Advertisement
২৩ মে ২০২৪
trinamool

Hate Speech: হরিদ্বারে ঘৃণাভাষণের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করল তৃণমূল, নির্বিকার উদ্যোক্তারা

ওই ধর্মসংসদে বক্তাদের ঘৃণাভাষণ নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে দেশ জুড়েই তা নিয়ে বিতর্ক দানা বাঁধে। বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারাও এর সমালোচনা করেন।

ডিসেম্বরের ১৭ থেকে ১৯ তারিখ— তিনদিনের ওই সভার আয়োজক যতি সঙ্ঘানন্দের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক মন্তব্যের অভিযোগ উঠেছে।

ডিসেম্বরের ১৭ থেকে ১৯ তারিখ— তিনদিনের ওই সভার আয়োজক যতি সঙ্ঘানন্দের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক মন্তব্যের অভিযোগ উঠেছে। ছবি সংগৃহীত

সংবাদ সংস্থা
হরিদ্বার শেষ আপডেট: ২৩ ডিসেম্বর ২০২১ ২২:২৯
Share: Save:

হরিদ্বারে আয়োজিত ধর্ম সংসদে ঘৃণাভাষণের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করল তৃণমূল। দলের মুখপাত্র সাকেত গোখলে উত্তরাখণ্ডের জ্বালাপুর থানায় একটি এফআইআর দায়ের করেছেন ওই সভার উদ্যোক্তা ও বক্তাদের বিরুদ্ধে।

অভিযোগ, হরিদ্বারে তিনদিনের ধর্মসংসদে বক্তারা একটি সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে হিন্দুদের অস্ত্র ধরার আহ্বান জানান। সেই সঙ্গে ভারতকে একটি হিন্দু রাষ্ট্র হিসেবে গড়ে তোলার ডাক দেন।

ডিসেম্বরের ১৭ থেকে ১৯ তারিখ— তিনদিনের ওই সভার আয়োজক যতি সঙ্ঘানন্দের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক মন্তব্যের অভিযোগ উঠেছে। সভায় তিনি বলেন, মুসলিম হমকির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হিন্দুদের হাতে অস্ত্র তুলে নিতে হবে।

ওই ধর্মসংসদে বক্তাদের ঘৃণাভাষণ নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে দেশ জুড়েই তা নিয়ে বিতর্ক দানা বাঁধে। বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারাও এর সমালোচনা করেন। কংগ্রেস নেতা শামা মহম্মদ টুইট করেন, ‘মস্করার অভিযোগে মুনাওয়ার ফারুকিকে কঠোর শাস্তির মুখে পড়তে হয়েছিল অথচ তিনি সেই বিতর্কিত মন্তব্য করেননি। অথচ ধর্ম সংসদের বিরুদ্ধে কোনওরকম শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। প্রকাশ্যে বক্তারা হত্যার হুমকি দিয়েছেন।’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

trinamool Hate speech Haridwar
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE