• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ভ্যালেন্টাইনের দিনে সকলের উপহারের চেয়ে আলাদা হোক আপনারটা, রইল টিপ্‌স

gifts
১৪ ফেব্রুয়ারির উপহারে রাখুন চমক। ছবি: পিক্সঅ্যাবে।

চুপিসারে পয়লা ফাগুনের ঘরে ক্যালেন্ডারের পা দেওয়া আর প্রিয় মানুষের জন্য কিছুটা সময় বার করে নেওয়া, এই দুই কাজে এতই বোঝাপড়া যে, ১৪ ফেব্রুয়ারি এলেই বসন্তের হাওয়া, কোকিলের কুহুতান সবই জানান দেয়— ‘সময় আসন্ন’। এমন এক সময় যা কেবল নিজের মানুষটির জন্যই বরাদ্দ। দিন জুড়ে যাবতীয় পরিকল্পনা কেবল ‘তাঁর’ কথা ভেবেই। তাই সেখানে উদযাপনের পাশেই নরম আলো ছড়ায় উপহার। স্মৃতি আর উষ্ণতার আবহ। কিছু কিনে দিতে মন চায়। তার জন্য পরিকল্পনা শুরু হয় অনেক আগে থেকেই।

ইংরেজ কবি চসার যদি না লিখতেন, ভ্যালেন্টাইনস দিবসে পাখিরা সঙ্গী খুঁজে নেয়— তা হলে কি এমন দিনের এমন মায়াবী আবেদন তৈরি হত আদৌ! না কি কেবল যুদ্ধবিগ্রহ ও সেনার বলিদানের গল্পগাথা বয়েই টিকে থাকত এই দিনটি? সে সব তর্ক আজ থাক। তার চেয়ে বরং এমন দিনে ভালবাসার মানুষটিকে কী উপহার দেবেন সে কথা ভাবুন। বাজেট যেমনই হোক, উপহারে আম্তরিকতার ছোঁওয়া যেন থাকে।

অর্থের বিনিময়ে দেখনদারি দামি উপহার তো অনেকেই কেনেন। কিন্তু আপনার উপহারে যেন প্রিয়জনের প্রতি ভালবাসার অনুচ্চার প্রকাশ থাকে। প্রিয় মানুষের উপহারে চমক থাকবে,এমন কী কী উপহার দিতে পারেন এই দিনে, রইল তার টিপ্‌স।

আরও পড়ুন: ফ্যাট আছে অথচ সুস্থ থাকতে এই সব খাবার পাতে রাখতেই হবে

  • প্রথমেই মাথায় রাখুন, দামি নয়, আন্তরিকতাই এমন উপহারের শেষ কথা। তাই দামের কথা না ভেবে প্রিয় মানুষকে চমকে দিতে পারবে এমন উপহারের কথা ভাবুন। এমন দিনে গোলাপের কোনও বিকল্প নেই। তাই নানা রঙের গোলাপ দিয়ে সাজিয়ে ফেলুন ফুলের তোড়া। তা উপহার দিন প্রিয়জনকে।
  • যদি মনের মানুষটি সাহিত্য ভালবাসেন, তবে গ্রিটিংস কার্ড বানিয়ে বা কিনে তাতে দু’কলি লিখে দিন। স্বরচিত হোক, বা কোনও কবিতা বা গানের পংক্তি, খুশি হবেন তিনি। সঙ্গে তাঁর প্রিয় লেখক বা বিষয়ের বইও কিনে দিতে পারেন।
  • পেটুক হলে মনের মতো ক্যাডবেরি বক্স কিংবা কোনও রেস্তরাঁর বাফে কুপন দিন। জোগাড় করে না উঠতে পারলে তাঁকে নিয়ে সে দিন দুপুরে বা রাতে কোনও রেস্তরাঁয় খেতে যান। পেটপুজোয় মনও খুশি হবে।
  • ভাল কেক বানাতে পারেন? তা হলে আর দেরি কেন? এই দিন উপলক্ষে বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন হৃদয়ের আকারের কেক। সেই কেক মোড়কে মুড়িয়ে উপহার দিন প্রিয়জনকে।
  • আপনাদের সম্পর্কের কথা বাড়ির লোকজন জানেন, অথচ সাক্ষাৎ হয়নি এখনও? পরিস্থিতি অনুকূল হলে, এই দিনটাকেই বেছে নিন বাড়ির সকলের সঙ্গে তাঁর আলাপ করানোর জন্য। তাঁকে বাড়িতে নিমন্ত্রণ করুন আর সম্পর্কটায় পরিবারের শিলমোহর দিইয়ে নিন। এটাও কম বড় উপহার নয় কিন্তু!
  • সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান বা খেলাধুলোয় টান আছে প্রিয় মানুষটির? তা হলে ওই দিন অনুষ্ঠিত হতে চলা কোনও নাটক, গানের অনুষ্ঠান বা খেলার টিকিট উপহার দিন তাঁকে।
  • বিভিন্ন বইয়ের দোকান ও গয়নার দোকানও আজকাল গিফট কুপন বিক্রি করে। বাজেট বুঝে তেমন দামের গিফট কুপনও দিতে পারেন অনায়াসে।

আরও পড়ুন: কাপড়ে হলুদ বা চায়ের দাগ? এ সব ঘরোয়া উপায়ে পোশাক হবে ধোপদুরস্ত

দু’জনের জন্য কাটা সিনেমার টিকিটও হতেই পারে উপহার। ছবি: পিক্সঅ্যাবে।

  • ভারতীয় ডাকঘরে নামমাত্র খরচে নিজেরছবি দেওয়া ডাকটিকিট মেলে। প্রিয় মানুষের ছবি ছাপাতে পারেন সেখানেও। ডাকটিকিটে নিজের ছবি দেখে চমকে যাবেন তিনি।
  • কফি মগ, ফোটো ফ্রেম বা ফুলদানি এই দিনের ভাল উপহার। তবে প্রিয় মানুষের ছবি দেওয়া কফি মগ কয়েক বছর ধরেই এমন দিনের উপহারের রেওয়াজে জায়গা করে নিয়েছে। বেছে নিতে পারেন তেমন বিকল্পও।
  • প্রস্তাব দিয়েছেন তিনি, আপনি এখনও সম্মতি দেননি, তা হলে এই দিনটাকেই বেছে নিন নিজেদের প্রেমের পথ শুরু করার জন্য। তাঁকে ভাল লাগলে এ বার ‘হ্যাঁ’ বলে দিন এই দিনেই। এমন দিনে অসামান্য এক উপহার হবে আপনার সম্মতি।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন