি নিচ্ছেন। তবে এখানেও ছোট্ট গিঁট আছে।

পরমব্রত অভিনীত ব্যোমকেশের মেন্টর অঞ্জন দত্ত আর পরিচালক ছিলেন সায়ন্তন ঘোষাল। আগের ছবিটির সময়ে মেন্টর-ডিরেক্টরের মনোমালিন্য হয়েছিল। যে কারণে সায়ন্তনের অজ্ঞাতে, মেন্টর নতুন পরিচালকের অন্বেষণও শুরু করে দিয়েছিলেন। তবে বিষয়টি দানা বাঁধেনি।

হিট ফ্র্যাঞ্চাইজ়ির ছবি নিয়ে এই টানাটানি আশ্চর্যের নয় মোটেই।

আরও পড়ুন

Advertisement