Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২০ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

Coronavirus: করোনা, অক্সিজেন সঙ্কটের আয়না গুগল

তালিকায় প্রথমে রয়েছে ‘কোভিড ভ্যাকসিন নিয়ার মি’, অর্থাৎ নিকটবর্তী কোভিড টিকাকরণ কেন্দ্রের খোঁজ সবচেয়ে বেশি হয়েছে সারা বছর ধরে।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১০ ডিসেম্বর ২০২১ ০৭:১৯
Save
Something isn't right! Please refresh.
কোভিড আক্রান্ত এক মহিলার চলছে অক্সিজেন।

কোভিড আক্রান্ত এক মহিলার চলছে অক্সিজেন।
—ফাইল চিত্র।

Popup Close

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের ধাক্কায় যে দিশাহারা অবস্থায় পড়েছিলেন দেশবাসী, তারই ছবি উঠে এল গুগল সার্চের বছর ভরের সমীক্ষায়। অক্সিজেনের অভাবে মৃত্যুর তথ্য কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে না থাকলেও গুগল সার্চের প্রবণতা থেকে স্পষ্ট হচ্ছে অক্সিজেন-সঙ্কটের ছবিও।

বুধবারই ২০২১ সাল ধরে যে সমস্ত বিষয় নিয়ে সবচেয়ে বেশি খোঁজ নিয়েছে নেট-জনতা, সেই তালিকা প্রকাশ করেছে সার্চ ইঞ্জিন গুগল। সেই তালিকা দেখলেই বোঝা যাচ্ছে কোভিড-সঙ্কট কী ভাবে আঘাত করেছিল দেশবাসীকে। গুগলে কোনও কিছু খোঁজার একটি জনপ্রিয় বিভাগ হল ‘নিয়ার মি’, অর্থাৎ যিনি খুঁজছেন তার কাছাকাছি কোনও কিছু সম্পর্কে খোঁজ নেওয়ার উপায়। ভারতের
সেই ‘নিয়ার মি’-র প্রথম সাতটিতেই প্রত্যক্ষ ভাবে কোভিড-সঙ্কটের ছায়া দেখা যাচ্ছে।

তালিকায় প্রথমে রয়েছে ‘কোভিড ভ্যাকসিন নিয়ার মি’, অর্থাৎ নিকটবর্তী কোভিড টিকাকরণ কেন্দ্রের খোঁজ সবচেয়ে বেশি হয়েছে সারা বছর ধরে। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে কোভিড পরীক্ষাকেন্দ্রের খোঁজ। বিচ্ছিন্নবাসে থাকা অনেকে যে বাড়িতে খাবার পৌঁছে দেওয়ার খোঁজ করেছেন তা বোঝা যায়, ‘নিকটবর্তী খাবার ডেলিভারি’-র তিন নম্বরে ও ‘টিফিন সার্ভিসের’ ছয় নম্বরে থাকা দেখে। নিকটবর্তী কোভিড হাসপাতাল ও
সিটি স্ক্যান করার খোঁজ রয়েছে পাঁচ ও সাত নম্বরে।

Advertisement

অক্সিজেনের অভাবে দেশে কত মৃত্যু হয়েছে তা ‘তথ্য নেই’ বলে জানাতে পারেনি কেন্দ্রীয় সরকার। গুগলের তথ্য অবশ্য বলছে অক্সিজেনের হাহাকার একটা সময় কেমন ছিল দেশে। গুগল সার্চের আর একটি জনপ্রিয় বিভাগ, ‘হাউ টু’ অর্থাৎ কোনও কিছু করার প্রক্রিয়া খোঁজাতে অক্সিজেন-সঙ্কটের সেই আকুতি স্পষ্ট। ‘হাউ টু মেক অক্সিজেন অ্যাট হোম’ অর্থাৎ বাড়িতে অক্সিজেন তৈরির পদ্ধতির খোঁজ করেছেন অসংখ্য গুগল ব্যবহারকারী। তাই ‘হাউ টু’-র তালিকায় তা পাঁচ নম্বরে। তাকে ছাড়িয়ে গিয়েছে অক্সিজেন সঙ্কটে মরিয়া পরিজনদের খোঁজ। তিন নম্বরে তাই রয়েছে ‘হাউ টু ইনক্রিজ অক্সিজেন লেভেল’ অর্থাৎ শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা বৃদ্ধির উপায়। কাছাকাছি অক্সিজেন সিলিন্ডারের খোঁজ রয়েছে ‘নিয়ার মি’-র তালিকায় চার নম্বরে।

করোনায় আক্রান্ত রোগীর ঘরবন্দি পরিজনদের যে ভাবে খড়কুটোর মতো গুগলকে আঁকড়ে ধরতে হয়েছিল, বছর শেষের এই তালিকা থেকে তা স্পষ্ট। কী করে কোভিড টিকার জন্য নথিভুক্ত করতে হয় এবং কী ভাবে টিকার শংসাপত্র ডাউনলোড করতে হয়, সেই দুই বিষয় রয়েছে ‘হাউ টু’-র তালিকায় প্রথম ও দ্বিতীয় স্থানে।

করোনার মধ্যেই আতঙ্ক ছড়িয়েছিল ব্ল্যাক ফাঙ্গাস। সেই ব্ল্যাক ফাঙ্গাস কী, সেই প্রশ্ন রয়েছে ‘হোয়াট ইজ়’ দিয়ে খোঁজের তালিকায় শীর্ষে। রেমডেসিভিয়ার, ডেলটা প্লাস ভেরিয়েন্ট নিয়েও খোঁজ করেছেন অনেকে। সামগ্রিক ভাবে যে বিষয় নিয়ে সবচেয়ে বেশি খোঁজ চলেছে সেই তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে ‘কোউইন’। শীর্ষে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ বা আইপিএল।

অন্য নানা বিষয় নিয়েও খোঁজ নিয়েছেন দেশবাসী। ‘তালিবান কী’, ‘আফগানিস্তানে কী হচ্ছে’— জানতে চেয়েছেন অনেকে। ব্যক্তিত্বের মধ্যে যাঁদের খোঁজ সবচেয়ে বেশি চলেছে তিনি হলেন অলিম্পিক্সে সোনাজয়ী নীরজ চোপড়া। দ্বিতীয় স্থানেই রয়েছেন শাহরুখ পুত্র আরিয়ান খান। সংবাদ সংক্রান্ত বিষয়ে যা নিয়ে সবচেয়ে বেশি চর্চা হয়েছে সেই তালিকায় চার নম্বরে রয়েছে বাংলার বিধানসভা ভোট— টোকিয়ো অলিম্পিক্স, ব্ল্যাক ফাঙ্গাস ও আফগানিস্তানের খবরের পরেই।



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement