×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৭ জুন ২০২১ ই-পেপার

কোভ্যাক্সিনে ১২, কোভিশিল্ডে ১৮, এই বয়সসীমার ঊর্ধ্বে টিকা

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ০৪ জানুয়ারি ২০২১ ১৮:০৮
ছবি: পিটিআই

ছবি: পিটিআই

ভারত বায়োটেকের টিকা কোভ্যাক্সিন ১২ বছরের উপরের শিশুদের দেওয়া যাবে নিরাপদে। আর অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রোজেনেকার ক্ষেত্রে ১৮ বছর। ভারতের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থার পক্ষ থেকে জরুরি ক্ষেত্রে টিকা প্রয়োগের অনুমতি দেওয়ার পাশাপাশি এই নির্দেশও দেওয়া হয়েছে।

রবিবার এই দুটি টিকার ক্ষেত্রেই জরুরি ক্ষেত্রে প্রয়োগের অনুমতি দিয়েছে বিশেষজ্ঞ প্যানেল। বলা হয়েছে, কেবলমাত্র জরুরি ক্ষেত্রেই এটি ব্যবহার করা যাবে। দুটি টিকার ক্ষেত্রেই দুটি করে ডোজ দেওয়ার কথা বলা হয়েছে।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তৈরি বিশেষজ্ঞ প্যানেলের পরামর্শ অনুসারে ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়া (ডিসিজিআই) এই অনুমতি দিয়েছে টিকার জরুরি ব্যবহারের ক্ষেত্রে। যদিও ডিসিজিআই কেন তৃতীয় দফার ট্রায়াল না করেই এই টিকাগুলিকে অনুমতি দিল, তাই নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে বিরোধীরা। কংগ্রেস অভিযোগ করেছে, এ ভাবে নিয়ম না মেনে টিকাকে ছাড়পত্র দেওয়ার ফল মারাত্মক হতে পারে।

Advertisement

কিন্তু এই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে ডিসিজিআই জানিয়েছে, কোভ্যাক্সিন ১১০ শতাংশ কার্যকরী। সামান্যতম সন্দেহ থাকলে এই টিকাগুলিকে ছাড়পত্র দেওয়া হত না। এই টিকাগুলি নিরাপদ ও কার্যকরী।

অন্যদিকে সিরাম ইনস্টিটিউটের সিইও আদর পুনাওয়ালা জানিয়েছেন, সরকারকে যখন অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রোজেনেকার টিকা ২০০ টাকায় বিক্রি করা হচ্ছে। বেসরকারি ক্ষেত্রে বিক্রির জন্য এই টিকার দাম হতে পারে এক হাজার টাকা। সেই হিসেবে ভারত সরকারের কাছে ১০ কোটি করোনা টিকা বিক্রি করবে সিরাম। তারপর যে টিকা তৈরি হবে, সেগুলির দাম বেশি হবে।

আরও পড়ুন: স্বামীকে খুন করে ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করল স্ত্রী

আরও পড়ুন: করোনা পরীক্ষায় নেগেটিভ লন্ডন ফেরত সহযাত্রীরা

Advertisement