Advertisement
২৮ জানুয়ারি ২০২৩
Dog

অন্তঃসত্ত্বা কুকুরকে পিটিয়ে খুন, হাসতে হাসতে মারলেন একদল ছাত্র! দেহ টেনে ঘোরালেন মাঠে

অন্তঃসত্ত্বা একটি কুকুরকে পিটিয়ে খুন করলেন এক দল ছাত্র। তার পর তার দেহ টানতে টানতে ঘোরানো হল মাঠে। দক্ষিণ-পশ্চিম দিল্লির ঘটনা।

অন্তঃসত্ত্বা কুকুরকে পিটিয়ে খুন।

অন্তঃসত্ত্বা কুকুরকে পিটিয়ে খুন। ছবি: টুইটার।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২০ নভেম্বর ২০২২ ১৫:৩৬
Share: Save:

পশু নিগ্রহের ভয়ঙ্কর এক ছবি ফের প্রকাশ্যে। দেখে শিউরে উঠছেন পশুপ্রেমী থেকে সাধারণ মানুষ। অন্তঃসত্ত্বা একটি কুকুরকে পিটিয়ে খুন করলেন এক দল ছাত্র। তার পর তার দেহ টানতে টানতে ঘোরানো হল মাঠে। দক্ষিণ-পশ্চিম দিল্লির ঘটনা।

Advertisement

অভিযুক্তেরা ওখলার ডন বস্কো টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটের পড়ুয়ারা বলে সন্দেহ পুলিশের। নিউ ফ্রেন্ডস কলোনি পুলিশ এফআইআর দায়ের করেছে। তদন্ত শুরু হয়েছে। এফআইআরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের দুই কর্মীর নাম রয়েছে, যাঁরা ঘটনার সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

ভিডিয়োতে দেখা গিয়েছে, ওই কলেজের ক্যাম্পাসের ভিতরেই একটি টিনের ছাউনিতে কুকুরটিকে নিয়ে গিয়েছে কয়েক জন ছাত্র। সেখানে তাকে মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ। ছাউনির বাইরে রড হাতে দাঁড়িয়ে রয়েছেন এক পড়ুয়া। তাঁকে ঘিরে রয়েছেন কয়েক জন। সকলের মুখে উল্লাস। ভিডিয়োয় তা-ও দেখা গিয়েছে। পরে দেখা গিয়েছে, কুকুরের দেহ টেনে নিয়ে গোটা মাঠে ঘুরছেন এক ছাত্র। সেই ভিডিয়ো এখন ভাইরাল। পশুদের নিয়ে কাজ করে এমন এক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের প্রধান অম্বিকা শুক্ল বলেন, ‘‘কয়েক জন তরুণ ছাত্রের এই কাণ্ড দেখে আমি আতঙ্কিত। অন্তঃসত্ত্বা কুকুরটিকে পিটিয়ে মেরে সকলে আবার হাসছেন।’’ অম্বিকার দাবি, অভিযুক্ত ছাত্রদের কলেজ থেকে বহিষ্কার করা উচিত। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির জরিমানা করা উচিত, কারণ তার কর্মীরাও এর সঙ্গে জড়িত।

শনিবার দু’টি কুকুরের বাচ্চাকে মারার অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছেন হায়দরাবাদের এক ব্যক্তি। প্রথম বাচ্চাটিকে গাছে ঝুলিয়ে দিয়েছিলেন অভিযুক্ত। দ্বিতীয়টিকে চার তলা থেকে ফেলে দিয়েছেন বলে অভিযোগ। কুকুর খুনের সেই ভিডিয়ো আবার নেটমাধ্যমে পোস্টও করেছিলেন তিনি। যদিও এই ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করেনি আনন্দবাজার অনলাইন।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.