• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ঠিক পৃথিবীর মতো গ্রহ

4
শিল্পীর কল্পনায় কেপলার-৪৫২বি। ছবি: রয়টার্স।

পৃথিবীর মতো গ্রহের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে বলে দাবি করলেন মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার বিজ্ঞানীরা। কেপলার-৪৫২বি গ্রহটি যে নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘোরে, সেই নক্ষত্রটির সঙ্গে তার দূরত্ব পৃথিবী থেকে সূর্যের দূরত্বের মতোই। তবে ব্যাসার্ধের হিসেবে কেপলার-৪৫২বি গ্রহের অক্ষপথ পৃথিবীর চেয়ে ৬০ শতাংশ বড়। নক্ষত্রের শ্রেণি হিসেবে কেপলারের ‘সূর্য’ ও পৃথিবীর সূর্য একই গোত্রের।

নাসার বিজ্ঞান শাখার প্রধান জন গ্রুন্সফেল্ড আজ জানান, পৃথিবী ও সূর্যের এই যে জুড়ি, তার সঙ্গে কেপলার ৪৫২বি ও তার নক্ষত্রের প্রচুর মিল। সেখানেই এই গ্রহটির গুরুত্ব। তবে বিজ্ঞানীদের মতে, ওই নক্ষত্রটির ভর সূর্যের চেয়ে ৪ শতাংশ বেশি। তেজেও সূর্যকে পিছনে ফেলে দিয়েছে সেটি। তার চার দিকে ঘুরতে কেপলার-৪৫২বি-র সময় লাগে ৩৮৫ দিন। ওই গ্রহের সূর্যের বয়স অবশ্য আমাদের সৌরজগতের কেন্দ্রের চেয়ে ১০০ কোটি বছরেরও বেশি। তাই কেপলার-৪৫২বি-র বর্তমান অবস্থা বিচার করে পৃথিবীর ভবিষ্যৎ সম্পর্কে কিছু ইঙ্গিত পাওয়ার আশায় রয়েছেন বিজ্ঞানীরা।

গ্রহটির ওজন ঠিক কত হতে পারে, তা নিয়ে নাসার বিজ্ঞানীদের মধ্যে জল্পনা শুরু হয়ে গিয়েছে। বিভিন্ন তথ্য খতিয়ে দেখে তাঁদের অনুমান, পৃথিবীর চার গুণ ভারী এই গ্রহ। তার মাধ্যাকর্ষণ শক্তি পৃথিবীর থেকে দু’গুণ বেশি। বেশ কয়েক দশক ধরে ‘পৃথিবীর মতো’ গ্রহের খোঁজ চালিয়ে যাচ্ছে নাসা। এখন পর্যন্ত প্রায় ৫০০টি গ্রহ, বামন গ্রহ ও উপগ্রহের সন্ধান মিলেছে যাদের সঙ্গে পৃথিবীর নানা মিল পাওয়া যায়। এই ৫০০টির মধ্যে কেপলার-৪৫২বি-ই আমাদের সৌরজগতের গ্রহগুলোর মতো। এই গ্রহের পৃষ্ঠে জল থাকারও প্রচুর সম্ভাবনা রয়েছে বলে  জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা। অনেক জীবন্ত আগ্নেয়গিরিরও সেখানে রয়েছে, অনুমান তাঁদের।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন