মা-বাবার বিবাদ গড়াল হাতাহাতিতে। আর তার জেরে বেঘোরে প্রাণ গেল পাঁচ মাসের শিশুর। ওই দম্পতির বিরুদ্ধে অনিচ্ছাকৃত খুনের মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। তবে শিশুটির বাবা গা ঢাকা দিয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

পূর্ব দিল্লির কোন্দলি এলাকায় সম্প্রতি এই ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত রবিবার রাতে ২৯ বছরের দীপ্তি এবং তাঁর স্বামী ৩২ বছরের সত্যজিতের মধ্যে ঝামেলা বাধে। বচসা ক্রমশ হাতাহাতিতে পরিণত হয়। দীপ্তিকে লাঠি দিয়ে মারতে শুরু করে সত্যজিৎ। ওই লাঠিতেই একটি পেরেক আঁটা ছিল বলে জানা গিয়েছে, হাত ফস্কে যা শিশুটির মাথায় গিয়ে লাগে। 

শুরুতে বাড়িতেই শিশুটির প্রাথমিক চিকিৎসা করেন দীপ্তি এবং সত্যজিৎ। স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রেও নিয়ে যায় তারা।কিন্তু মঙ্গলবার সকাল থেকে আচমকা পরিস্থিতির অবনতি হতে শুরু করে। লাগাতার বমি করতে শুরু করে শিশুটি। তড়িঘড়ি দিল্লির ম্যাক্স হাসপাতালে নিয়ে গেলে, তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা।  

আরও পড়ুন: ‘মুচলেকা কেন?’ কাশ্মীরে রাজনীতিকদের শর্তসাপেক্ষ মুক্তি নিয়ে প্রতিবাদ মেহবুবা কন্যার​

আরও পড়ুন: হালিশহরে দুষ্কৃতীরাজ! ছেলেকে না পেয়ে বাবাকে খুন করল আততায়ীরা​

সজোরে আঘাতের ফলে মস্তিষ্কে রক্ত জমাট বেঁধেই শিশুটির মৃত্যু হয়েছে বলে ময়নাতদন্তের রিপোর্টে উঠে এসেছে। ওই দম্পতির বিরুদ্ধে গাজিপুর থানায় ৩০৪ ধারায় (অনিচ্ছাকৃত খুন) মামলা দায়ের হয়েছে। তবে শিশুটির বাবা ইতিমধ্যেই গা ঢাকা দিয়েছে। তার খোঁজে তল্লাশি চলছে।