Advertisement
২৫ জুলাই ২০২৪
Sonam Kapoor

নতুন ছবি প্রস্তুত, তবুও প্রত্যাবর্তনের জন্য কেন অপেক্ষা করতে হচ্ছে সোনমকে?

বিয়ের পর সন্তান নিয়ে সুখী পরিবার। নতুন ছবিও তৈরি। কিন্তু ভাগ্য সঙ্গে নেই সোনম কপূরের।

photo of Bollywood Actor Sonam Kapoor

দু’বছর আগে ‘ব্লাইন্ড’ ছবির শুটিং শেষ করেন সোনম। ছবিতে এক জন দৃষ্টিহীনের চরিত্রে অভিনয় করেছেন অনিল-কন্যা । ছবি: সংগৃহীত।

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ১২:৫৪
Share: Save:

প্রায় ৪ বছর হতে চলল, তিনি বড় পর্দা থেকে দূরে রয়েছেন। প্রত্যাবর্তনের অপেক্ষায় রয়েছেন। কিন্তু ভাগ্য যে সহায় হচ্ছে না। তাই সোনম কপূরকে এই বছর আদৌ বড় পর্দায় অনুরাগীরা দেখেতে পাবেন কি না, তা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে।

দু’বছর আগে ‘ব্লাইন্ড’ ছবির শুটিং শেষ করেন সোনম। একই নামের কোরিয়ান থ্রিলারের রিমেক ছবিটির প্রযোজক সুজয় ঘোষ। ছবিতে অনিল কপূরের কন্যা এক জন দৃষ্টিহীনের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। ছবি তৈরি। এ বারে মুক্তির অপেক্ষা। কিন্তু সেখানেই যাবতীয় সমস্যার সূত্রপাত।

শোনা যাচ্ছে, ছবিটি ওটিটি প্ল্যাটফর্মে বিক্রির জন্য প্রায় ৩০ কোটি টাকা দাম হেঁকেছেন নির্মাতারা। দাম শুনেই বেঁকে বসেছে প্রথম সারির একাধিক ওটিটি প্ল্যাটফর্ম। ফলে আপাতত সোনমের ছবিটি আক্ষরিক অর্থেই ক্রেতার সন্ধানে রয়েছে।

সিনেমা বিশেষজ্ঞদের একাংশের মতে, সময়ের সঙ্গে বিভিন্ন ওটিটি প্ল্যাটফর্মের মধ্যে প্রতিযোগিতা বেড়েছে। এখন আর শুধুই তারকার উপস্থিতি দেখে ছবি কিনতে চাইছে না তারা। ছবির গুণমান বজায় রাখাটা তাঁদের কাছে প্রাথমিক শর্ত। সেখানে সোনমের এখন ‘স্টার ভ্যালু’ আগের মতো নেই বলেই মত অনেকের। সোনমের শেষ দুটি ছবি ছিল— ‘এক লড়কি কো দেখা তো এয়সা লগা’ এবং ‘দ্য জ়োয়া ফ্যাক্টর’। এই দুটো ছবিই বক্স অফিসে ব্যর্থ। তার উপরে ‘ব্লাইন্ড’ আবার রিমেক ছবি। নিন্দকদের মতে, সোনমকে প্রত্যাবর্তনের জন্য আরও চমকপ্রদ কোনও চিত্রনাট্য বাছতে হবে।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালে ব্যবসায়ী আনন্দ আহুজার সঙ্গে বিবাহসূত্রে আবদ্ধ হন সোনম। গত বছর অভিনেত্রী মা হয়েছেন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Sonam Kapoor Bollywood Actor Upcoming Movie
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE