Advertisement
০৪ ডিসেম্বর ২০২২
POCSO

১৪২ বছরের কারাদণ্ড ৪১ বছরের বাবুর! ১০ বছরের শিশুকে ২ বছর ধরে যৌন নির্যাতনে সাজা আদালতের

শিশুর মা, বাবা সম্পর্কে বাবুর আত্মীয়। তাঁরা সবাই এক বাড়িতে থাকেন। মা, বাবার বিশ্বাসের সুযোগ নিয়ে দিনের পর দিন বাবু শিশুটির উপর অকথ্য যৌন নির্যাতন চালাতেন।

প্রতীকী ছবি।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ০১ অক্টোবর ২০২২ ১৮:৩০
Share: Save:

একটি ১০ বছরের শিশুকে দু’বছর ধরে যৌন নির্যাতনের অভিযোগে এক ব্যক্তিকে ১৪২ বছরের সশ্রম কারাদণ্ডের সাজা দিল কেরলের এক পকসো আদালত। পাশাপাশি, আনন্দন পি আর ওরফে বাবুকে ৫ লক্ষ টাকা জরিমানাও করেছে আদালত। অনাদায়ে আরও তিন বছরের কারাদণ্ড।

Advertisement

কেরলের পথনামথিত্তা জেলা পুলিশ বাবুকে গ্রেফতার করে। ২০২১-এর ২০ মার্চ তিরুভাল্লা পুলিশ একটি অভিযোগ নথিভুক্ত করে। তাতে লেখা ছিল, ২০১৯ থেকে ২০২১-এর মধ্যে একটি ১০ বছরের শিশুকে লাগাতার ধর্ষণ করা হয়েছে। পাশাপাশি চলেছে যৌন নির্যাতনও। ঘটনাচক্রে শিশুটি বাবুরই এক আত্মীয়ের মেয়ে। শিশুটির মা, বাবার সঙ্গে একই বাড়িতে তাঁর বাস। আত্মীয় বাবুকে বিশ্বাস করতেন শিশুটির মা, বাবা। তারই সুযোগ নিয়ে দিনের পর দিন ধরে শিশুটির উপর অকথ্য অত্যাচার চালিয়ে গিয়েছেন বাবু। একদিন তা জানাজানি হতেই পুলিশে অভিযোগ দায়ের হয়। গ্রেফতার করা হয় বাবুকে। তোলা হয় আদালতে। সেই থেকে বিচার চলছে। রায়ে পকসো আদালত জানায়, বাবুকে ১৪২ বছর সশ্রম কারাদণ্ডে দণ্ডিত করা হল। পাশাপাশি ৫ লক্ষ টাকা জরিমানাও দিতে হবে তাঁকে। জরিমানা দিতে ব্যর্থ হলে অতিরিক্ত আরও তিন বছর জেল খাটতে হবে।

প্রসঙ্গত, পথনামথিত্তার পকসো আদালত এর আগে এত দীর্ঘ শাস্তির সাজা কাউকে শোনায়নি বলে জানা গিয়েছে।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.