×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২০ জুন ২০২১ ই-পেপার

Salman Khan on Radhe: ‘নকল রাধে দেখলে সাইবার অপরাধদমন শাখার কোপে পড়তে হবে’, হুঁশিয়ারি সলমনের

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৬ মে ২০২১ ১৫:৫৮
সলমন খান

সলমন খান

ইদ মানেই সলমন খানের ছবি। অনেক বছর ধরে এমনটাই হয়ে আসছে। অতিমারি সেখানেও থাবা বসিয়েছে। লকডাউনে প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ থাকায় এই প্রথম ভারতে ভাইজানের ইদ রিলিজ ‘রাধে’ ওটিটি প্ল্যাটফর্মে। যা নির্দিষ্ট অর্থের বিনিময়ে ‘সাবস্ক্রাইব’ করে দেখতে হচ্ছে দর্শকদের। ফলে, অনেক দর্শকই বিনামূল্যে নকল ভিডিয়ো দেখে দুধের স্বাদ ঘোলে মেটাচ্ছেন। ব্যবসায় মার খাচ্ছে প্রভুদেবার ছবি। বিষয়টি নজর এড়ায়নি ভাইজানেরও। শনিবার রাতে তাই নেটমাধ্যমে ভক্তদের সঙ্গে সরাসরি কথা বললেন তিনি। ইনস্টাগ্রাম, টুইটারে ভাইজানের অনুরোধ, ‘‘নকল ‘রাধে’ দেখে আসল ছবির ব্যবসার ক্ষতি করবেন না।’’

সলমনের আরও বক্তব্য, মাত্র ২৪৯ টাকা খরচ করলেই আসল ছবি দেখা যাচ্ছে। তার পরেও একাধিক নকল সাইট বিনামূল্যে ছবিটি দেখাচ্ছে। যা ভয়ঙ্কর অপরাধ। ইতিমধ্যেই তিনি এবং টিম ‘রাধে’ সাইবার অপরাধদমন শাখার সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। সলমনের হুঁশিয়ারি, প্রকৃত অপরাধীদের পাশাপাশি অপরাধদমন শাখা যাঁরা নকল ছবি দেখছেন তাঁদের বিরুদ্ধেও পদক্ষেপ করবেন। এই বক্তব্য দ্রুত ছড়িয়ে দিতে #রাধেমুভি এবং #২৪৯ টুইটার ট্রেন্ডে সলমন ইতিমধ্যেই তাঁর কথা তুলে ধরেছেন।

Advertisement

‘রাধে’র মুক্তির আগেই অভিনেতা দর্শকদের সজাগ করতে একটি ভিডিয়ো ছড়িয়ে দিয়েছিলেন। সেখানে বারেবারে তিনি নকল ভিডিয়ো, নকল সাইট থেকে দূরে থাকার অনুরোধ জানিয়েছিলেন। বলেছিলেন, একটি ছবি বানানোর পিছনে অভিনেতা, পরিচালক, প্রযোজক, কলাকুশলীর কঠোর পরিশ্রম থাকে। নকল সাইটে নকল ভিডিয়ো দেখলে যে টুকু ব্যবসা করা সম্ভব, সেটিও নষ্ট হয়ে যায়। তাঁর অনুরাগীরা যাতে প্রলোভনে পা না দেন, তার জন্যই আগাম সতর্ক করছেন সবাইকে।

আসলে সলমনের সব পরিশ্রম জলে গিয়েছে। কারণ মুক্তির কয়েক ঘণ্টার মধ্যে একাধিক নকল সাইটে ফাঁস হয়ে যায় ‘রাধে’। এখনও সাইটগুলিতে জ্যাকি শ্রফ, দিশা পাটানি, রণদীপ হুডা, সলমন খান অভিনীত ছবিটি রমরমিয়ে চলছে।

Advertisement