রবিবারের ধারাবাহিক বিস্ফোরণে সব মিলিয়ে মোট চার জন ভারতীয়ের নিহত হওয়ার খবর জানিয়েছেন বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। টুইটে তিনি নামও দিয়েছেন তাঁদের—পি এস রাজ়িনা, লক্ষ্মী, নারায়ণ চন্দ্রশেখর এবং রমেশ। তাঁদের পরিবারকে সব রকম সাহায্য করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। 

দুবাইয়ে কাজ করতেন পি এস রাজ়িনার (৫৮) ইঞ্জিনিয়ার স্বামী খাদের কুকাডি। তাঁর সঙ্গেই দুবাই থেকে শ্রীলঙ্কায় ছুটি কাটাতে এসেছিলেন রাজ়িনা। আদতে তিনি কেরলের মেঙ্গালুরুর বাসিন্দা। কলম্বোয় রবিবারের ধারাবাহিক বিস্ফোরণে প্রাণ হারিয়েছেন তিনি। কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন এই খবরে শোকবার্তা জানিয়েছেন। কলম্বোয় রাজ়িনার আত্মীয়রা ব্যবসা করেন। তাঁদের সঙ্গেই ছুটি কাটাতে এসেছিলেন। এখানকার পাঁচতারা হোটেল শাংগ্রি লা-য় উঠেছিলেন রাজ়িনারা। রবিবার ভোর-ভোর দুবাইগামী বিমান ধরার জন্য হোটেল থেকে বেরিয়ে যান খাদের। কলম্বোয় ভাই বশিরের সঙ্গে দেখা করার জন্য রয়ে যান রাজ়িনা। হোটেল থেকেই বোনকে নিয়ে আসার কথা ছিল বশিরের। শেষ পর্যন্ত হাসপাতালে রাজ়িনার দেহ শনাক্ত করেন তিনি।

কলম্বোয় ভারতীয় হাইকমিশনের সঙ্গে কথা বলে তাঁর দেহ কেরলে আনার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। ওই হোটেলেই সামান্য আঘাত পেয়ে অল্পের জন্য বেঁচে গিয়েছেন ছয় ভারতীয়।