Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৯ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ত্রিপুরা জুড়ে সন্ত্রাসের আবহ, লেনিনের মূর্তি ভাঙতে বুলডোজার

তাপস সিংহ
আগরতলা ০৬ মার্চ ২০১৮ ০৩:১২
বিলোনিয়ায় ভাঙা হয়েছে লেনিনের মূর্তি। ছবি: সংগৃহীত।

বিলোনিয়ায় ভাঙা হয়েছে লেনিনের মূর্তি। ছবি: সংগৃহীত।

নির্বাচনী ফল ঘোষণার পরে সময় যত গড়াচ্ছে ত্রিপুরার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে নানা হিংসাত্মক ঘটনার খবর আসছে। সিপিএমের অভিযোগ, ফল ঘোষণার পরেই বিজেপি এবং আইপিএফটি-র সমর্থকেরা বিভিন্ন জেলায় তাদের পার্টি অফিসে ভাঙচুর চালাচ্ছে, আগুন ধরিয়ে দেওয়া হচ্ছে, ইতিমধ্যেই সিপিএম সমর্থকদের বেশ কিছু বাড়িতেও ভাঙচুর চলেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। যদিও বিজেপির পাল্টা অভিযোগ, সিপিএম সমর্থকেরাই তাদের উপর হামলা চালাচ্ছে।

সোমবার রাতে সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক বিজন ধর অভিযোগ করেন, রাজ্য জুড়ে সন্ত্রাস চলছে। কয়েক জন নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিকেও হুমকি দেওয়া হয়েছে। শাসক দল বিজেপি ও প্রশাসনের কাছে প্রশ্নও তোলেন তিনি।

সিপিএমের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, সাব্রুম, শান্তিরবাজার, বেলোনিয়া, অমরপুর, করবুক, উদয়পুর, সোনামুড়া, বিশালগড়, জম্পুইজলা, গণ্ডাছড়া, লংতরাই, খোয়াই সমেত বিভিন্ন জায়গায় বেশ কয়েক জন আহত হয়েছেন। বেশ কিছু বাড়িতে আগুন ধরানো হয়েছে। বেশ কিছু পরিবার তাদের বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছে।

Advertisement

আরও পড়ুন: শপথের আগেই ত্রিপুরা ভাগের দাবি তুলে ফেলল বিজেপির জোটসঙ্গী

হিংসার শুরু অবশ্য হয়েছে নির্বাচনের ফল ঘোষণারও আগে। প্রচার পর্বের সময় থেকেই। দক্ষিণ ত্রিপুরার বিলোনিয়ার কলেজ স্কোয়ারে লেনিনের একটি মূর্তি ছিল। নির্বাচনী প্রচারে এসে সিপিএম নেতা প্রকাশ কারাত ওই মূর্তিতে ফুলও দেন।



রাজ্য জুড়ে চলছে সন্ত্রাস।

এর ঠিক পরেই রীতিমতো বুলডোজার এনে সেই মূর্তিটি ভেঙে ফেলা হয়। যে ভাবে উল্লসিত জনতা এই দৃশ্য দেখে, গেরুয়া গেঞ্জি পরা একদল যুবক যে ভাবে মূর্তি ভাঙার তদারকি করে তাতে স্থানীয় মানুষের মনে পড়ে যাচ্ছে ইরাকের বাগদাদে স্বৈরতান্ত্রিক শাসক সাদ্দাম হসেনের মূর্তি ভাঙার সেই দৃশ্য। যেন মনে হচ্ছে, সাদ্দাম ও লেনিন একই গোত্রের।

আগরতলায় গুঁড়িয়ে দেওয়া হল লেনিনের মূর্তি

মনে পড়ছে ইউক্রেনের কথাও। সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নের পতনের পর সেখানে যে ভাবে লেনিনের মূর্তি ভাঙা হয়েছিল জনতার চোখের সামনে। বিলোনিয়ায় বহু লোক মোবাইল ক্যামেরায় সে দৃশ্য ধরেও রাখেন!

সিপিএমের অভিযোগ, নির্বাচনের ফল বেরনোর পরে আগরতলা বিমানবন্দরের কাছে মার্কসের একটি মূর্তি ভাঙা হয়েছে। এ ক্ষেত্রেও অভিযোগের আঙুল বিজেপির দিকে।



আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয় বেশ কিছু বাড়িতে।

যদিও রাজ্য বিজেপির সহ-সভাপতি সুবল ভৌমিক অভিযোগ করেন, তাঁদের কর্মীরা অত্যন্ত সংযত আচরণ করেছে। গণতান্ত্রিক পরিবেশ রক্ষা করার জন্য দিন-রাত পরিশ্রম করে চলেছেন। কিন্তু সিপিএম কর্মীরা তাঁদের উপর নানা ভাবে আক্রমণ চালাচ্ছে।

এই চাপানউতোরের মধ্যেই সিপিএমের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য গৌতম দাশ আবেদন করেন, কাল থেকে রাজ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শুরু হতে চলেছে। আক্রান্তদের মধ্যে অনেকেরই বাড়িতে এই ধরনের পরীক্ষার্থী আছেন। তাদের যেন কোনও ভাবে অসুবিধা না হয়।



Tags:
Tripura Tripura Assembly Election 2018 Violence CPIM BJPত্রিপুরাসিপিএম Video

আরও পড়ুন

Advertisement