Advertisement
০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

জম্মু থেকে শ্রীনগর পর্যন্ত বিমানে যাবে আধাসেনা

জম্মু থেকে কাশ্মীরের দূরত্ব সড়কপথে প্রায় ৩২৫ কিলোমিটার। গত বৃহস্পতিবার পুলওয়ামায় আধাসেনার কনভয়ে জঙ্গি হামলায় ৪৯ জন জওয়ানের মৃত্যু হয়।

পুলওয়ামা কাণ্ড থেকে শিক্ষা নিয়ে আধাসেনার জন্য বিমানযাত্রায় সায় দিল কেন্দ্র।—ফাইল চিত্র।

পুলওয়ামা কাণ্ড থেকে শিক্ষা নিয়ে আধাসেনার জন্য বিমানযাত্রায় সায় দিল কেন্দ্র।—ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ০১:৫০
Share: Save:

পুলওয়ামা কাণ্ড থেকে শিক্ষা নিয়ে কাশ্মীরে আধাসেনার গতিবিধিতে বড়সড় পরিবর্তন আনল কেন্দ্র। জওয়ানদের জম্মু থেকে শ্রীনগর পর্যন্ত বিমানে পৌঁছে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল মোদী সরকার। এখন থেকে অফিসারদের পাশাপাশি ওই সুবিধে পাবেন আধাসেনার সব স্তরের জওয়ান। সরকারের ওই উদ্যোগকে স্বাগত জানালেও এ নিয়ে আজ কটাক্ষ করতে ছাড়েনি বিরোধী শিবির। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘‘দেরিতে হলেও বোধোদয় হয়েছে। আমি তো অনেক আগেই এই দাবি জানিয়েছিলাম। কিন্তু যখন দরকার ছিল, তখন এই সিদ্ধান্ত হলে এত জনকে প্রাণ হারাতে হত না।’’

Advertisement

জম্মু থেকে কাশ্মীরের দূরত্ব সড়কপথে প্রায় ৩২৫ কিলোমিটার। গত বৃহস্পতিবার পুলওয়ামায় আধাসেনার কনভয়ে জঙ্গি হামলায় ৪৯ জন জওয়ানের মৃত্যু হয়। তার পরেই কী ভাবে ওই দূরত্ব নিরাপদে পার করা সম্ভব, তা নিয়ে বৈঠক শুরু হয় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকে। চলে বিকল্প রাস্তার খোঁজও। এক স্বরাষ্ট্র কর্তার কথায়, ‘‘যতই নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হোক না কেন, তিনশো কিলোমিটার রাস্তায় কোথাও না কোথাও ফাঁক থেকেই যায়। যার সুযোগ নেয় জঙ্গিরা। এক একটি কনভয় চালানোয় খরচও প্রচুর। আর নতুন নিয়মে কনভয় চলার সময়ে পাশের রাস্তায় গাড়ি চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি হওয়ায় আমজনতার অসুবিধা হচ্ছিল। এগুলিকে মাথায় রেখেই আধাসেনার জন্য বিমানযাত্রায় সায় দেয় কেন্দ্র।’’

সরকারের ওই সিদ্ধান্তে প্রায় ৭.৮ লক্ষ আধাসেনার সুবিধা হবে বলে ইঙ্গিত দিয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। এ যাবৎ অফিসার পদমর্যাদার ব্যক্তিরা ছুটিতে যাওয়া এবং ছুটি থেকে কাজে যোগ দেওয়ার সময়ে বিমান পরিষেবা পেতেন। কিন্তু সরকারের ওই সিদ্ধান্তে কনস্টেবল, হেড কনস্টেবল এবং এএসআই পদমর্যদার জওয়ানেরা মূলত দিল্লি-শ্রীনগর ও জম্মু-শ্রীনগর রুটে যাওয়া এবং আসার সময়ে ওই পরিষেবা পাবেন। এর সমস্ত খরচ মেটাবে সরকার। কেন্দ্রের দাবি, এর ফলে জঙ্গি হামলার সম্ভাবনা যেমন কমবে, তেমনই কনভয়ের পিছনে অর্থও কম খরচ হবে।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.